পা দিয়ে লিখেই অনার্স পাস

ষোলো আনা

সৃষ্টি ঘটক | ২৫ জুলাই ২০১৯, বৃহস্পতিবার | সর্বশেষ আপডেট: ৪:০১
জন্মগতভাবেই দুটো হাত অকেজো। নাম তার শারমিন আক্তার। নোয়াখালীর এক অভাবী পরিবারে জন্ম তার। বিনা চিকিৎসায় বেড়ে উঠেছেন। তবুও দমে যাবার পাত্র নন তিনি। পা দিয়ে লিখে করেছেন অনার্স পাস। বিষয় দর্শন।
দরিদ্র্যতার মাঝেই বসবাস শারমিনের।

বাবা কৃষক।
তিন ভাইবোন নিয়ে পরিবার তাদের। শারমিন আক্তার বলেন- পরিবার, বাবা মায়ের জন্যই সম্ভব হয়েছে। আমার জন্মের পর থেকেই তারা অনেক কষ্ট করেছেন। আমার ভাইবোনের সহযোগিতা ছাড়াও এগিয়ে যাওয়া সম্ভব হতো না। তারা মনোবল জুগিয়ে আমার সামনে এগিয়ে যাবার পথটাকে সুগম করেছেন।

শারমিনের এমন সাফল্যে গর্বিত তার শিক্ষক ও প্রতিবেশীরাও। ছোট থেকেই পড়াশোনায় আগ্রহ এগিয়ে নিয়ে গেছে তাকে।

শারমিনের অনার্স শেষ হয়েছে কিছুদিন আগে। ভর্তি হবেন মাস্টার্সে। স্বপ্ন তার পিএইচডি ডিগ্রি অর্জন করা। দরিদ্র পরিবারের শারমিনের একার পক্ষে তা সম্ভব নয়। তার পাশে দাঁড়িয়ে সহযোগিতার আশ্বাস দিয়েছেন জেলা প্রশাসক।
শারমিনের স্বপ্ন সরকারি চাকরি করা। বড় কোনো পদে দেখতে চান নিজেকে। সেবা করতে চান পিছিয়ে পড়া অসহায় মানুষের। তার এই স্বপ্ন পূরণে সহযোগিতা চান সবার।


এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

আপনার মতামত দিন

যানবাহনের অসুস্থ প্রতিযোগিতা বন্ধ করতে হবে

ক্রিকেটারদের ধর্মঘট ষড়যন্ত্রের অংশ

যেভাবে কোটিপতি ‘পলিথিন তবারক’

কীভাবে ভিআইপি লাউঞ্জ ব্যবহার করতেন সম্রাট?

ক্রিকেটারদের আন্দোলনে ফিকা’র সমর্থন

দুদকের আট কর্মকর্তার বিরুদ্ধে অনুসন্ধান শুরু

ইডেন টেস্টে উপস্থিত থাকবেন শেখ হাসিনা

‘আমার মনে হয় বোর্ডের সবাই ব্যর্থ’

বিশ্বনাথে পংকি খান ও ফারুককে নিয়ে জল্পনা

পদ্মা সেতুর ১৫তম স্প্যান বসলো

ব্রেক্সিট চুক্তি পাস করাতে জনসনের শেষ প্রচেষ্টা

এনু-রূপণের ৩৫ কোটি টাকার অবৈধ সম্পদ

মাদক-দুর্নীতি-চাঁদাবাজি ও অনুপ্রবেশকারীদের বিষয়ে জিরো টলারেন্স: যুবলীগ

সাদাতের স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি

বায়তুল মোকাররমে হেফাজতের বিক্ষোভ

বাংলাদেশ উন্নয়নের মডেল: আইনমন্ত্রী