জ্বালানি ও আইসিটি খাতে বিনিয়োগ করতে চায় সৌদি

এক্সক্লুসিভ

অর্থনৈতিক রিপোর্টার | ৬ ডিসেম্বর ২০১৭, বুধবার | সর্বশেষ আপডেট: ১১:২৪
বাংলাদেশে সৌরবিদ্যুৎ, জ্বালানি ও তথ্যপ্রযুক্তি খাতে বিনিয়োগ করতে চায় সৌদি আরব। গতকাল সচিবালয়ে বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ে সৌদি আরবের ব্যবসায়িক প্রতিনিধিদলের সঙ্গে বৈঠক শেষে বাণিজ্যমন্ত্রী তোফায়েল আহমেদ সাংবাদিকদের এ তথ্য জানান। এ সময় উপস্থিত ছিলেন অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিত। বৈঠকে বাংলাদেশে সফররত সৌদি প্রতিনিধিদলের নেতৃত্বে রয়েছেন দেশটির ইন্টারন্যাশনাল মার্কেটিং ইনভেস্টমেন্ট কোম্পানি গ্রুপ লিমিটেডের নির্বাহী সভাপতি মোসহাবাব আব্দুল্লাহ আলকাতানি। তোফায়েল আহমেদ বলেন, বৈঠকে দুই দেশের বাণিজ্য জোরদার নিয়ে আলোচনা হয়েছে। সৌদি আরবের সঙ্গে বিভিন্ন খাতে ব্যবসার সুযোগ রয়েছে।
তারা বিভিন্ন খাতে বিনিয়োগ করতে চায়। বিশেষ করে সোলার (সৌরবিদ্যুৎ), এনার্জি (জ্বালানি) ও আইসিটি (তথ্যপ্রযুক্তি) খাতে বিনিয়োগ করতে আগ্রহ প্রকাশ করেছেন। সৌদি আরবের ব্যবসায়ীদের বিনিয়োগের আহ্বান জানিয়ে তোফায়েল আহমেদ বলেন, কেউ যদি বাংলাদেশে বিনিয়োগ করে তাহলে তারা লাভবান হবেন। কারণ আমরা বেশিরভাগ উন্নত ও উন্নয়নশীল দেশ থেকে শুল্ক ও কোটামুক্ত বাণিজ্য সুবিধা পাই। এখানে বিনিয়োগ করে অন্য দেশে পণ্য রপ্তানিতে শুল্ক ও কোটামুক্ত বাজার সুবিধা পাবেন।
তিনি আরো বলেন, ১০০টি অর্থনৈতিক অঞ্চল গড়ে তুলছি। সৌদি আরব চাইলে যে কোনো একটি অর্থনৈতিক অঞ্চলে বিনিয়োগ করতে পারে। (বাংলাদেশে বিনিয়োগে) আমরা সবক্ষেত্রে তাদের (সৌদি ব্যবসায়ী) সহযোগিতা করব। বাংলাদেশে বিনিয়োগের চমৎকার পরিবেশ আছে জানিয়ে অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিত বলেন, ইতিমধ্যে সৌদির সঙ্গে ব্যবসা বাণিজ্য অনেক আছে, কিন্তু সেটা খুব বেশি স্ট্রাকচারড না। একটু ইনডিভিজুয়াল এফোর্ডের ওপর নির্ভরশীল ছিল। অর্থমন্ত্রী আরো বলেন, যথেষ্ট এগ্রিমেন্টস হয়েছে এর ফলাফল যেটা হবে আমরা আশা করব-এক্সপানশন অব ট্রেড বিটুইন টু কান্ট্রিস। ওই যে একটা ধারণা তাদের থেকে তেল আনি আর তারা আমাদের কাছ থেকে গার্মেন্টস নেয়- এটা যেন না থাকে। ইট সুড বি চেইঞ্জড। ডাইভারসিফিকেশনটা সামনে আসা উচিত। বাংলাদেশ এখন ইনভেস্টমেন্ট ডেস্টিনেশন, সেটার ফলও আমরা পাচ্ছি। বিদেশি বিনিয়োগ ১.২ বিলিয়ন ডলারের মতো ছিল, গত অর্থবছরে এটা ২.২ বিলিয়ন ডলার হয়েছে। মুভমেন্ট অব এফডিআর বাংলাদেশে বেশ কার্যকর হচ্ছে বলে জানান মুহিত।

এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

আপনার মতামত দিন