পশ্চিমবঙ্গে ইমামদের ঘোষণা

যাকাতের অর্থ মসজিদ কমিটির হাতে দিন, তারাই দুঃস্থদের বিলি করবে

কলকাতা প্রতিনিধি

ভারত ১৮ এপ্রিল ২০২০, শনিবার | সর্বশেষ আপডেট: ৯:৪৪

আগামী সপ্তাহেই শুরু হবে রমজান। এই রমজানকে লকডাউনের মধ্যে কঠোরভাবে পালনের জন্য পশ্চিমবঙ্গের মুসলিম সমাজের প্রতিনিধিরা ইতিমধ্যেই বেশ কিছু ঘোষণা দিয়েছেন। ইমামদের পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে, যাকাতের অর্থ এবং ইফতার পার্টির আয়োজনে যে অর্থ ব্যয় করা হয়, তা মসজিদ কমিটির হাতে তুলে দিন। মসজিদের মাধ্যমে জাতি, ধর্ম নির্বিশেষে গরিব মানুষের কাছে তা পৌঁছে দেয়া হবে বলে বঙ্গীয় ইমাম এসোসিয়েশনের পক্ষ থেকে ঘোষণা দেয়া হয়েছে। সর্বভারতীয় ইমাম-মুয়াজ্জিন কল্যাণ সমিতির সভাপতি তথা নাখোদা মসজিদের ইমাম শাফিক কাশমি এক ভিডিও বার্তায় আসন্ন রমজানে মুসলিমদের ব্রত পালনের খুঁটিনাটি জানিয়ে বলেছেন, নামাজ শুরুর আগে বারে বারে মাইকে লোকজনকে ডাকাডাকির দরকার নেই। ভোরে সেহরি বা খাবার খাওয়ার সময় কখন, তা মাইকে জানানো যেতে পারে। আর সন্ধ্যায় ইফতার প্রত্যেককে বাড়িতেই করার আবেদন জানিয়েছেন। বিভিন্ন সংগঠন, রাজনৈতিক দল ও ব্যক্তিবিশেষের তরফে রমজান মাসে ইফতার পার্টির যে আয়োজন করে, তাও বন্ধ রাখতে বলা হয়েছে।  বেঙ্গল ইমাম এসোসিয়শনের পক্ষ থেকে  জমায়েত এড়িয়ে চলার জন্য এবার ইফতার পার্টি না করার আবেদন জানানো হয়েছে।
এসোসিয়েশনের চেয়ারম্যান মোহম্মদ ইয়াহিয়া বলেছেন, বর্তমান পরিস্থিতি বিলাসিতা করার নয়, বরং জীবন বাঁচানোটা খুব জরুরি। তাই আবেদন জানানো হয়েছে, রমজান মাসে নামাজ বাড়িতেই আদায় করবেন এবং ইফতারও বাড়িতেই করবেন।

পাঠকের মতামত

**মন্তব্য সমূহ পাঠকের একান্ত ব্যক্তিগত। এর জন্য সম্পাদক দায়ী নন।

Md. Harun Al-Rashid

২০২০-০৪-১৯ ১৮:১৪:২৫

ভারতের জন্য ভাল উদ্দোগ। তবে এখানে চাল ছয় নয় করা ব্যক্তিগন অনেক স্হানীয় মসজিদের পরিচালক।

আপনার মতামত দিন

ভারত অন্যান্য খবর

আনলক হওয়ার প্রথম দিনেই কলকাতায় মানুষ ঝুঁকি নিয়ে বেরিয়ে পড়েছেন, প্রবল যানজটে দুর্ভোগ মানুষের

১ জুন ২০২০

একদিকে কনটেনমেন্ট জোনের সংখ্যা বাড়ছে, অন্যদিকে জনজীবন স্বাভাবিক করার তাগিদে অফিস থেকে কলকারখানা, শপিং মল ...



ভারত সর্বাধিক পঠিত