রোহিঙ্গা ইস্যুতে মিয়ানমার মিথ্যাচার করছে: পররাষ্ট্রমন্ত্রী

অনলাইন

কূটনৈতিক রিপোর্টার | ১২ জুন ২০১৯, বুধবার, ১:৫৯ | সর্বশেষ আপডেট: ৮:২১
আন্তর্জাতিক সম্প্রদায়কে পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. একেএম আবদুল মোমেন বলেছেন, মিয়ানমার প্রতিনিয়ত মিথ্যাচার করছে। তারা বাংলাদেশকে দোষারোপ করছে। আজ বিদেশি কূটনীতিক ও আন্তর্জাতিক সংস্থার প্রতিনিধিদের কাছে রোহিঙ্গা সঙ্কটের সর্বশেষ অবস্থা ব্রিফ করার পর সাংবাদিকদের এ কথা জানান মন্ত্রী। এর আগে সকাল ১০টায় রাষ্ট্রীয় অতিথি ভবন পদ্মায় ওই ব্রিফিং হয়। পররাষ্ট্রমন্ত্রী ছাড়াও মন্ত্রণালয়ের জ্যেষ্ঠ কর্মকর্তারা ব্রিফিংয়ে অংশ নেন।

‘বাংলাদেশ নাকি রোহিঙ্গাদের ফেরত পাঠাচ্ছে না’ সম্প্রতি জাপানে মিয়ানমারের মন্ত্রীর এমন বক্তব্য উল্লেখ করে আবদুল মোমেন বলেন, এসবই তাদের ধারাবাহিক মিথ্যাচারের অংশ। মন্ত্রী বিশ্ব সম্প্রদায়ের প্রতি মিয়ানমারের মিথ্যাচার ও অপপ্রচার সম্পর্কে সতর্ক থাকার অনুরোধ জানান।

মিয়ানমারের এই মিথ্যাচার মোকাবেলায় বাংলাদেশ কি করবে- জানতে চাইলে পররাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, আমরা সব বন্ধু রাষ্ট্রকে আমাদের অবস্থান জানাচ্ছি এবং এটি অব্যাহত রাখবো। আমরা আমাদের এবং মিয়ানমার- উভয়ের বন্ধু চীনসহ আরও যারা আছেন, তাদের কাছে যাবো এবং এ নিয়ে আমাদের অবস্থান তুলে ধরবো।

মিয়ানমারের ওপর চাপ বাড়ানো প্রসঙ্গে ড. আবদুল মোমেন বলেন, আমরা সব সার্বভৌম রাষ্ট্রকে বলেছি মিয়ানমারে শুধু মুসলামানরা নির্যাতিত হচ্ছে না, সেখানে মানবতা আক্রান্ত। যদি আপনাদের মানবতার প্রতি ন্যুনতম দরদ থাকে, তাহলে আপনারা আপনাদের মতো করে চাপ দিন। আপনারা আমাদের বিষয়টা বোঝেন।



এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

আপনার মতামত দিন

পারভেজকে পুলিশি রিমান্ডে

চট্টগ্রামে কিশোরী ধর্ষণ, ভন্ডপীর গ্রেপ্তার

নবম ওয়েজ বোর্ডের প্রজ্ঞাপন বিষয়ে আদেশ কাল

‘বেশ কিছু পরিকল্পনা রয়েছে’

কুষ্টিয়ায় ২৪ ঘণ্টায় ১৭ ডেঙ্গু রোগী, রামেকে এক নারীর মৃত্যু

আসামে বিশাল বন্দিশিবির নির্মাণের পরিকল্পনা, আতঙ্কে মুসলিমরা

ময়মনসিংহে গারো তরুণীকে ধর্ষণচেষ্টা, ক্লিনিক মালিক গ্রেপ্তার

স্বামীর লাশ দেখেই...

মমেক হাসপাতালে ডেঙ্গুজ্বরে যুবক নিহত

রিয়েলিটি টিভি তারকাদের যৌন সম্পর্ক, উপার্জন অঢেল টাকা

রাঙ্গামাটিতে সন্ত্রাসীদের গুলিতে সেনাসদস্য নিহত

কাশ্মীরে নির্বিচারে ধরপাকড়

ঈদে সড়কেই প্রাণ গেল ২২৪ জনের

রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসন আদৌ শুরু হচ্ছে কি?

কুমিল্লায় সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত ৮

এখনো উচ্চ ঝুঁকি ২৪ ঘণ্টায় ১৭০৬ রোগী ভর্তি