মিজান ও অমিত সাহা জানায়, আবরার শিবির করে

রুদ্র মিজান

দেশ বিদেশ ১৫ অক্টোবর ২০১৯, মঙ্গলবার | সর্বশেষ আপডেট: ১১:৪৬

অমিত সাহা
বুয়েটের আবরার ফাহাদকে ধরে নিয়ে প্রথম প্রশ্ন করা হয়েছিল, তুই শিবির করিস? আবরার হতভম্ভ হয়ে তাকিয়ে ছিলেন। একইভাবে আবারো প্রশ্ন করা হলে আবরার বলেছিলেন, না, ভাই। আমি শিবির করি না। কিন্তু বিশ্বাস হয়নি ছাত্রলীগ নেতাদের। বুয়েট ছাত্রলীগের উপ-আইন বিষয়ক সম্পাদক অমিত সাহা প্রথম ছাত্রলীগের অন্যান্য নেতাদের জানান যে, আবরার শিবির করে।
এ বিষয়ে গতকাল আদালতে স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দিয়েছে চাঞ্চল্যকর এই হত্যা মামলার অন্যতম আসামি মেহেদি হাসান রবিন। বুয়েট শাখা ছাত্রলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক মেহেদি হাসান রবিন জানান, আবরারের রুমমেট মিজান ও বুয়েট শাখা ছাত্রলীগের উপ-আইন বিষয়ক সম্পাদক অমিত সাহা তাকে জানিয়েছিল আবরার শিবির করে। ওর সঙ্গে শিবিরের সংশ্লিষ্টতা আছে। ওর ফেসবুক বা মোবাইল ফোন চেক করলেই এটা নিশ্চিত হওয়া যাবে।
সে অনুযায়ী ঘটনার দিন ৬ই অক্টোবর রাত ৮টার দিকে আবরারকে ২০১১ নম্বর কক্ষে ডেকে আনা হয়।
১৬৪ ধারায় দেয়া জবানবন্দিতে হত্যাকাণ্ডের দায় স্বীকার করে সেই রাতের ঘটনার লোমহর্ষক বর্ণনা দিয়েছে রবিন। শিবির সন্দেহে আবরারকে ডেকে এনে নির্যাতন করার বর্ণনা দিয়ে মেহেদি হাসান রবিন বলেছে, আবরারকে প্রথম দফায় তিনি প্রশ্ন করেন, তুই নাকি শিবির করিস? আবরার অস্বীকার করে। পরে আবরারের ফোন ও ল্যাপটপ আনার জন্য বুয়েট ছাত্রলীগের সমাজসেবা বিষয়ক উপ-সম্পাদক ইফতি মোশাররফ সকাল ও তানভীরকে তার কক্ষে পাঠানো হয়। অনিক মোবাইল ফোনে আবরারের ফেসবুকে লগইন করে দেশের সাম্প্রতিক বিভিন্ন বিষয়ে কিছু স্ট্যাটাস পায়। তখন সে জিজ্ঞাসা করে, ক্যাম্পাসে কারা শিবির করে? তুই তাদের নাম বল? আবরার চুপ থাকে। তখন সে তাকে কিল ঘুষি মারে। ওই সময়ে রবিনও আবরারকে চড় থাপ্পড় মারে জানিয়ে বলে, একটা পর্যায়ে ক্রিকেটের স্ট্যাম্প দিয়ে তাকে পিটাই। কিছু সময় পর আমি অনিককে বলি যে ওকে পিটিয়ে শিবিরের নামগুলো বের করতে হবে। এরপর আমি চানখার পুল যাই খেতে। চানখার পুলে হোটেলে খাওয়া দাওয়ার সময় ম্যাসেঞ্জার গ্রুপে দেখতে পাই যে আবরারের অবস্থা খুবই খারাপ। তখন আমি হলে ফিরে আসি। এসে শুনি যে আবরারকে অমিতের কক্ষ থেকে বের করে পাশের ২০০৫ নম্বর কক্ষে নেয়া হয়েছে। ওই কক্ষে আবরার বমি করে। তখন আমি আবরারকে পুলিশের হাতে দেয়ার জন্য নিচে নামাতে বলি। এরপর জেমি, মোয়াজ ও শামীমসহ তিন-চার জন তাকে কোলে করে সিঁড়ি ঘরের পাশে নিয়ে যায়। পরে পুলিশ ও ডাক্তারকে খবর দেয়া হয়। এরপর ডাক্তার এসে তাকে মৃত ঘোষণা করে।

