এমন কারণেও মানুষ খুন করা যায়!!!

অনলাইন

সাজেদুল হক | ৭ অক্টোবর ২০১৯, সোমবার, ২:০৫ | সর্বশেষ আপডেট: ৭:৫৮
ছেলেটার মুখের দিকে তাকানো যায় না। বিশ্বাস করা যায় না ওকে খুন করা হয়েছে। সত্যি ‍কি তাকে  খুন করা হয়েছে? নাকি আমরা কোন দুঃস্বপ্ন দেখছি। একটু পরেই ঘুম ভেঙে যাবে। জেগে দেখবো না আবরার ফাহাদ মরেনি। ও বেঁচে আছে। সকাল সকাল মায়ের সাথে কথা বলেছে। একটু পরেই ক্লাসে যাবে।
আমাদের দুঃস্বপ্ন কেটে যাবে। তা অবশ্য হওয়ার নয়।
 
সকালে ঘুম ভাঙতেই শুভ সকাল জানায় বাংলাদেশ। আবরার ফাহাদের হত্যার সংবাদের মধ্যদিয়ে। ছেলেটা নটরডেমের ছাত্র ছিল। পড়তো বুয়েটের তড়িৎ ও ইলেকট্রনিক প্রকৌশল বিভাগে। যে কোন বিচারেই বাংলাদেশের সবচেয়ে মেধাবী শিক্ষার্থীদের একজন। এখনও পর্যন্ত যতদূর জানা গেছে, হল ছাত্রলীগের ‘আদালতেই’ কার্যকর হয়েছে তার মৃত্যুদণ্ড! কী অবলীলাতেই না বলে ফেললাম! মুহুর্তের মধ্যে শেষ হয়ে গেলো একজন ছাত্র, একটি পরিবারের স্বপ্ন, ভবিষ্যত, বর্তমান। সবকিছু শেষ হয়ে গেলো! কিছু অমানুষের হাতে। ভাবা যায় না ওরাও বুয়েটে পড়তো। কী দোষ ছিল ছেলেটির! ফেসবুকে তার একটি স্ট্যাটাস ভাইরাল হয়েছে। একবার দেখা যাক কী লিখেছে সে-১. ৪৭ এ দেশভাগের পর দেশের পশ্চিমাংশে কোন সমুদ্রবন্দর ছিল না। তৎকালীন সরকার ৬ মাসের জন্য কলকাতা বন্দর ব্যবহারের জন্য ভারতের কাছে অনুরোধ করল। কিন্তু দাদারা নিজেদের রাস্তা নিজেদের মাপার পরামর্শ দিছিলো। বাধ্য হয়ে দুর্ভিক্ষ দমনে উদ্বোধনের আগেই মংলা বন্দর খুলে দেয়া হয়েছিল। ভাগ্যের নির্মম পরিহাসে আজ ইন্ডিয়াকে সে মংলা বন্দর ব্যবহারের জন্য হাত পাততে হচ্ছে। ২. কাবেরি নদীর পানি ছাড়াছাড়ি নিয়ে কানাড়ি আর তামিলদের কামড়াকামড়ি কয়েকবছর আগে শিরোনাম হয়েছিল। যে দেশের এক রাজ্যই অন্যকে পানি দিতে চায় না সেখানে আমরা বিনিময় ছাড়া দিনে দেড়লাখ কিউবিক মিটার পানি দিব। ৩. কয়েকবছর আগে নিজেদের সম্পদ রক্ষার দোহাই দিয়ে উত্তর ভারত কয়লা-পাথর রপ্তানি বন্ধ করেছে অথচ আমরা তাদের গ্যাস দিব। যেখানে গ্যাসের অভাবে নিজেদের কারখানা বন্ধ করা লাগে সেখানে নিজের সম্পদ দিয়ে বন্ধুর বাতি জ্বালাব। হয়তো এসুখের খোঁজেই কবি লিখেছেন-
‘পরের কারণে স্বার্থ দিয়া বলি
এ জীবন মন সকলি দাও,
তার মত সুখ কোথাও কি আছে
আপনার কথা ভুলিয়া যাও।’
 
