‘আওয়ামী লীগ আমার আবেগ আমার অস্তিত্ব’

স্টাফ রিপোর্টার, সিলেট থেকে

শেষের পাতা ৮ ডিসেম্বর ২০১৯, রোববার | সর্বশেষ আপডেট: ১২:৩৬

সচরাচর সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে নিজেকে নিয়ে কোনো পোস্ট দেন না সিলেটের সাবেক মেয়র বদরউদ্দিন আহমদ কামরান। কিন্তু এবার সিলেট আওয়ামী লীগের সম্মেলনের পর আবেগ মেশানো একটি পোস্ট দিলেন নিজের ফেসবুক পেজে। অনেক কথা বললেন তিনি। সিলেট আওয়ামী লীগ ও সিলেটকে ঘিরে তার মনের না বলা কথা জানালেন। কৃতজ্ঞতা জানালেন দলীয় প্রধান শেখ হাসিনার প্রতিও। দীর্ঘদিন সিলেট মহানগর আওয়ামী লীগের সভাপতি ছিলেন কামরান। ছিলেন দুইবারের মেয়রও। মেয়র পদ হারানোর পর সিলেট আওয়ামী লীগের রাজনীতি নিয়ে ব্যস্ত ছিলেন।
এবারের সম্মেলনে সেখান থেকে পেলেন ছুটি। তবে, কেন্দ্রীয় সদস্য পদটি বহাল রয়েছে তার। সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ‘অভিনন্দন ও কৃতজ্ঞতা!!!’ শিরোনামে  পোস্টটিতে কামরান শুরুতেই বলেন- ‘সিলেট জেলা ও মহানগর আওয়ামী লীগের ত্রিবার্ষিক সম্মেলন সফল ও স্বার্থকভাবে সম্পন্ন হওয়ায় আমি গভীর কৃতজ্ঞতা জানাই আমাদের অভিভাবক, সফল রাষ্ট্রনায়ক, বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের সভানেত্রী, মাননীয় প্রধানমন্ত্রী দেশরত্ন জননেত্রী শেখ হাসিনা, বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের সংগ্রামী সাধারণ সম্পাদক, মাননীয় সড়ক পরিবহন ও সেতু মন্ত্রী জননেতা ওবায়দুল কাদের এমপিসহ পরম শ্রদ্ধেয় জাতীয় নেতৃবৃন্দ, সিলেট জেলা ও মহানগর আওয়ামী লীগের  নেতৃবৃন্দ, ওয়ার্ড, উপজেলা, ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের  নেতৃবৃন্দ, অঙ্গ সহযোগী সংগঠনের নেতা-কর্মী, শুভাকাঙ্ক্ষী, শুভানুধ্যায়ী, কর্মী, সমর্থকসহ সর্বস্তরের সম্মানিত সিলেটবাসীকে। আপনাদের আন্তরিক সহযোগিতা ও ঐকান্তিক প্রচেষ্টায় একটি আড়ম্বরপূর্ণ সফল সম্মেলন আমরা সম্পন্ন করতে পেরেছি। এই সম্মেলনের মাধ্যমে সিলেট জেলা ও মহানগর আওয়ামী লীগের নতুন সভাপতি, সাধারণ সম্পাদকদের জানাই প্রাণঢালা অভিনন্দন। আমি আশা করি আপনাদের নেতৃত্বে জেলা ও মহানগর আওয়ামী লীগের কার্যক্রম আরো বেশি বেগবান হবে। আপনারা মাননীয় প্রধানমন্ত্রী দেশরত্ন জননেত্রী শেখ হাসিনার উন্নয়ন ও অগ্রগতির রাজনীতির সুফল পুণ্যভূমি সিলেটে বাস্তবায়নে কাজ করবেন, আওয়ামী লীগের অগ্রযাত্রা অব্যাহত রাখবেন। দলের প্রয়োজনে যখনই আমাকে ডাকবেন আমি আমার পূর্ণ শক্তি নিয়ে আপনাদের পাশে থাকব।’ কামরান বলেন, ‘জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের আদর্শের এক সৈনিক হয়ে  দেশরত্ন জননেত্রী শেখ হাসিনার সুখী, সমৃদ্ধ, সুখ ও শান্তির ডিজিটাল বাংলাদেশ গড়ে তুলতে আওয়ামী লীগের কর্মী হয়ে আমৃত্যু কাজ করে যেতে চাই।

আওয়ামী লীগ আমার আবেগ, আমার অস্তিত্ব। আমার সব ভালোবাসা আর উচ্ছ্বাস আওয়ামী লীগকে ঘিরে। দল ও দলের সকল স্তরের নেতাকর্মীদের প্রতি আমার হৃদয়জ শুভেচ্ছা রইল। মহান আল্লাহ পাক যেন আমার প্রাণপ্রিয় নেত্রী, বিশ্ব শান্তির অগ্রদূত, বাংলার মানুষের আশা ভরসারস্থল, মাননীয় প্রধানমন্ত্রী দেশরত্ন জননেত্রী শেখ হাসিনাকে দীর্ঘায়ু দান করুন, সুস্থ রাখুন এবং উন্নত ও সমৃদ্ধ বাংলাদেশ গড়তে ও জাতির ভাগ্যোন্নয়নে কাজ করার আরও বেশি শক্তি দান করুন। দল ও দলের নেতা কর্মীদের সাথে আমার আত্মার সম্পর্ক, আমার হৃদয়ের ভালবাসা আমার প্রিয় দলকে আর প্রিয় সিলেটকে ঘিরে। দলের সাথে সবসময় ছিলাম, এখনও আছি এবং ইনশাআল্লাহ ভবিষ্যতেও দলের প্রয়োজনে নিজের সবটুকু দিয়ে কাজ করে যেতে চাই। সকলের দীর্ঘায়ু ও সর্বাঙ্গীণ মঙ্গল কামনা করি।’

পাঠকের মতামত

**মন্তব্য সমূহ পাঠকের একান্ত ব্যক্তিগত। এর জন্য সম্পাদক দায়ী নন।

শাহ

২০১৯-১২-০৭ ১৭:০৭:৩৪

কামরান আর আওয়ামীলীগ সমার্থক,সিলেটের মানুষের মনের মনিকোঠায় কামরান থাকবেন,আমি আশা করি শেখ হাসিনা প্রিয় কামরানকে জাতীয় কাজে লাগাবেন,

আপনার মতামত দিন



শেষের পাতা অন্যান্য খবর

নাঈমে শেষ বিকালে স্বস্তি

২৩ ফেব্রুয়ারি ২০২০

কলকাতার ডায়েরি

কলকাতায় চলবে লন্ডনের মতো ছাদ খোলা দোতলা বাস

২৩ ফেব্রুয়ারি ২০২০



শেষের পাতা সর্বাধিক পঠিত



বৃটিশ বিজ্ঞানীর দাবি

আসছে করোনা ভাইরাসের টিকা

একুশে পদক প্রদান অনুষ্ঠানে প্রধানমন্ত্রী

ইতিহাস কেউ মুছে ফেলতে পারে না