সোহরাওয়ার্দীতে সমাবেশ করবে ঐক্যফ্রন্ট

স্টাফ রিপোর্টার

প্রথম পাতা ১৭ অক্টোবর ২০১৯, বৃহস্পতিবার | সর্বশেষ আপডেট: ৬:০৩

বুয়েট শিক্ষার্থী আবরার ফাহাদ স্মরণে আগামী ২২শে অক্টোবর রাজধানীর সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে সমাবেশ করার ঘোষণা দিয়েছে জাতীয় ঐক্যফ্রন্ট। বুধবার সন্ধ্যায় মতিঝিলে ড. কামাল হোসেনের চেম্বারে ঐক্যফ্রন্টের বৈঠক শেষে গণফোরামের সাধারণ সম্পাদক রেজা কিবরিয়া এ কথা জানান। সমাবেশ করার অনুমতি না দেয়া হলে জাতীয় ঐক্যফ্রন্ট কি করবে জানতে চাইলে জোটের শীর্ষ নেতা ড. কামাল হোসেন বলেন, এটা জানা দরকার, সরকার আমাদের অনুমতি না দেয়া মানে হচ্ছে সংবিধানকে লঙ্ঘন করা। সংবিধানের মৌলিক অধিকারের মধ্যে সভা-সমাবেশ করা, বক্তব্য রাখা মানুষের অধিকার। এখন সরকার যদি তা ভুল করে, তাহলে তারা সংবিধান লঙ্ঘন করলো। আমি তো মনে করি দেশের মানুষ তাদেরকে ঘাড় ধরে বের করে দেয়া উচিত।

তিনি বলেন, অনুমতি না দিলেও আমাদের কার্যক্রম চালিয়ে যেতেই হবে। তারা অনুমতি দেবে কি দেবে না এটা তাদের বিষয়। অবস্থা বুঝে পরবর্তী করণীয় ঠিক করবো।

গণফোরামের সাধারণ সম্পাদক রেজা কিবরিয়া বলেন, ২২ অক্টোবর বেলা ৩টায় জাতীয় ঐক্যফ্রন্টের ব্যানারে সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে সমাবেশ করা হবে।
সমাবেশে ঐক্যফ্রন্টের নেতৃবৃন্দ উপস্থিত থাকবেন। বৈঠকে দেশের সার্বিক বিষয়ে কথা হয়েছে। সমাবেশে আমরা দেশের বিভিন্ন সমস্যা নিয়ে প্রস্তাব দেবো। এছাড়া সমাবেশে আমরা ব্যাংক খাত, শেয়ার বাজার, দেশের সার্বিক দুর্নীতি নিয়ে সুনিদিষ্ট বক্তব্য, প্রস্তাবও দেবো।

তিনি বলেন, বুয়েটের শিক্ষার্থী আবরার হত্যার বিচারের দাবিতে দেশে-বিদেশে গণস্বাক্ষর সংগ্রহ করবে জাতীয় ঐক্যফ্রন্ট। এটা কিভাবে সংগ্রহ করা হবে, তার বিস্তারিত জাতীয় ঐক্যফ্রন্ট ও জোটের শরিক দলের ওয়েব সাইটে জানানো হবে। এর ফরমেট ওয়েসসাইটে দেয়া হবে।

রক্তের অক্ষরে আবরার হত্যার বিচারে দাবিতে স্বাক্ষর সংগ্রহ করা হবে উল্লেখ করে রেজা কিবরিয়া বলেন, গণস্বাক্ষর অভিযান শেষ হলে ঢাকার রাস্তায় এর প্রদর্শনী করা হবে। ঢাকার বাইরে অন্য শহরগুলোতে এর প্রর্দশনী করা হবে। কবে প্রর্দশনী হবে এর তারিখ পরে জানানো হবে।

ড. কামাল হোসেনের সভাপতিত্বে বেঠকে আরো উপস্থিত ছিলেন, বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য ইকবাল হাসান মাহমুদ টুকু, জেএসডির সভাপতি আ স ম আবদুর রব, গণস্বাস্থ্য কেন্দ্রের প্রতিষ্ঠাতা ডা. জাফরুল্লাহ চৌধুরী, নাগরিক ঐক্যের আহ্‌বায়ক মাহমুদুর রহমান মান্না, গণফোরামের নির্বাহী সভাপতি অ্যাডভোকেট সুব্রত চৌধুরী, বিকল্প ধারা বাংলাদেশের সভাপতি নুরুল আমিন ব্যাপারী, গণফোরামরে আবু সাইয়দি, জগলুল হায়দার আফ্রিক, মোশতাক আহমদ, নাগরিক ঐক্যের শহীদুল্লাহ কায়সার, জাহেদ উর রহমান, মমিনুল ইসলাম, ঐক্যফ্রন্টের দপ্তর সম্পাদক জাহাঙ্গীর আলম মিন্টু প্রমূখ।

পাঠকের মতামত

**মন্তব্য সমূহ পাঠকের একান্ত ব্যক্তিগত। এর জন্য সম্পাদক দায়ী নন।

sajjad

২০১৯-১০-১৮ ০১:২৮:১১

all Bangladeshi shall save Bangladesh for Abrar

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক

২০১৯-১০-১৬ ১৩:৩১:৫৯

কি আশ্চর্য্য, যে কারনের বিপরীতে আবরার ফাহাদ হদ্যাকান্ড, সে কারনটাই নাই দেশপ্রেমিক বয়োজৈষ্ঠ ব্যাক্তির দাবীতে!!! ওনার তো উচিৎ ছিলো বাংলাদেশে ভারতে আগ্রাসী কর্মকান্ডের বিপরীতে কথা বলার দাবী নিয়ে ঐ সমাবেশ করার, এই বয়েসেও কি জীবনের মায়ায় ভারতের সাথে চুক্তির বিরোদ্ধে কথা বলতে পারভেননা?

মোল্লা মো: নুরুল ইসল

২০১৯-১০-১৬ ১১:৩৪:৫১

সভা করতে দিবেনা। জনগনের কথা হলো বিএনপি ঐক্য জোটের সাথে থাকবেনা। ঐক্য জোট দিয়ে বিএনপির কোন লাভ নেই। বিএনপির সামনে যখনি কোন ভালো ইস্যু  আসে ঐক্যজোটের নামে তা অন্যদিকে ঘুরিয়ে নেয়া হয়। ঐক্যজোটের দেশে কোন সমর্থক নেই। বিএনপিকে বলছি; ঐক্যজোটের কথায় কান দিবন না।

আপনার মতামত দিন

প্রথম পাতা অন্যান্য খবর

ঢাকা সিটিতে ভোট ১লা ফেব্রুয়ারি

পিছু হটলো নির্বাচন কমিশন

১৯ জানুয়ারি ২০২০

মিয়ানমারের অনীহা

ভেস্তে যেতে বসেছে ত্রিদেশীয় উদ্যোগ

১৯ জানুয়ারি ২০২০

ভাড়ায় মিলে মামলার বাদী!

১৯ জানুয়ারি ২০২০

১৬ দিনে এসেছেন ১৬১০ বাংলাদেশি

সৌদি থেকে ফেরার মিছিল

১৮ জানুয়ারি ২০২০

অনিশ্চয়তায় ভোটাররা

১৮ জানুয়ারি ২০২০





প্রথম পাতা সর্বাধিক পঠিত