আলাবামায় সিনেট নির্বাচন

জিতলেন ডগ জোনস, হারলেন রয় মুরস

বিশ্বজমিন

মানবজমিন ডেস্ক | ১৩ ডিসেম্বর ২০১৭, বুধবার
তীব্র প্রতিদ্বন্দ্বিতাপূর্ণ লড়াইয়ে যুক্তরাষ্ট্রের আলাবামায় সিনেট নির্বাচনে রিপাবলিকান প্রার্থী, বহুল বিতর্কিত রয় মুরকে পরাজিত করেছেন ডেমোক্রেট ডগ জোনস। মঙ্গলবার অনুষ্ঠিত এই নির্বাচনে এ দু’প্রার্থীর হাড্ডাহাড্ডি লড়াই হয়। একে প্রেসিডেন্ট ডনাল্ড ট্রাম্পের প্রতি প্রচন্ড এক আঘাত হিসেবে দেখা হচ্ছে। কারণ, রয় মুরের বিরুদ্ধে বিপুল সংখ্যক নারী যৌন হয়রানির অভিযোগ এনেছেন। তারা প্রকাশ্যে মুখ কুলে বলেছেন সব। এমন অভিযোগের প্রেক্ষিতে রয় মুরকে রিপাবলিকান প্রার্থী না করতে চাপ বাড়ে।
কিন্তু তার পাশে দাঁড়ান ট্রাম্প। তিনি তাকে সমর্থন দেন। আর চূড়ান্ত পর্বে এসে সেই রয় মুর ধরাশায়ী হলেন, মানে ট্রাম্প একটি ধাক্কা খেলেন। এর মধ্য দিয়ে প্রায় ২৫ বছর পর সিনেটের ওই আসনটি হারালো রিপাবলিকানরা। আর সবাইকে হতাশ করে দিয়ে সেখানে এই সময়ের মধ্যে প্রথমবার ডেমোক্রেট সিনেট হিসেবে নির্বাচিত হলেন ডগ জোনস। এর ফলে যুক্তরাষ্ট্রের কংগ্রেসে রিপাবলিকান ও ডেমোক্রেটদের আসন দাঁড়ালো ৫১ ও ৪৯। খুব সামান্য অর্থাৎ মাত্র দুটি আসন বেশি পেয়ে সংখ্যাগরিষ্ঠতা ধরে রাখলো রিপাবলিকানরা। বার্তা সংস্থা রয়টার্স লিখেছে, আলাবামার এই নির্বাচনকে কেন্দ্র করে ভীষণ এক নোংরামি শুরু হয়। এতে জাতীয় মনোযোগ বাড়ে। দেখা দেয় রিপাবলিকানদের মধ্যে বিভক্তি। বিশেষ করে রয় মুরের যৌন কেলেঙ্কারির অভিযোগের জন্য এই বিভক্তি তীব্র হয়। তার বিরুদ্ধে কিশোরী মেয়েদের যৌন হয়রানির অভিযোগ ওঠে। ওই সময় রয় মুর ছিল ৩০ বছর বয়সী। এ অভিযোগে রয় মুরের পাশ থেকে সরে গিয়েছিলেন ওয়াশিংটনে দলের বড় বড় নেতারা। তা সত্ত্বেও তাকে অনুমোদন দেন ট্রাম্প। ফল যা হবার তা-ই হয়েছে।  

এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

আপনার মতামত দিন