এই লেখার জন্য কাউকে মৃত্যুদণ্ড দেয়া যায়??? আবরার কখনও দূর কল্পনাতেও ভেবেছিল এই লেখার জন্য তাকে মরতে হবে! একই বিশ্ববিদ্যালয়ের সহপাঠীরা তাকে পিটিয়ে মেরে ফেলবে। গণমাধ্যমে ছাত্রলীগ নেতাদের বক্তব্যে যা বুঝা যায়, আবরারের অপরাধ সে শিবিরের পেইজে লাইক দিয়েছিল। তার কাছে তারা আপত্তিকর লেখা পেয়েছে! উপর্যুক্ত স্ট্যাটাসটিই কি তবে আপত্তিকর!

এতো ঠুনকো, সামান্য কারণে কেউ কাউকে হত্যা করতে পারে? অবিশ্বাস্য বললেওতো কম বলা হয়। কোথায় যাচ্ছে এই দেশ, কোথায় যাচ্ছি আমরা! ৫৬ হাজার বর্গমাইলেই অসহায় আবরাররা!ওরা খুন হবে! দুই একদিন হাউকাউ হবে! তারপর সব ঠান্ডা! আবরারকে হত্যার মাধ্যমে এরাতো আসলে সমগ্র মানবজাতিকেই হত্যা করলো। অমানুষেরা মানবজাতির মধ্যে অন্তর্ভুক্ত হওয়ার কথা নয়।
 


এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

পাঠকের মতামত

**মন্তব্য সমূহ পাঠকের একান্ত ব্যক্তিগত। এর জন্য সম্পাদক দায়ী নন।

Hoque

২০১৯-১০-০৮ ২১:০৩:৫৬

আবরার হত্যাকরীদের বিচার অনতিবিলম্বে হওয়ার জন্য BUET থেকে TASK force গঠন করা হোক.....

Salim Khan

২০১৯-১০-০৮ ১৮:৩৬:৫৩

"এতো ঠুনকো, সামান্য কারণে কেউ কাউকে হত্যা করতে পারে?" হাঁ পারে, কেবল একটি দলের লোকেরাই পারে। তারা পারে না এমন কিছু পৃথিবীতে নেই।

Hoque

২০১৯-১০-০৭ ২১:১৪:০৭

আবরার হত্যাকরীদের বিচার অনতিবিলম্বে হওয়ার জন্য BUET থেকে TASK force গঠন করা হোক.....

sheikh ansarali

২০১৯-১০-০৭ ২৩:১১:৩১

আবরারকে হত্যার মাধ্যমে এরাতো আসলে সমগ্র মানবজাতিকেই হত্যা করলো। অমানুষেরা মানবজাতির মধ্যে অন্তর্ভুক্ত হওয়ার কথা নয়।ami ek moat

A b

২০১৯-১০-০৭ ১০:০০:১৮

আবরার ১৮ কোটি নপুংশের মাঝে একজন বীরপুরুষ ছিল। তাকেও হায়নারা শেষ করে দিল। নতুন কোন বীরপুরুষ কি আবরারের রক্ত থেকে জন্ম নেবে?

Enam

২০১৯-১০-০৭ ০৯:২৩:৫৬

বিবেক সম্পন্ন প্রতেক নাগরিকের একযোগে উচিত প্রতিবাদী হওয়া। নতুবা কাল আরেক আবরারের মৃত্যু সংবাদ শুনতে হবে এই নরপিচাশদের হাতে। দেশের স্বাধীনতা আজ ভুলন্ঠিত।

অনিচ্ছুক

২০১৯-১০-০৭ ০৮:২৪:১০

মাননীয় প্রধানমন্ত্রী প্লিজ ছাত্রলীগ ও জুবলীগ বিলুপ্ত করে দিন। আপনার সব অরজন এরা মাটিতে মিশিয়ে দিচ্ছে

