সরকারকে তথ্য পাচারের অভিযোগ অস্বীকার টিকটকের

মানবজমিন ডেস্ক

বিশ্বজমিন ৩০ জুন ২০২০, মঙ্গলবার

ভারতীয় ব্যবহারকারীদের তথ্য চীনা সরকারকে প্রদানের দাবি অস্বীকার করেছে টিকটক। রাষ্ট্রীয় নিরাপত্তা ও তথ্য পাচারের আশঙ্কা থেকে এর আগে টিকটকসহ ৫৮ চীনা এপলিকেশন বন্ধের ঘোষণা দিয়ে ভারত। অবশেষে এ নিয়ে মুখ খুলেছে প্রতিষ্ঠানটি। ভারতেই টিকটকের সবথেকে বেশি ব্যবহারকারী রয়েছে। এ খবর দিয়েছে আল-জাজিরা।
খবরে বলা হয়, ভারতীয় আইন মেনেই এপলিকেশনটি পরিচালনা করতো বলে দাবি করেছে টিকটক। চীনের বাইটডান্স কোম্পানির শাখা প্রতিষ্ঠান টিকটক। কোম্পানিটি জানিয়েছে, টিক টক ভারতের প্রচলিত আইন মেনেই সব সময় তাদের কার্যক্রম পরিচালনা করে এসেছে। একই সঙ্গে তারা দাবি করে, প্রতিষ্ঠানটি চীন সরকারের কাছে কোন ভারতীয়র ব্যক্তিগত তথ্য শেয়ার করেনি।
টিকটক আরো দাবি করে, তারা কখনোই তাদের ব্যবহারকারীর ব্যক্তিগত নিরাপত্তা ঝুঁকিতে ফেলেনি।
তাদের কাছে ব্যবহারকারীদের প্রাইভেসি ও সম্মান সবথেকে বেশি গুরুত্বপূর্ণ। তাই তারা ভারত সরকারের কর্মকর্তাদের সঙ্গে পুনরায় বিষয়টি নিয়ে পর্যালোচনার জন্য বসতে ইচ্ছুক। সেখানে টিক টক তাদের কর্মপদ্ধতি সম্পর্কে বিস্তারিত ভারতীয় কর্মকর্তাদেরকে জানাবে বলেও প্রতিশ্রুতি দিয়েছে।
উল্লেখ্য, ভারতেই রয়েছে টিক টক এর সব থেকে বেশি ব্যবহারকারী। অনলাইন ভিডিও প্ল্যাটফর্মটির মোট ব্যবহারকারীর ৩০ শতাংশের বেশি বাস করেন ভারতে। দেশটি থেকে এখন পর্যন্ত এই অ্যাপস ৬১ কোটি বারেরও বেশি ডাউনলোড করা হয়েছে। চীনের এই কোম্পানিটি সম্প্রতি ভারতের স্থানীয় কার্যালয় খোলার ঘোষণা দিয়েছিল। তারা দেশটিতে এক বিলিয়ন মার্কিন ডলার বিনিয়োগ করতে চায। তবে ভারত সরকারের সর্বশেষ সিদ্ধান্তের কারণে এখন সবই ঝুলে রয়েছে।

আপনার মতামত দিন

বিশ্বজমিন অন্যান্য খবর



বিশ্বজমিন সর্বাধিক পঠিত