ইরাকের মসুলে বীভৎসতা

বিশ্বজমিন

মানবজমিন ডেস্ক | ১৭ জুলাই ২০১৭, সোমবার
আইসিস বা আইএস মুক্ত হয়েছে ইরাকের মসুল। কিন্তু তারা পিছনে রেখে গেছে ধ্বংসাবশেষ। অনাহারে ঢুকরে ঢুকরে মৃত্যুর মুখে পড়া শিশুদের। যেদিকে চোখ যায় শুধু ধ্বংসাবশেষ। মৃত্যুপুরীর এক আতঙ্ক চারদিকে। তার মাঝে যেসব শিশু বেঁচে আছে তাদের অবস্থা অত্যন্ত করুণ।
ভাষায় বর্ণনা করার মতো নয়। এমনই দুই শিশুকে সেসব ধ্বংসাবশেষ থেকে জীবিত উদ্ধার করেছে ইরাকের সেনারা। এর একজন অনাহারে মৃত্যুর প্রহর গুনছিল। অন্যজনকে জীবন বাঁচানোর তাগিদে ছড়িয়ে ছিটিয়ে থাকা মাংসের টুকরো খেয়েছে। দ্বিতীয় শিশুটির পিতামাতা দু’জনেই জিহাদি। তারা আত্মঘাতী হামলায় নিহত হয়েছে। পৃথিবীতে তাকে ফেলে গেছে একা। এ দুটি শিশুর অনেক ছবি দিয়ে অনলাইন ডেইলি মেইল একটি রিপোর্ট প্রকাশ করেছে। তাতে বলা হচ্ছে, মসুলের পশ্চিমাঞ্চলে ওল্ড সিটিতে ধ্বংসাবশেষের ভিতর উদ্ধার অভিযান চালিয়ে যাচ্ছে ইরাকি সেনাবাহিনী।

তারা চেষ্টা করছেন জীবি ত কাউকে পাওয়া গেলে তাকে উদ্ধার করতে। এমন অভিযানে তারা ওই দুটি শিশুকে খুঁজে পেয়েছে। তার মধ্যে একজন আমিনা। ধ্বংসাবশেষের নিচ থেকে সেনারা তার কান্নার শব্দ শুনে তাকে উদ্ধার শুরু করে। কংক্রিটের আস্তরণ সরিয়ে যখন তাকে উদ্ধার করা হয় তখন তার জীবন সন্ধিক্ষণে। কোনোমতে দম আসছে আর যাচ্ছে। চিকিৎসকরা চিকিৎসা দিয়ে তাকে যখন কিছুটা সুস্থ করে তুলেছে তখন সে বলেছে, তার পিতামাতা দু’জনেই আত্মঘাতী বোমা হামলা চালিয়েছে।

 

এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

আপনার মতামত দিন

জিন্দাপার্ক নিয়ে দ্বন্ধের জেরে সংঘর্ষ, আহত ৫

টাইম ম্যাগাজিন নিয়ে আবার বিতর্কে ট্রাম্প

চট্টগ্রামে নারীঘটিত কারণে আইনজীবি খুন

‘নতুন বাকশাল দেখছি’

আওয়ামী লীগ নেতারা হিন্দুদের সম্পদ দখল করছে

মিশরে বিপুল সংখ্যক ‘হামলাকারী’ নিহত

বারাক ওবামাকে হত্যার পরিকল্পনাকারী গ্রেপ্তার

কীভাবে আন্তর্জাতিক আদালতে বিচারকের পদ হারালো বৃটেন?

‘ডিপ্লোম্যাটিক মাইনফিল্ডে’ আসছেন পোপ, তাকিয়ে বিশ্ব

গুম আর জোর করে গুম এক নয়

‘দুর্নীতি বাড়ার জন্য রাজনীতিবিদরা দায়ী’

রংপুর ও রাজশাহীতে শীত বাড়ছে

‘ভারত ও চীন রাখাইনে রোহিঙ্গাদের বাড়ি ঘর নির্মাণে সহায়তা করবে’

দিনাজপুরে পরিবহন ধর্মঘট অব্যাহত: যাত্রীদের চরম দূর্ভোগ

‘শেষ মুহূর্তে হলে সরকার সমঝোতায় আসবে’

রবি-সোমবার সব সরকারি কলেজে কর্মবিরতি