মেজর (অব.) মান্নানের বিরুদ্ধে জমি দখলের অভিযোগ

দেশ বিদেশ

কমলনগর (লক্ষ্মীপুর) প্রতিনিধি | ২৫ জুন ২০১৯, মঙ্গলবার
 লক্ষ্মীপুর-৪ (রামগতি-কমলনগর) আসনের সংসদ সদস্য ও বিকল্পধারা বাংলাদেশের মহাসচিব মেজর (অব.) আব্দুল মান্নানের বিরুদ্ধে প্রায় ২শ’ একর জমি দখলের অভিযোগ উঠেছে। কমলনগর উপজেলার চরকাদিরা ইউনিয়নে বিভিন্ন লোকের চাষকৃত আউস ধান ট্রাক্টর দিয়ে মাড়িয়ে নতুন করে ধান রোপণ করে দখলে নেন। এছাড়াও নদী ভাঙনের শিকার হয়ে বেশির ভাগ লোক বিভিন্ন লোকজনের কাছ থেকে জমি ক্রয়ের মাধ্যমে বাড়ি-ঘর নির্মাণ করে বসবাস করলেও বাড়ি-ঘর সরানোর হুমকি দেন তার লোকজন। এতে চরম হুমকি ও অনিশ্চয়তার মধ্যে রয়েছে সাধারণ মানুষ। এ নিয়ে ভুক্তভোগী হাজী হাছানুজ্জামান ও উপজেলা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি সফিক উল্লাহ (বাংলা নেতা) বাদী হয়ে জেলা প্রশাসক বরাবর পৃথক লিখিত অভিযোগ দায়ের করেন।
অভিযোগ ও স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, মেজর (অব.) আব্দুল মান্নান পূর্বের বাড়ি কমলনগর উপজেলার চরকাদিরা ইউনিয়নে হওয়ায় ওই মৌজার বিভিন্ন খতিয়ানে প্রায় ২শ’ একর জমি তার পৈতৃক ও ক্রয়কৃত জমি বলে দীর্ঘদিন থেকে দাবি করে আসছেন। এ ঘটনায় লক্ষ্মীপুর আদালতে কয়েকটি মামলাও হয়। এ নিয়ে থানায় বহুবার বৈঠক এবং উকিল সালিশ হলেও তিনি ওই সব জমির প্রয়োজনীয় কাগজপত্র দেখাতে পরেননি।
এছাড়া বেশির ভাগ জমি ওপর মামলা নিষ্পত্তি না হওয়া পর্যন্ত জবর দখল করা যাবে না মর্মে স্থায়ী নিষেধাজ্ঞাও জারি করে আদালত। কিন্তু মেজর (অব.) আব্দুল মান্নান এমপি হওয়ার পর ক্ষমতার দাপট দেখিয়ে বিভিন্ন লোকের ক্রয় ও বন্দোবস্তকৃত জমিতে তার লোকজন দিয়ে দখল করে নেন। অন্যদিকে তার নিয়োগকৃত সার্ভেয়ার আব্দুর রহমান (হোরণ) মেজর মান্নানকে ভুল বুজিয়ে মানুষের জমি দখল নিয়ে বাণিজ্যে মেতে উঠেছে বলে স্থানীয়দের অভিযোগ। সার্ভেয়ার হোরণ মনগড়া মানুষের জমি দখল করে আবার পর্যাপ্ত ডকুমেন্ট ও মোটা অঙ্কের টাকা দিলে অনেকের জমি ছেড়েও দেন। সরেজমিন চরকাদিরা ইউনিয়নে গিয়ে জানা যায়, হাজী হাছানুজ্জামন, সফিউল্লা (বাংলা নেতা), হাফেজ মাসুদুল হক, নুরুজ্জামন চৌধুরী,সাহাব উদ্দিন, মাইন উদ্দিন, আনার উল্যাহ, ছবির আহমেদ, মো. সোহেল, আজাদ, কামাল উদ্দিন, আল আমিন, মো. হানিফ, শাহে আলম ও নুর নবীসহ প্রায় শতাধিক কৃষকের ২শ’ একর জমি দখল করে নেয়। এছাড়াও হাজিরহাট ইউনিয়নের নুরুজ্জামান চৌধুরী জানান, তাদের দু’পক্ষের ৪ একর ৪৪ শতাংশ বন্দোবস্তের জমি ৫৪ বছর থেকে সরকারকে খাজনা দিয়ে ভোগদখর করে আসছেন। হঠাৎ রমজান মাসে তাদের জমি দখল করে নেন মেজর মান্নানের লোকজন। আমাদের জমি উদ্ধার জন্য আমরা চেষ্টা করছি।
ভুক্তভোগী হাজী হাছানুজ্জামান ও সফিক উল্লাহ (বাংলা নেতা) জানান, তাদের খরিদকৃত ও বন্দোবস্তের প্রায় ৮৬ একর জমি এমপি হওয়ার পর মেজর মান্নানের নির্দেশে তার লোকজজন দিয়ে জোরপূর্বক দখল করে নেয়। আমরা জেলা প্রশাসক বরাবর অভিযোগ দায়ের করেছি।
এদিকে মেজর (অব.) আব্দুল মান্নানের নিয়োগকৃত সার্ভেয়ার আব্দুর রহমান হোরন দাবি করেন, চরকাদিরা মৌজার মান্নান স্যারের পৈতৃক ও ক্রয়কৃত সম্পত্তি দীর্ঘদিন যাবৎ দখলে না থাকায় স্যারের নির্দেশে জমিগুলো উদ্ধারের চেষ্টা চলছে। সফিক উল্লা (বাংলা নেতা) ও হাছানুজ্জামানের লোকজন প্রতিনিয়িত তাকে মেরে ফেলার হুমকি দিচ্ছে। এ ছাড়া তার বিরুদ্ধে যে অভিযোগ করা হচ্ছে তার কোন ভিত্তি নেই।
এ বিষয়ে জানতে চাইলে লক্ষ্মীপুর-৪ (রামগতি-কমলনগর) আসনের সংসদ সদস্য মেজর (অব.) আব্দুল মান্নান জানান, আমার ক্রয়কৃতও বাবার জমি দীর্ঘদিন থেকে প্রতিপক্ষ গ্রুপ দখল করে রেখেছে। বিষয়টি নিয়ে আদালতে মামলা চলে। তাছাড়া সফিক উল্লা (বাংলা নেতা) আমার জমিতে আর যাবে না মর্মে লিখিতও দিয়েছে। এখন আবার তারা আমার বিরুদ্ধে অভিযোগ করে। লক্ষ্মীপুর জেলা প্রশাসক অঞ্জন চন্দ্র পাল জানান, দখলের বিষয়ে অভিযোগ পেয়েছি। বিষয়টি খতিয়ে দেখা হচ্ছে।



এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

আপনার মতামত দিন

ওয়াশিংটনে ইমরান খান যা বললেন

ট্যাংকার জব্দ: ইরান-বৃটেন উত্তেজনা অব্যাহত

‘টিভি চ্যানেলগুলো নাচের শিল্পীদের যথাযথ মূল্যায়ন করে না’

বানভাসি মানুষের দুর্ভোগ বাড়ছে

নৈরাজ্য

১৯ জনকে গণপিটুনি নিহত ৩

মার্কিন দূতাবাসের দুরভিসন্ধি

মিন্নির জামিন মেলেনি

পুঁজিবাজারে একদিনেই ৫ হাজার কোটি টাকার মূলধন হাওয়া

মশায় অতিষ্ঠ মানুষ ঘরে ঘরে ডেঙ্গু আতঙ্ক

অর্থনৈতিক কূটনীতির ওপর গুরুত্ব দিতে বললেন প্রধানমন্ত্রী

সাত কলেজের অধিভুক্তি বাতিলের আন্দোলনে অচল ঢাবি

যে কারণে সিলেটে মহিলা কাউন্সিলর লাকীর ওপর হামলা

৬ ঘণ্টা বিদ্যুৎ ও পানিবিহীন শাহজালাল বিমানবন্দর

সাত দিনের মধ্যে প্রথম কিস্তি পরিশোধের নির্দেশ

এ যেন খোঁড়াখুঁড়ির নগরী