উৎসবের নগরী চট্টগ্রাম, উচ্ছ্বাস যেন শহর জুড়ে

খেলা

মহিউদ্দীন জুয়েল, চট্টগ্রাম থেকে | ১৮ ফেব্রুয়ারি ২০১৭, শনিবার | সর্বশেষ আপডেট: ১০:৫৩
শেখ কামাল আন্তর্জাতিক ক্লাব কাপ ফুটবল টুর্নামেন্ট নিয়ে চট্টগ্রামে এখন উৎসবের আমেজ। সাজ সাজ রব এম এ আজিজ স্টেডিয়ামে। আজ শনিবার থেকেই পর্দা উঠছে জমজমাট এই আসরের। পছন্দের ক্লাব তারকার খেলা দেখা নিয়ে উৎসুক হয়ে আছে ছোট-বড় সব বয়সী ফুটবলপ্রেমীরা। আয়োজক কমিটির সদস্যরাও জানিয়েছেন, এই ধরনের প্রতিযোগিতার মাধ্যমে দেশীয় ফুটবলকে চাঙা করতে আরো একধাপ এগিয়ে গেল বাংলাদেশ। টুর্নামেন্টের উদ্বোধনী ম্যাচে আজ মুখোমুখি হবে ঢাকা আবাহনী লিমিটেড ও মালদ্বীপের টিসি স্পোর্টিং ক্লাব। চট্টগ্রামের এমএ আজিজ স্টেডিয়ামে উদ্বোধনী ম্যাচটি শুরু হবে বিকেল ৪টায়। একই দিন দ্বিতীয় ম্যাচে মুখোমুখি হবে একই গ্রুপের অন্য দুই দল দক্ষিণ কোরিয়া পোচেয়ন সিটিজেন ফুটবল ক্লাব ও কিরগিজস্তানের এফসি আলগা বিশকেক। দু’টি ম্যাচই সরাসরি সম্প্রচার করবে মাছরাঙ্গা টেলিভিশন।
টুর্নামেন্টের প্রস্তুতি সম্পর্কে আয়োজক কমিটির চিফ কো-অর্ডিনেটর তরফদার রুহুল আমিন তো বিদেশি ক্লাবদের আনতে পেরে দারুণ খুশি। তার কাছে জানতে চাইলে বলেন, দ্বিতীয়বারের মতো শেখ কামাল আন্তর্জাতিক ক্লাব কাপ ফুটবল টুর্নামেন্ট হচ্ছে। দারুণ খুশি। আনন্দিত। ব্যাপক প্রস্তুতি নেয়া হয়েছে। মাঠে আসলে দেখতে পারবেন। তিনি আরো বলেন, ফুটবল একটি জনপ্রিয় খেলা। চট্টগ্রাম সব সময় এই খেলা নিয়ে চমক দেখাতে ভালোবাসে। এবারও এই ধরনের আসর আয়োজন করতে পেরে গর্বিত চট্টগ্রামবাসী। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা নিজেও এই ধরনের টুর্নামেন্ট দেখে আয়োজকদের প্রশংসা করেছেন। চট্টগ্রাম আবাহনী লিমিটেডের চেয়ারম্যান সংসদ সদস্য এম এ লতিফ বলেন, গতবারের চেয়ে এবারের আসর আরো জমে উঠবে। একবার যখন এই উদ্যোগ নেয়া হয়েছে, প্রতিবারই চট্টগ্রামে তা অনুষ্ঠিত হবে আরো বড়সড় ভাবে। আয়োজক কমিটি জানায়, টুর্নামেন্টে বাংলাদেশসহ ছয়টি দেশের মোট ৮টি দল অংশ নিচ্ছে। যার মধ্যে ৫টি বিদেশি ও ৩টি দেশি ফুটবল ক্লাব রয়েছে। বিদেশি ক্লাবগুলো হলো কোরিয়ার পসিয়ন সিটিজেন ফুটবল ক্লাব, আফগানিস্তানের সাহেন আসমাঈয়ি এফসি, কাজাখস্তানের এফসি অলগা, মালদ্বীপের টিসি স্পোর্টস ক্লাব, নেপালের মানাং মারসায়াংদি।
বাংলাদেশ থেকে যেসব দল রয়েছে সেগুলো হলো: ঢাকা ও চট্টগ্রাম আবাহনী লিমিটেড। পাশাপাশি ঢাকা মোহামেডানও রয়েছে। দর্শকদের কথা চিন্তা করে এবারো টিকিটের দাম হাতের নাগালের মধ্যে রাখা হয়েছে। প্রথম রাউন্ডে টিকিটের দাম নির্ধারণ করা হয়েছে গ্যালারি দর্শকদের জন্য ৫০ টাকা ও প্যাভিলিয়নের দর্শকদের জন্য ১০০ টাকা। সেমিফাইনালে গ্যালারির টিকিট ১০০ টাকা ও প্যাভিলিয়নের ২০০ টাকা। ফাইনাল খেলায় টিকিটের দাম গ্যালারির দর্শকদের জন্য ৩০০ টাকা ও প্যাভিলিয়নের দর্শকদের জন্য ৫০০ টাকা। টুর্নামেন্ট চলবে ২রা মার্চ পর্যন্ত। সাইফ পাওয়ার টেকের সহযোগিতায় দ্বিতীয়বারের মতো এই টুর্নামেন্টের আয়োজন করেছে চট্টগ্রাম আবাহনী লিমিটেড। চট্টগ্রামের ইস্ট ডেল্টা ইউনিভার্সিটির সহকারী রেজিস্ট্রার গোলাম মাহিউদ্দিন নামের একজন ফুটবলপ্রেমী বলেন, বিদেশের ক্লাব ফুটবলারদের আরো বেশি বেশি করে এনে নতুন খেলোয়াড়দের উৎসাহিত করার উদ্যোগ নিতে হবে। পাশাপাশি দেশের ভেতর স্কুল ফুটবল কিংবা অনূর্ধ্ব যেসব দল রয়েছে, তাদেরকে এসব টুর্নামেন্টের মাধ্যমে এগিয়ে নিয়ে যাওয়ার প্রেরণা দিলে অবশ্যই একদিন বিশ্বকাপ খেলবে বাংলাদেশ।

