বাজেট প্রত্যাখ্যান বিএনপি’র

স্টাফ রিপোর্টার

প্রথম পাতা ৩ জুলাই ২০২০, শুক্রবার | সর্বশেষ আপডেট: ২:৪১

সংসদে পাস হওয়া ২০২০-২০২১ অর্থবছরের বাজেটকে অপরিণামদর্শী ও বাস্তবতাবিবর্জিত গতানুগতিক বাজেট আখ্যা দিয়ে তা প্রত্যাখ্যান করেছে বিএনপি। গতকাল উত্তরার বাসা থেকে অনলাইন প্রেস কনফারেন্সে বাজেট প্রত্যাখ্যানের ঘোষণা দেন দলটির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর।
মির্জা ফখরুল বলেন, গত ৩০শে জুন জাতীয় সংসদে ২০২০-২০২১ অর্থবছরের জন্য ৫ লাখ ৬৮ হাজার কোটি টাকার যে বাজেট পাস হয়েছে, সেটা অপরিণামদর্শী ও বাস্তবতাবিবর্জিত গতানুগতিক বাজেট। যাকে অর্থনীতিবিদরা স্বপ্নবিলাস বলে আখ্যায়িত করেছেন। জনগণের কাছে ন্যূনতম জবাবদিহিতাশূন্য, আমলাচালিত, ক্রোনি ক্যাপিটালিস্ট সরকারের কাছে এমন বাজেটই প্রত্যাশিত। এই বাজেট আমরা ঘৃণাভরে প্রত্যাখ্যান করছি।
বাজেট পাসের পরদিন অর্থমন্ত্রী আ হ ম মুস্তফা কামালের লন্ডনে যাওয়ারও সমালোচনা করে মির্জা ফখরুল ইসলাম বলেন, পরীক্ষার কিটের অভাবে, হাসপাতালে অক্সিজেনের অভাবে দেশের মানুষ মারা যাচ্ছে। আর অর্থমন্ত্রী গেলেন বিদেশে, এটা জনগণের সঙ্গে মশকরা ছাড়া আর কিছু না।
তিনি বলেন, করোনার কারণে সংক্ষিপ্ত করার খোঁড়া যুক্তি দেখিয়ে এবারের বাজেট বরাদ্দ নিয়ে প্রত্যাশিত দীর্ঘ আলোচনা ও পুঙ্খানুপুঙ্খ বিশ্লেষণের কোনো সুযোগ দেয়া হয়নি। মাত্র একদিন (২৩শে জুন) বাজেটের সাধারণ আলোচনা করা হয়েছে যা অকল্পনীয়। অথচ ভার্চুয়াল অধিবেশন চালিয়ে হলেও বাজেট আলোচনা দীর্ঘায়িত করে আলোচনার সুযোগ সৃষ্টি করা যেত।
বাজেটের সমালোচনা এড়াতেই তড়িঘড়ি করে বাজেট পাস করেছে সরকার।
সরকার বাংলাদেশকে একটি লুটেরা আমলাতান্ত্রিক পুঁজিবাদী রাষ্ট্রে পরিণত করতে চলেছে মন্তব্য করে মির্জা ফখরুল বলেন, লুটপাটকারী, ধনিক শ্রেণি ও আমলাতন্ত্র-নির্ভর অর্থনৈতিক দর্শনের আলোকে প্রস্তুত হয়েছে এবারের বাজেট। অর্থনীতিবিদরা নানাভাবে সরকারকে পথ দেখাতে চেষ্টা করেছেন। বিএনপি করোনা সংকট মোকাবিলায় যেমন ৮৭ হাজার কোটি টাকার আর্থিক প্যাকেজ প্রস্তাবনা দিয়েছিল, একইভাবে এবারের বাজেট কেমন হওয়া উচিত সে বিষয়ে গত ৯ই জুন সুনির্দিষ্ট পুনরুদ্ধার পরিকল্পনা সমৃদ্ধ তিন বছরের একটি মধ্য মেয়াদি বাজেটের রূপরেখা দিয়েছিল।

পাঠকের মতামত

**মন্তব্য সমূহ পাঠকের একান্ত ব্যক্তিগত। এর জন্য সম্পাদক দায়ী নন।

Kazi

২০২০-০৭-০২ ১২:২০:২২

সরকার বাংলাদেশকে একটি লুটেরা আমলাতান্ত্রিক পুঁজিবাদী রাষ্ট্রে পরিণত করতে চলেছে। চলেছে বলা ভুল। চলন্ত রয়েছে দীর্ঘ ৪০ বছর। কোন সরকার লুটেরা ছিল না ।

আপনার মতামত দিন

প্রথম পাতা অন্যান্য খবর

জাতীয় শোক দিবস আজ

১৫ আগস্ট ২০২০

সরকারি শিশু পরিবারের শিশুদের প্রধানমন্ত্রী

আমি আছি তোমাদের পাশে

১৫ আগস্ট ২০২০

স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের জরিপ

ডেঙ্গু ঝুঁকিতে ঢাকার ২৫ ওয়ার্ড

১৪ আগস্ট ২০২০

ঢাকার দুই সিটি করপোরেশনের ২৫টি ওয়ার্ড এখনো ডেঙ্গুর ঝুঁকিতে রয়েছে। এডিস মশার পজেটিভ প্রজনন স্থানসমূহের ...



প্রথম পাতা সর্বাধিক পঠিত