মাসুম

২০১৯-১০-০৭ ০৭:৪২:০১

আবরার ছিলো একজন দেশপ্রমিক । দেশের স্বার্থ বিকিয়ে চুক্তি তার বিবেক মেনে নিতে পারে নি । সেটাই বলেছিলো সে । আমার কাছে সে একজন শহীদ । দেশের জন্য জীবন দেয়া একজন বীর শ্রেস্ঠ ।

আব্দুল আহাদ

২০১৯-১০-০৭ ০৭:৩৭:৫০

ধ্বংস হোক ফেরাউনের বংশধর। ধ্বংস হোক ওরা আর ওদের মদদদাতারা। আল্লাহ তুমি জান্নাতুল ফেরদৌস দিয়ে দিও নিহত ভাইটিকে।

ABM Moniruddin

২০১৯-১০-০৭ ০৬:৪১:৩৫

If justice is delayed or denied, the govt wii be in utmost difficult.

Nisarul Islam

২০১৯-১০-০৭ ০৪:৪৫:০১

এই স্ট্যাটাস কি দেশের বিরুদ্ধে যায় না পক্ষে ? দেশের পক্ষে লেখার জন্য পিটিয়ে হত্যা ! তাহলে যারা পিটিয়েছে, তারা কারা ? এখানেও কি অন্য দেশের এজেন্টরা বসে আছে ? তাদের বিরুদ্ধে কিছু বললেই খুন হতে হবে ?

ইব্রাহিম

২০১৯-১০-০৭ ০৪:২৪:৩৫

আবরার ফাহাদ আমাদের কুষ্টিয়ার ছেলে,বাংলাদেশের গর্ভ ছিলো। এটা ৭১ এর বর্বরতাকেও হার মানায়।আমরা এর সঠিক বিচার চাই...

হাবিবুর রহমান

২০১৯-১০-০৭ ০৩:০৯:০৭

ছেলেটার জন্য কেদেছি,ও যদি সন্ত্রাসীহত মেনেনিতাম কিন্তু সেতো দেশপ্রেমিক!জানতাম না হায়েনারাও বুয়েটে পড়ে।আর কাদবনা আসুন সবাই রাজপথে প্রতিবাদ করি।

Nil

২০১৯-১০-০৭ ০৩:০০:১৯

Ke khun hole e dese fasir ray karjokor hoube. Kno khuner asamider fasi hoy na. Bosorer por bosor jail a rekhe vat khaeno hosse.

[email protected]

২০১৯-১০-০৭ ১৫:৫৬:৫৩

এর পর আর কে? হয়তো আমি, হয়তো আপনি, হয়তো সে। হয়তো সবাই

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক

২০১৯-১০-০৭ ০২:৪২:৪৭

ছেলেটির অপরাধ ছেলেটি দেশপ্রমিক ! পরাধীন জাতির মুক্তির জন্য দেশপ্রেমিকদের রক্তের প্রয়োজন হয় । আবরারের রক্ত সম্ভবত সেই দেশপ্রেমিকের রক্ত !

Morshed

২০১৯-১০-০৭ ০২:৩১:০৯

বুক পেটে কান্না আসতেছে আওয়ামিলীগ চাড়া কারো কথা বলার কনো অধিকার নাই?

শাহ আলম

২০১৯-১০-০৭ ১৫:২১:০৫

ভাই কিছু লেখাও যাবে না; তাহলে তথ্য প্রযুক্তি আইনে মামলা বা লাশ।

মোঃ নুরুল আলম

২০১৯-১০-০৭ ১৫:১৩:৩৮

এরা অশুভ শক্তির প্রেতাত্মা । অশুভ শক্তির হাতছানি তাদের ওপর । এদের সমগ্র গোষ্ঠী পারেনা এমন কোন অপকর্ম নেই । এদের ভয়ে আজ সমগ্র সমাজ তটস্থ । মানুষ এদের ভয়ে কারো সাহায্যে এগিয়েও আসেনা । এসব সরকারী সন্ত্রাসী আর তাদের মদদ দাতাদের কে রুখবে ?

