জেল হতে পারে পর্নো তারকা ব্রিজেতের

মানবজমিন ডেস্ক

এক্সক্লুসিভ ২২ অক্টোবর ২০১৯, মঙ্গলবার | সর্বশেষ আপডেট: ২:৫৯

যুক্তরাষ্ট্রের লাস ভেগাস। সেখানে হঠাৎ একদিন ছুরি হাতে নিয়ে বয়ফ্রেন্ড জেসে জেমসের বাসায় প্রবেশ করলেন পর্নো তারকা ব্রিজেত দ্য মিজেট, যার আসল নাম চেরিল মারফি। তিনি দেখলেন তার বয়ফ্রেন্ড অন্য এক নারীকে নিয়ে একই বিছানায় ঘুমাচ্ছে। সহ্য করতে পারলেন না ব্রিজেত। হাতে থাকা ছুরি দিয়ে প্রেমিককে আঘাত করলেন পায়ে। এরপর চিৎকার করতে থাকলেন। আর সেই আঘাতের পরিণামে তাকে এখন জেলের মুখোমুখি হতে হচ্ছে। দুই থেকে ১৫ বছর পর্যন্ত জেল হতে পারে তার।

ব্রিজেতের বয়স এখন ৩৯ বছর। তার বিরুদ্ধে অভিযোগ করা হয়েছে, তার হাতে ছিল মারণাস্ত্র। প্রসিকিউশন অভিযোগ করেছে, তিনি তার বয়ফ্রেন্ডের বাসায় প্রবেশ করেছিলেন অপরাধ সংঘটনের উদ্দেশ্যে। ঘরোয়া পর্যায়ে সহিংসতা সৃষ্টির অভিযোগে তার ৫ বছরের জেল হতে পারে। অন্যদিকে ভয়াবহ অস্ত্র ব্যবহারের কারণে ৬ বছরের জেল হতে পারে।

জেসে জেমসের সঙ্গে যে নারী শয্যাসঙ্গিনী হয়েছিলেন তিনি বলেছেন, ব্রিজেতের চিৎকারে তিনি উঠে গেছেন। কারণ, ব্রিজেত তাদের বেডরুমের দরজায় বার বার আঘাত করছিলেন। তারপর চিৎকারে ফেটে পড়েন। বয়ফ্রেন্ড জেসে জেমসের বিরুদ্ধে গগণবিদারী চিৎকার করতে থাকেন। বলতে থাকেন, তুমি নারী শিকারি। আমি জানতাম তুমি আমাকে ভালোবাসো না।
জেসে জেমসের ওই শয্যাসঙ্গিনী আরো বলেছেন, আমি দেখেছি জেসে জেমসের পায়ে ছুরি দিয়ে ব্রিজেতকে আঘাত করতে। তিনি আমাকেও ছুরিকাঘাত করেছিলেন। কিন্তু তার হামলা ব্যর্থ হয়েছে। আমার উচ্চতা ৫ ফুট ৮ ইঞ্চি। আর ব্রিজেতের উচ্চতা মাত্র ৩ ফুট ৯ ইঞ্চি। তিনি আমাকে আঘাত করতে এলে আমি তাকে উঁচু করে তুলে ধরে বাড়ির বাইরে ফেলে দেই। এ অবস্থা দেখে এক প্রতিবেশী পুলিশে খবর দেন। উল্লেখ্য, ব্রিজেত ১৯৯৯ সালে প্রথম পর্নো ছবিতে অভিনয় করেন। তারপর কমপক্ষে ৫০টি এ ধরনের ছবিতে অভিনয় করেছেন তিনি।


 




আপনার মতামত দিন

এক্সক্লুসিভ -এর সর্বাধিক পঠিত



লেবার পার্টি সরকার গঠন করবে

বৈষম্য দেখতে চাই না