চতুর্থ চলচ্চিত্র নির্মাণে তৌকীর

স্টাফ রিপোর্টার | ২০১৫-০৪-০৩ ৮:৪১
দর্শকপ্রিয় নাট্যাভিনেতা ও নির্মাতা তৌকীর আহমেদ আবার চলচ্চিত্র নির্মাণ করতে যাচ্ছেন। চলচ্চিত্রের নাম ‘অজ্ঞাতনামা’। এর কাহিনী, সংলাপ ও চিত্রনাট্য করেছেন তিনি নিজেই। আসছে মে মাসের মাঝামাঝি সময় চলচ্চিত্রটির নির্মাণকাজ শুরু হতে যাচ্ছে। তিন বছর ধরে তৌকীর আহমেদ তিনটি মঞ্চনাটকের পাণ্ডুলিপি নিয়ে ব্যস্ত ছিলেন। এগুলো হচ্ছে- ‘প্রতিসরণ’, ‘ইচ্ছা মৃত্যু’ ও ‘অজ্ঞাতনামা’। ‘অজ্ঞাতনামা’রই চিত্রনাট্য তৈরি করে তিনি দর্শকের জন্য চলচ্চিত্র নির্মাণ করতে যাচ্ছেন। এতে কে কে অভিনয় করবেন এখন চলছে তারই প্রক্রিয়া। দু-একদিনের মধ্যেই তৌকীর আহমেদ তার ইউনিট নিয়ে লোকেশনের খোঁজে বের হবেন। তবে আপাতত গল্প নিয়ে কোন কিছু বলছেন না তিনি। দীর্ঘ আট বছর পর চলচ্চিত্র নির্মাণ করা প্রসঙ্গে তৌকীর আহমেদ বলেন, এই দীর্ঘ আট বছর কিন্তু আমি খুব ব্যস্ত সময় কাটিয়েছি। আমার রিসোর্ট ‘নক্ষত্রবাড়ি’, ছোট পর্দার কাজ করাসহ মঞ্চনাটকের পাণ্ডুলিপি নিয়ে ব্যস্ত ছিলাম। অনেক দিন ধরেই অজ্ঞাতনামার চিত্রনাট্য তৈরি করে অবশেষে চলচ্চিত্রটি নির্মাণের পুরো প্রস্তুতি নিয়েছি। আশা করি দর্শকদের মনের মতো একটি চলচ্চিত্র উপহার দিতে পারবো। শিল্পী-কুশলীদের সহযোগিতায় এটি একটি ভাল চলচ্চিত্রই হবে বলে আমি বিশ্বাস করি। তৌকীর আহমেদ জানান, চলচ্চিত্রটি প্রযোজনা করছে ইমপ্রেস টেলিফিল্ম। উল্লেখ্য, তৌকীর আহমেদ প্রথম চলচ্চিত্র নির্মাণ করেন ২০০৪ সালে। সেটি ছিল মুক্তিযুদ্ধের চলচ্চিত্র ‘জয়যাত্রা’। এরপর ২০০৬ সালে তিনি নির্মাণ করেন ‘রূপকথার গল্প’। ২০০৭ সালে তিনি সর্বশেষ হুমায়ূন আহমেদের গল্প নিয়ে নির্মাণ করেন ‘দারুচিনি দ্বীপ’ চলচ্চিত্রটি। ২০০৮ থেকে ২০১১ সালের ১৬ই ডিসেম্বর পর্যন্ত তিনি তার রিসোর্ট ‘নক্ষত্রবাড়ি’র ডিজাইন ও এর নির্মাণকাজ নিয়ে ব্যস্ত সময় পার করেছেন।