ডিআইজি মিজানকে প্রত্যাহার

অনলাইন

স্টাফ রিপোর্টার | ৯ জানুয়ারি ২০১৮, মঙ্গলবার, ৩:৫৪ | সর্বশেষ আপডেট: ৩:৫৭
ব্যাংকারকে জোর করে বিয়ে ও সম্পর্ক গোপন রাখার অভিযোগে অভিযুক্ত পুলিশের ডিআইজি মিজানুর রহমানকে ডিএমপি থেকে প্রত্যাহার করে পুলিশ সদর দফতরে সংযুক্ত করা হয়েছে। আজ মঙ্গলবার ঢাকার রাজারবাগে পুলিশ সপ্তাহের অনুষ্ঠানে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খাঁন কামাল সাংবাদিকদের এ তথ্য জানান ওই নারী ব্যাংকার একটি গণমাধ্যমকে দেয়া তার সাক্ষাৎকারে জানান, গত জুলাই মাসে তার বাসা থেকে তাকে কৌশলে তুলে নিয়ে গিয়েছিলেন পুলিশ কর্মকর্তা মিজান। পরে বেইলি রোডের মিজানের বাসায় নিয়ে তিনদিন আটকে রাখা হয়েছিল তাকে। আটকে রাখার পর বগুড়া থেকে তার মাকে ১৭ জুলাই ডেকে আনা হয় এবং ৫০ লাখ টাকা কাবিননামায় মিজানকে বিয়ে করতে বাধ্য করা হয়। পরে লালমাটিয়ার একটি ভাড়া বাড়িতে একসঙ্গে বসবাস করেছেন ডিআইজি মিজান। নিজের ফেসবুকে স্ত্রী পরিচয় দিয়ে একটি ছবি শেয়ারের পর ওই নারীর ওপর ক্ষেপে যান মিজান।
বাড়ি ভাঙচুরের একটি মামলায় তাকে গত ১২ ডিসেম্বর কারাগারে পাঠানো হয়। ওই মামলায় জামিন পাওয়ার পর মিথ্যা কাবিননামা তৈরির অভিযোগে আরেকটি মামলায় তাকে আটক দেখানো হয়। দুই মামলাতেই জামিনের পর ডিআইজি মিজানের বিরুদ্ধে এসব অভিযোগ তোলেন ওই নারী।

এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

পাঠকের মতামত

**মন্তব্য সমূহ পাঠকের একান্ত ব্যক্তিগত। এর জন্য সম্পাদক দায়ী নন।

অাজিজ

২০১৮-০১-০৯ ০৫:৫৯:৩৭

প্রকৃত দোষী হলে চাকুরিচ্যুত সহ অাইনের অাওতায় অানাহোক।অার তদন্তকারী যেন পুলিশকে না দেয়া হয়

md kamal

২০১৮-০১-০৯ ০৪:৪২:২৪

পলিশয়ের চাকরি থেকে পুরা পুরি বাদ দেওয়া অছিত ছিল তাকে,

Abdul kariK Hakim

২০১৮-০১-০৯ ০৪:১৩:৪০

পুলিশে যেহেতু দলিও কর্মী নিয়োগ দেওয়া হয়েছে সুতরাং দলিও কর্মীর বিচার হবেনা!

kodu

২০১৮-০১-০৯ ০৪:০৩:০৭

Century Mizan.

নূরুল ইসলাম

২০১৮-০১-০৯ ০৩:৩৭:২৬

লুচ্ছা ভেজাল কারভারীর বিচার চাই।

kazi

২০১৮-০১-০৯ ০৩:১১:৩৮

পুলিশ বাহিনীর দোষ নয়। কিন্তু পুলিশের পদবির ক্ষমতার অপব্যবহার করে জোরপূর্বক বিয়ে এবং মামলা সাজিয়ে জামিনের পর আবার আটক করার ঘটনা একমাত্র পুলিশ বাহিনীর লোক হিসাবেই সম্ভব হয়েছ। যা ক্ষমতার মারাত্মক অপব্যবহার ।

আপনার মতামত দিন

‘কোটার কারণে দেশের মেধাবীরা আজ বিপন্ন’

১০০০০০ অবৈধ বাংলাদেশিকে ফেরাতে প্রণোদনা দেবে ইইউ

ট্রাম্প প্রশাসন আটকে গেছে

রোহিঙ্গা ক্যাম্পে গুলিতে নিহত ১

মেয়র আইভী আশঙ্কামুক্ত

নেপথ্যে কোটি টাকার চাঁদাবাজি

উপযুক্ত সময়ে নির্বাচনকালীন সরকারের রূপরেখা ঘোষণা

সহায়ক সরকারে বিএনপির অংশগ্রহণ থাকবে না

তিনি তখন টেলিফোন অন রাখতেন

টঙ্গীমুখী মানুষের স্রোত

‘চোখের সামনে বাবাকে মরতে দেখেছি বাঁচাতে পারিনি’

ওটা যেন আমার মৃত্যু পরোয়ানা ছিল

ভালো নেই বৃক্ষমানব মুক্তামণির পরিবারও দুশ্চিন্তায়

সিলেট-৩ আসনে মনোনয়ন আদায় করে ছাড়ব

‘সহায়ক সরকারে বিএনপির অংশগ্রহণ থাকবে না’

কারাবন্দি বাবাকে দেখে ফেরার পথে প্রাণ গেল ছেলের