পাঠকের মতামত

**মন্তব্য সমূহ পাঠকের একান্ত ব্যক্তিগত। এর জন্য সম্পাদক দায়ী নন।

Habibi

২০১৯-১০-১৫ ০৬:০৩:১৫

ইনসাফ ও মানবিকতা বলতে কিছুই নেই। শিবির করলেতো আইন আছে মারার অধিকার কে দিয়েছে? হায় আফসোস! ক্ষমতা বিবেক কেড়ে নেয়

Khairat

২০১৯-১০-১৪ ২২:০৯:৩৮

জামাত/শিবিরকে আমি ব্যাক্তিগত ভাব প্রত্যাক্ষান করি। তার মানে এই নয় তাদের এই নয় ছাত্রলীগের এই কর্মকান্ড বৈধতা দেয়া হবে। সন্দেহ হয় আদতে কি হ।

Raju

২০১৯-১০-১৫ ০৯:৫৪:৩৮

তাহলে শিবির করার জন্য পিটিয়ে মারা দোষের কিছু না! এসব "সন্ত্রাসী" দের বাঁচানোর জন্য আরও অনেক তত্ব বের হবে...

আপনার মতামত দিন

দেশ বিদেশ অন্যান্য খবর

হিন্দুস্তান টাইমসের রিপোর্ট

ভারত থেকে অধিক হারে অবৈধ অভিবাসীরা বাংলাদেশে ফিরছেন

২৬ জানুয়ারি ২০২০

ভারতের সীমান্তরক্ষী বাহিনীর (বিএসএফ) পশ্চিমবঙ্গ শাখার একজন শীর্ষ কর্মকর্তা শুক্রবার বলেছেন, অবৈধ অভিবাসীরা ভারত ছেড়ে ...

সংবাদ সম্মেলনে অভিযোগ

স্বতন্ত্র প্রার্থীকে সমর্থন দেয়ায় হামলা, বৃদ্ধাসহ আহত ৬

২৬ জানুয়ারি ২০২০

 ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশনের ৪২ নম্বর ওয়ার্ডে স্বতন্ত্র প্রার্থীকে সমর্থন করায় একই পরিবারের ছয় জনকে ...

পঁচাত্তরের মতোই এখন দেশে একদলীয় শাসন চলছে: মওদুদ

২৬ জানুয়ারি ২০২০

পঁচাত্তরের মতোই দেশে এখন ‘একদলীয় শাসন’ চলছে বলে অভিযোগ করেছেন বিএনপি স্থায়ী কিমিটির সদস্য মওদুদ ...

যৌতুক না পেয়ে স্ত্রীকে মামলায় ফাঁসানোর অভিযোগ পুলিশ সদস্যের বিরুদ্ধে

২৬ জানুয়ারি ২০২০

যৌতুক না পেয়ে স্ত্রী ও তার পরিবারকে মিথ্যা হত্যা চেষ্টার মামলা দিয়ে ফাঁসানোর অভিযোগ উঠেছে ...

শেখ বোরহানুদ্দীন পোস্ট গ্র্যাজুয়েট কলেজে শিক্ষক প্রতিনিধি নির্বাচন অনুষ্ঠিত

২৬ জানুয়ারি ২০২০

রাজধানীর শেখ বোরহানুদ্দীন পোস্ট গ্র্যাজুয়েট কলেজে শিক্ষক প্রতিনিধি নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়েছে। এতে মার্কেটিং বিভাগের কামরুল ...

নিরপেক্ষ নির্বাচন না দিলে আন্দোলনের হুমকি রাঙ্গার

২৬ জানুয়ারি ২০২০

জাতীয় পার্টির মহাসচিব মসিউর রহমান রাঙ্গা বলেছেন, আমরা নির্বাচন করবো। একটি অবাধ, সুষ্ঠু ও নিরপেক্ষ ...





দেশ বিদেশ সর্বাধিক পঠিত



রোহিঙ্গা গণহত্যা

আইসিজে’র আদেশে যা বলা হয়েছে