Md Mojid

২০১৯-১০-০৭ ০২:০৬:১১

সবই হচ্ছে আমাদের সাধারণ মানুষের কপাল যারা এই কাজটা করছে তারা কি একটি বার চিন্তা করে নাই যে এই সেলেটা এই খানে আসা পর্যন্ত তার মা বাবার কতটুকু  সপ্ন ছিল যে তারা এক নিমিষেই শেষ করে দিল

sm mozibur bin kalam

২০১৯-১০-০৭ ১৪:৪৩:৫৭

ওরা হত্যার রাজনীতি করে তাই হত্যা করে দেখিয়ে দিলো সত্য বলা যাবেনা।

Md Harun al Rashid

২০১৯-১০-০৭ ১৪:৩৬:০২

হয়তো দেখা যাবে এই হত্যাকরি জানোয়ারদের পক্ষে কেউ না কেউ সাফাই গাইছে। নামি দামি ওকিল সাহেবরা এই হত্যাকারিদের হয়ে নড়ছেন। রাজনৈতিক বিবেচনায় এমন নিষ্ঠুরতা এতই হালকা ভাবে উপস্হাপিত হয়তো হয়ে থাকবে যে সাক্ষীর অভাবে বা উস্হিতির অক্ষমতায় অপরাধীরা ছাড়া পেয়ে যাবে। অথবা ধৃত বা সন্দেহ ভাজনরা বিশেষ আনুকূল্যে ছাড়া পেয়ে দাপিয়ে বেড়াবে। হতভাগ্য পিতা মাতা নিহত সন্তানের সুষ্ঠু বিচার পাক।এটাই দাবি।

আমিন

২০১৯-১০-০৭ ০১:২১:৫৮

আর কত নির্মমততা দেখলে দেশ ফিরে আসবে মমতায়। আর কত নিরিহদের হত্যা করলে ফিরে আসবে মানবতা।

অনিচ্ছুক

২০১৯-১০-০৭ ০১:২১:৫১

জেগে ওঠো বাংলাদেশ ! আর কত আবরারের লাশ চাই?

কোহিনুর খানম

২০১৯-১০-০৭ ১৪:১৭:৫৭

এই ছেলে খাটি দেশ প্রেমিক।দেশের জন্য প্রান দিলো।আল্লাহ এই ছেলেকে শহীদের মর্যাদা দিন ,আমিন।

Karim khan

২০১৯-১০-০৭ ০১:১৬:১৩

"উদ্ভট উটের পিঠে চলেছে স্বদেশ " কবি শামসুর রহমান

আপনার মতামত দিন

নোবেলজয়ী অর্থনীতিবিদ অভিজিৎকে নিয়ে বিজেপির লাগামহীন কুৎসা

ব্রিজে উঠতে লাগে মই

যুক্তরাষ্ট্র-ভারত প্রতিরক্ষা বাণিজ্য দাঁড়াবে ১৮০০ কোটি ডলারে

শরণখোলায় ১৩ মামলার আসামি গ্রেপ্তার

‘নতুন সম্মেলন মানেই নতুন মুখ’

ভারতে হিন্দু নেতা হত্যা, গ্রেপ্তার দু’মাওলানাসহ ৫

ধামরাইয়ে শিক্ষকের হাতে বলৎকারের শিকার ছাত্র

চার জেলায় সড়ক দুর্ঘটনায় নারীসহ ৬ জন নিহত

বিব্রত ঢাকা, বিজিবির বিরুদ্ধে ভারতে মামলা, তদন্ত শুরু

তিন ঘন্টার চেষ্টায় চট্টগ্রাম হকার্স মার্কেটের আগুন নিয়ন্ত্রণে

কঠিন পরীক্ষায় বরিস জনসন

সুদ লেনদেনকে কেন্দ্র করে মসজিদের ইমাম খুন

বাংলাদেশী জঙ্গিদের অনুপ্রবেশ ঘটেছে, উচ্চ সতর্ক অবস্থায় পুলিশ

রাজনৈতিক সমঝোতার মাধ্যমে কি খালেদা জিয়া মুক্ত হতে পারবেন?

জেলখানায় প্রেম, সমকামিতা

‘দর্শক পর্দায় শুধু নায়ক-নায়িকার রোমান্স দেখতে চান না’