 

এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

আপনার মতামত দিন

‘এটা আমার জন্য বড় একটি ব্যাপার’

২০ লাখ পাউন্ড ঘুষ কেলেঙ্কারিতে বাংলাদেশি ব্যবসায়ী ও সাবেক ডেপুটি-মেয়রের নাম

পাচার অর্থ ফেরতে নানা জটিলতা

ম্যানহাটন হামলায় আটক ব্যক্তি বাংলাদেশি?

২৯ রোহিঙ্গা নারীর মুখে ধর্ষণযজ্ঞের বর্ণনা

বাংলাদেশের দুই নেত্রীর লড়াইয়ের ইতি

বাড়ির পাশে ম্যারাডোনা

আওয়ামী লীগকে হারানোর মতো কোনো দলই নেই

৩ দিনের সফরে ফ্রান্স গেলেন প্রধানমন্ত্রী

৫০ শতাংশের বেশি মানুষ মানসম্পন্ন সেবা পায় না

বিএনপি’র পিন্টু না টুকু নতুন প্রার্থীর খোঁজে আওয়ামী লীগ

তন্নতন্ন করে খুঁজেও বিদেশে সম্পদের অস্তিত্ব মেলেনি

ঢাকা-রংপুর ফাইনাল আজ

জনগণের মুখোমুখি রসিক মেয়র প্রার্থীরা

‘যাদেরকে টিফিন খাওয়ালো তারাই হত্যা করলো’

রোহিঙ্গা ক্যাম্পে ত্রাণ বিতরণ এক সপ্তাহ স্থগিত