উইন্ডিজদের বিরুদ্ধে হারের কারণ জানালেন কোহলি

স্পোর্টস ডেস্ক

খেলা ৯ ডিসেম্বর ২০১৯, সোমবার | সর্বশেষ আপডেট: ২:৪৪

টি-টোয়েন্টিতে ভারতীয়দের বিপক্ষে জয়ের জন্য টসে জিতে ফিল্ডিং নেয়াটাই সমীচিন। কারণ ২০১৭ সাল থেকে ভারতীয়রা ২১ টি-টোয়েন্টিতে রান তাড়া করে হেরেছে মাত্র ৪টিতে। অপরদিকে প্রথমে ব্যাট করা ২৫ ম্যাচের ১১টিতেই হেরেছে। গতকাল ওয়েস্ট ইন্ডিজ টসে জিতেই শুরুতে ফিল্ডিংয়ের সিদ্ধান্ত নেয়। আর ম্যাচটি ৮ উইকেটের বিশাল ব্যবধানে জিতে নেয়। তবে বিরাট কোহলির চোখে টসে হেরে ব্যাটিং করাটাই ম্যাচ হেরে যাওয়ার কারণ নয়। বরং নিজেদের ব্যাটিং ইনিংসের শেষদিকে যথেষ্ট রান তুলতে না পারা ও ক্যাচ মিস করাটাকে দেখছেন প্রধান কারণ হিসেবে।
গতকাল গ্রিনফিল্ড ইন্টারন্যাশনাল স্টেডিয়ামে টসে হেরে আগে ব্যাটিংয়ে নামে ভারত।
নির্ধারিত ২০ ওভারে ৭ উইকেট হারিয়ে ১৭০ রান তোলে। ভারতীয়দের পক্ষে শিভম দুবে সর্বোচ্চ ৫৪ রান করেন। ব্যাটিংয়ের এক পর্যায়ে ১৬ ওভারে ভারতের সংগ্রহ ছিল ৪ উইকেটে ১৪০। শেষ ৪ ওভারে তারা ৩ উইকেট হারিয়ে রান তুলতে পারে মাত্র ৩০। জবাবে ব্যাটিংয়ে নেমে উইন্ডিজরা ২ উইকেট হারিয়ে ১৮.৩ ওবারে ১৭১ রান তোলে। উইন্ডিজদের পক্ষে সর্বোচ্চ ৬৭ রান করে অপরাজিত থাকেন লেন্ডল সিমন্স। এভিন লুইস করেন ৪০ আর নিকোলাস পুরান ১৮ বলে ৩৮ রান অপরাজিত থাকেন। আর ভারতীয় ফিল্ডাররা এই তিন ব্যাটারেরই ক্যাচ ছাড়ে।

ম্যাচশেষে ভারতীয় অধিনায়ক কোহলি বলেন, ‘পরিসংখ্যান দেখে বলা যায়, আগে ব্যাটিং করে আমরা ম্যাচ হেরেছি। তবে বিষয়টি তেমন নয়। আমরা শেষদিকে রান তুলতে পারিনি। আমরা শেষ ৪ ওভারে ৪০-৪৫ রান করা উচিত ছিল। কিন্তু আমরা মাত্র ৩০ রান তুলতে পেরেছি। আমাদের হয়তো আরও ১৫ রান বেশি করা উচিত ছিল আজ। কিন্তু এমন ফিল্ডিং করলে কোনো স্কোরই যথেষ্ট বড় না। টি-টোয়েন্টিতে ছোট ছোট কিছু বিষয়ে ব্যবধান গড়ে দেয়। সবাই জানে কী হচ্ছে এবং সবাইকে উন্নতি করতে হবে। ফিল্ডিংয়ে আমাদের আরও সাহসী হতে হবে এবং ক্যাচ হাতছাড়া করা নিয়ে চিন্তা করা যাবে না। গত দুই ম্যাচেই আমরা ফিল্ডিং বাজে করেছি। বল হাতে ভালোই করেছি আমরা। প্রথম চার ওভারে অনেক চাপ সৃষ্টি করেছি কিন্তু টি-টোয়েন্টিতে এক ওভারে দুই বার ক্যাচ ফেললে সেটার ফল আপনাকে ভোগ করতেই হবে। ওরা যদি এক ওভারে দুই উইকেট হারাত, তাহলে ওদের ওপর চাপ থাকত।’ ক্যারিয়ারের প্রথম ফিফটি পাওয়া দুবে বলেন, ‘আমাকে রোহিত ভাই ব্যাটিংয়ের সময় সাহস জুগিয়েছে। এই পঞ্চাশ আমার কাছে বিশেষ কিছু। তবে নিজে ভালো করলেও ম্যাচ হারাতে আমি হতাশ। আশা করি মুম্বাইতে সামনের ম্যাচে আমরা জয় তুলে নিবো।’

উইন্ডিজ অধিনায়ক পোলার্ড বলেন, ‘আমার বাজে বোলিং সত্ত্বেও ভারতকে ১৭০ রানে আটকে দিতে পারা দারুণ ছিল। হেইডেন ওয়ালশ দারুণ বোলিং করেছে। কেসরিক উইলিয়ামসও শেষ ম্যাচের বাজে বোলিং পেছনে ফেলে আজ দুর্দান্ত করেছে। আর ব্যাটিংয়ে নেমে সিমন্স শুরুতে ধরে খেলেছিলো। কারণ, সে জানতো সে এটি পুষিয়ে দিতে পারবে। আশা করি সামনের ম্যাচে আমরা ভালো ক্রিকেট উপহার দিয়ে সিরিজ জিতে নিতে পারবো।’ ম্যাচেসেরা সিমন্স বলেন, ‘ভারতের বিপক্ষে খেলতে আমি পছন্দ করি। অনেকদিন যাবত আন্তর্জাতিক ক্রিকেটের বাইরে ছিলাম। আজ দলকে জিতিয়ে আবার এই অঙ্গনে ফিরে আসতে পেরে ভালো লাগছে।’

আপনার মতামত দিন

খেলা অন্যান্য খবর

‘লক্ষ্মীপুর থেকে লাহোর’

১৯ জানুয়ারি ২০২০

ব্যাটে-বলে উজ্জ্বল যারা

১৯ জানুয়ারি ২০২০

ইংল্যান্ডে ‘লাল যুদ্ধ’ আজ

লিভারপুলের বিপক্ষে ম্যানইউ’র প্রেরণা ‘সিটি-পিএসজি’

১৯ জানুয়ারি ২০২০





খেলা সর্বাধিক পঠিত



পাকিস্তান সফরে যাবেন না মুশফিক

তামিমের ইনজুরি, রিয়াদের জ্বর