ঢাকায় জালালাবাদের বৈদেশিক সম্মেলন

বিমানবন্দরে প্রবাসীদের হয়রানি বন্ধের দাবি

স্টাফ রিপোর্টার

দেশ বিদেশ ১৯ জানুয়ারি ২০২০, রোববার | সর্বশেষ আপডেট: ১০:৩৬

ঢাকায় জালালাবাদ এসোসিয়েশনের বৈদেশিক নির্বাহী সম্মেলনে একটি দাবির প্রতি প্রায় অভিন্ন অবস্থান ব্যক্ত করেছেন বিশ্বের বিভিন্ন দেশে কর্মরত প্রবাসীরা। তা হলো- দেশের বিমানবন্দরে প্রবাসী হয়রানি বন্ধ করা। জালালাবাদের প্রতিনিধিরাও বলেন- প্রধানমন্ত্রী, পররাষ্ট্রমন্ত্রী এবং প্রবাসী কল্যাণমন্ত্রীর সুস্পষ্ট নির্দেশনার পরও হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে প্রবাসীদের হয়রানি বন্ধ হয়নি বরং কোন কোন ক্ষেত্রে পরোক্ষ যন্ত্রণা বেড়েছে। হয়রানির করুন কাহিনীগুলো ওঠে আসে নন-রেসিডেন্ট বাংলাদেশি-এনআরবিদের নিয়ে কাজ করা বিভিন্ন সংগঠনের প্রতিনিধিদের বক্তব্যেও। সেখানে বলা হয়- স্বাধীনতার ৪৯ বছরে বাংলাদেশের যে অর্থনৈতিক অগ্রগতি হয়েছে তাতে বড় অবদান রেমিটেন্স যোদ্ধা প্রবাসীদের। গ্রামাঞ্চলের উন্নতিতেও প্রবাসীদের তাৎপর্যপূর্ণ ভুমিকা রয়েছে। কিন্তু দেশে এসে প্রবাসীরা কখনও কাঙ্খিত মর্যাদা পান না। নানারকম নেতিবাচক স্মৃতি সঙ্গে করে তাদের কর্মস্থলে ফিরতে হয়, যা অনাকাঙ্খিত।
রাজধানীর গুলশানের একটি অভিজাত হোটেলে জালালাবাদ এসোসিয়েশনের সভাপতি একে আবদুল মুবিনের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত দিনব্যাপী ওই সম্মেলনের বিভিন্ন সেশনে সরকারের মন্ত্রী, সচিব ছাড়াও এসোসিয়েশনের সাবেক ও বর্তমান নেতৃবৃন্ধ এবং বিশিষ্টজনরা বক্তব্য রাখেন। তাদের আলোচনায় প্রস্তাবিত জালালাবাদ বিশ্ববিদ্যালয়ের কার্যক্রমসহ সংগঠনের জনকল্যাণমূলক কর্মকাণ্ডের বিভিন্ন দিক ওঠে আসে। সম্মেলনে বাংলাদেশের বিশেষত: সিলেটের সমৃদ্ধ সংস্কৃতিকে বিশ্বের বিভিন্ন দেশে ছড়িয়ে দেয়ার তাগিদ দেয়া হয়। সংগঠনের বৈদেশিক শাখার নেতাদের অংশগ্রহণে ঢাকায় প্রথমবারের মত অনুষ্ঠিত ওই সম্মেলন মনোজ্ঞ সন্ধ্যার মধ্য দিয়ে শেষ হয়।

আপনার মতামত দিন



দেশ বিদেশ অন্যান্য খবর

সরকার নির্বাচন কমিশনকে ধ্বংস করে দিয়েছে: মোশাররফ

২৬ ফেব্রুয়ারি ২০২০

বর্তমান সরকার নির্বাচন কমিশনকে সম্পূর্ণভাবে ধ্বংস করে দিয়েছে বলে মন্তব্য করেছেন বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য ...

২০৪১ সালে জিডিপি প্রবৃদ্ধি হবে ৯.৯ শতাংশ

২৬ ফেব্রুয়ারি ২০২০

দেশের দ্বিতীয় প্রেক্ষিত পরিকল্পনা ২০২১- ৪১ এনইসি সভায় অনুমোদন পেয়েছে। এই ২০ বছরের মধ্যে এ ...

সঞ্চয়পত্রে বিনিয়োগ সীমা আরো কমানো হচ্ছে

২৬ ফেব্রুয়ারি ২০২০

সঞ্চয়পত্রে বিনিয়োগ নিরুৎসাহিত করতে ইতিমধ্যেই বিভিন্ন পদক্ষেপ গ্রহণ করেছে সরকার। এসব পদক্ষেপের মধ্যে আবারো জাতীয় ...

প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশেই পাপিয়াকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে: ওবায়দুল কাদের

২৬ ফেব্রুয়ারি ২০২০

যুব মহিলা লীগের নেত্রী শামীমা নূর পাপিয়াকে প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশেই গ্রেপ্তার করা হয়েছে বলে জানিয়েছেন, আওয়ামী ...

ক্ষমতায় গেলে পিলখানা হত্যাকাণ্ডের পুনঃবিচারের উদ্যোগ নেয়া হবে: ফখরুল

২৬ ফেব্রুয়ারি ২০২০

বিএনপি ক্ষমতায় গেলে পিলখানা হত্যার নিরপেক্ষ তদন্ত করে পুনঃবিচারের উদ্যোগ নেবে বলে মন্তব্য করেছেন, দলটির ...

সড়কে ঝরলো ৭ প্রাণ

২৬ ফেব্রুয়ারি ২০২০

সারা দেশে গতকাল সড়ক দুর্ঘটনায় অন্তত ৭ জন নিহত হয়েছেন। এদের মধ্যে সিরাজগঞ্জের সলঙ্গায় ৩, ...

বিসমিল্লাহ গ্রুপের চেয়ারম্যান ও এমডিকে ৭ দিনের মধ্যে গ্রেপ্তারের নির্দেশ

২৬ ফেব্রুয়ারি ২০২০

বিসমিল্লাহ গ্রুপের ব্যবস্থাপনা পরিচালক (এমডি) খাজা সোলেমান আনোয়ার চৌধুরী ও তার স্ত্রী গ্রুপের চেয়ারম্যান নওরিন ...

কাতারে মোসাদ প্রধান হামাসকে অর্থায়নের আর্জি

২৬ ফেব্রুয়ারি ২০২০

৫ই ফেব্রুয়ারি কাতারের রাজধানী দোহা সফর করেছেন ইসরাইলের গোয়েন্দা সংস্থা মোসাদ-এর প্রধান ইয়োসি কোহেন। তার ...

জাতীয় কোষাগারে যে উপহার ফেরত দিয়েছেন ট্রাম্প

২৬ ফেব্রুয়ারি ২০২০

কোন ধরনের উপহারে খুশি হন যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট ডনাল্ড ট্রাম্প? এ প্রশ্নের উত্তর এক একজনের কাছে ...

রিপোর্ট প্রত্যাখ্যান

উচ্চ আদালতে যাওয়ার ঘোষণা সালমান শাহ’র পরিবারের

২৫ ফেব্রুয়ারি ২০২০



দেশ বিদেশ সর্বাধিক পঠিত