দুদকের জিজ্ঞাসাবাদে নার্ভাস বাচ্চু

শেষের পাতা

স্টাফ রিপোর্টার | ৭ ডিসেম্বর ২০১৭, বৃহস্পতিবার | সর্বশেষ আপডেট: ৮:৪৫
বেসিক ব্যাংক কেলেঙ্কারির অভিযোগে ব্যাংকটির সাবেক চেয়ারম্যান শেখ আবদুল হাই বাচ্চুকে দ্বিতীয় দিনের মতো  জিজ্ঞাসাবাদ করেছে দুর্নীতি দমন কমিশন (দুদক)। গতকাল সকাল ১০টা থেকে বিকাল প্রায় ৫টা পর্যন্ত দুদকের সেগুনবাগিচার প্রধান কার্যালয়ে কমিশনের পরিচালক জায়েদ হোসেন খান ও সৈয়দ ইকবালের নেতৃত্বে ৯ সদস্যের একটি টিম বাচ্চুকে জিজ্ঞাসাবাদ করেন। এসময় তাকে নার্ভাস লাগছিল। রাষ্ট্রায়ত্ত বেসিক ব্যাংক থেকে নিয়মবহির্ভূতভাবে সাড়ে তিন হাজার কোটি টাকা ঋণ বিতরণের জন্য রাজধানীর তিনটি থানায় করা ৫৬টি মামলায় তাকে আলাদা আলাদা জিজ্ঞাসাবাদ করেন দুদকের তদন্ত কর্মকর্তারা। জিজ্ঞাসাবাদের এক পর্যায়ে দুপুর ২টার দিকে তিনি শারীরিকভাবে অসুস্থ হয়ে পড়েন। পরে দুদকের নিজস্ব চিকিৎসক তাৎক্ষণিক চিকিৎসা দেয়ার পর পুনরায় তাকে জিজ্ঞাসাবাদ শুরু হয়।
দিনভর জিজ্ঞাসাবাদ শেষে বিকাল ৫টার দিকে দুদক কার্যালয় থেকে বের হওয়ার সময় তিনি সাংবাদিকদের সঙ্গে কোনো কথা বলেননি। সাংবাদিকরা নানা প্রশ্ন করলেও তিনি চুপ ছিলেন। তখন তাকে অনেকটাই বিমর্ষ দেখা যায়। মাথা নিচু করে তিনি ব্যক্তিগত গাড়িতে উঠে চলে যান। এর আগে গত সোমবার বহুল আলোচিত বেসিক ব্যাংক কেলেঙ্কারিতে প্রথম বারের মতো বাচ্চুকে জিজ্ঞাসাবাদ করে দুদক। সেদিন তিনি বের হওয়ার সময় সাংবাদিকদের বলেন, তার বিরুদ্ধে অভিযোগগুলো তদন্তাধীন রয়েছে। এখনো তা প্রমাণিত নয়। এ ছাড়া দুদক কর্মকর্তারা যা জানতে চেয়েছেন, তার উত্তর তিনি দিয়েছেন। আবারো ডাকা হলে তিনি সহযোগিতা করবেন।  তিনি আরো বলেন,  নিজেকে আমি দোষী মনে করি না। তদন্ত চলা অবস্থায় দুদক যে অভিযোগগুলো সম্পর্কে প্রশ্ন করেছে সেগুলোর উত্তর দিয়েছি। প্রয়োজনবোধে দুদককে আরো সহযোগিতা করবো। এদিকে বেসিক ব্যাংক কেলেঙ্কারি নিয়ে গত ২২শে নভেম্বর থেকে চলা জিজ্ঞাসাবাদে বাচ্চুর দুই মেয়াদে ব্যাংকের পরিচালনা পর্ষদের সাবেক ১০ সদস্যকেও ইতিমধ্যে জিজ্ঞাসাবাদ করেছে দুদক। তারা হলেন- ব্যাংকের সাবেক পরিচালনা পর্ষদের পরিচালক কামরুন নাহার আহমেদ, অধ্যাপক কাজী আকতার হোসাইন, সাখাওয়াত হোসেন, ফখরুল ইসলাম, একেএম কামরুল ইসলাম, জাহাঙ্গীর আখন্দ সেলিম, শ্যাম সুন্দর শিকদার, একেএম রেজাউর রহমান, আনোয়ারুল ইসলাম ও আনিস আহমেদ। তাদের আলাদা চিঠি দিয়ে দুদকে তলব করা হয়েছিল। তারই ধারাবাহিকতায় এখন ব্যাংকের সাবেক চেয়ারম্যান আব্দুল হাই বাচ্চুকে জিজ্ঞাসাবাদ চলছে। দুদক কর্মকর্তারা জানিয়েছেন, পর্যায়ক্রমে সবাইকে জিজ্ঞাসাবাদ করার পর বেসিক ব্যাংকের ঋণ জালিয়াতির অভিযোগে দুদকের দায়ের করা মামলার চার্জশিট আদালতে পেশ করা হবে।
উল্লেখ্য, ২০০৯ সাল থেকে ২০১২ সালের মধ্যে রাষ্ট্রায়ত্ত বেসিক ব্যাংকের গুলশান, দিলকুশা ও শান্তিনগর শাখা থেকে মোট সাড়ে তিন হাজার কোটি টাকা ঋণ বিতরণে অনিয়মের অভিযোগ উঠে। ঋণপত্র যাচাই না করে জামানত ছাড়া, জাল দলিলে ভুয়া ব্যক্তি ও প্রতিষ্ঠানকে ঋণদানসহ নিয়ম-নীতির তোয়াক্কা না করে বিধিবহির্ভূতভাবে ঋণ অনুমোদনের অভিযোগ ওঠে ব্যাংকটির তৎকালীন পরিচালনা পর্ষদের বিরুদ্ধে। এরপর দুদক বিষয়টি নিয়ে তদন্তে নামে। প্রায় চার বছর অনুসন্ধান শেষে এই অনিয়ম ও দুর্নীতির ঘটনায় গত বছর রাজধানীর তিনটি থানায় ১৫৬ জনকে আসামি করে ৫৬টি মামলা করে দুদক। আসামিদের মধ্যে ২৬ জন ব্যাংক কর্মকর্তা এবং বাকিরা ঋণ গ্রহণকারী প্রতিষ্ঠান ও ব্যাংক জরিপ প্রতিষ্ঠানে যুক্ত। তবে আসামির তালিকায় বাচ্চু বা ব্যাংকটির তৎকালীন পরিচালনা পর্ষদের কেউ না থাকায় দুদকের ওই তদন্ত নিয়েই প্রশ্ন ওঠে। এ বিষয়ে দুদকের বক্তব্য ছিল, ঋণ কেলেঙ্কারির ঘটনায় বাচ্চুর সংশ্লিষ্টতা তারা পায়নি। তাই তার নাম আসামির তালিকায় রাখা হয়নি। অথচ ২০০৯ থেকে ২০১৪ সালের মাঝামাঝি পর্যন্ত দুই মেয়াদে ছয় বছর রাষ্ট্রায়ত্ত ওই ব্যাংকটির পরিচালনা পর্ষদের চেয়ারম্যানের দায়িত্বে ছিলেন শেখ আবদুল হাই বাচ্চু। আর ওই সময়টাই এ বড় ধরনের ঋণ জালিয়াতির ঘটনা ঘটে। কিন্তু চলতি বছরের আগস্ট মাসে এক মামলার শুনানিতে সুপ্রিম কোর্টের আপিল বিভাগ বেসিক ব্যাংক কেলেঙ্কারিতে ব্যাংকটির সাবেক চেয়ারম্যান ও পরিচালনা পর্ষদের সদস্যদের আসামি না করায় উষ্মা প্রকাশ করেন। তারপর থেকেই দুদক ব্যাংকের চেয়ারম্যান ও পরিচালনা পর্ষদের সদস্যদের জিজ্ঞাসাবাদ শুরু করে।

এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

আপনার মতামত দিন

জিতলেন ডগ জোনস, হারলেন রয় মুরস

লালমনিরহাটের সাবেক সাংসদ জয়নুল আবেদীন আর নেই

লক্ষ্মীপুরের সেই এডিসি ও ইউএনওর নিঃশর্ত ক্ষমা প্রার্থনা

আইসিসের পক্ষে বোমা হামলার স্বীকারোক্তি, আকায়েদের বিরুদ্ধে ৮ মামলা

‘ট্রাম্প, তুমি তোমার জাতিকে নিরাপত্তা দিতে ব্যর্থ হয়েছ’

সঙ্কট সমাধানে মিয়ানমারকে সহায়তার প্রস্তাব জাতিসংঘ নিরাপত্তা পরিষদের

বিচারকদের শৃঙ্খলাবিধি নিয়ে আদেশ ২রা জানুয়ারি

তেজগাঁওয়ে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ ডাকাত নিহত

‘অভিনয়ের সময় আমি চরিত্রের একেবারে গভীরে ঢুকে যাই’

ফের বৃটেনের ভ্রমণ সতর্কতা, জনসমাগমে হামলার শঙ্কা

আকায়েদ নিজেই বোমার কারিগর

অভিবাসন নীতিতে অনেক গলদ আছে

গেইল তাণ্ডবে মাশরাফির হাতেই শিরোপা

বাংলাদেশিদের মধ্যে উদ্বেগ উৎকণ্ঠা

টঙ্গীতে দুই প্রবাসীকে কুপিয়ে হত্যা

নিউইয়র্কে হামলায় বাংলাদেশের নিন্দা