নিজ দলেই তীব্র সমালোচনা ও চাপের মুখে কংগ্রেস সভাপতি রাহুল গান্ধী

বিশ্বজমিন

মানবজমিন ডেস্ক | ২৪ মে ২০১৯, শুক্রবার
লোকসভা নির্বাচনে চরমভাবে ব্যর্থ হওয়ায় নিজ দলেই তীব্র সমালোচনা ও চাপের মুখে পরেছেন কংগ্রেস সভাপতি রাহুল গান্ধী। দলটি এত বাজেভাবেই হেরেছে যে কংগ্রেসের ঐতিহ্যবাহী পারিবারিক আসনেও বিজেপির স্মৃতি ইরানীর কাছে হার মানতে হয়েছে রাহুল গান্ধীকে। সর্বশেষ খবর অনুযায়ী মোদির নেতৃত্বে থাকা বিজেপি ৩০০ এরও অধিক আসন পেয়েছে। অপরদিকে কংগ্রেস জয় লাভ করেছে মাত্র ৪৯টি আসনে। ফলে এই পরাজয়ের পুরো দায়টিই নিতে হচ্ছে রাহুল গান্ধীকে।
দলের বিভিন্ন অংশেও দেখা যাচ্ছে নেতৃত্ব নিয়ে চরম অসন্তোষ। রাজস্থান কংগ্রেসের এক সিনিয়র নেতা বলেন, যদি কিছু পরিবর্তন করা লাগে তো সবার আগে নেতৃত্ব পরিবর্তন করা দরকার। রাহুল গান্ধীকে তিনি বলেন, আপনাকে আগে জনগণকে কিছু আশাতো দিতে হবে! তিনিসহ দলটির সাবেক তিন কর্মকর্তা রয়টার্সকে বলেন, দলের এ হালের জন্য দায়ী রাহুল গান্ধীই। তাদের মতে দলটির তুলনামূলক তরুণদের রাজনীতিতে আনার পরিকল্পনাতেই ছিল ভুল।
তিনি বলেন, অভিজ্ঞরা কঠিন সময়ে প্রয়োজনীয় পরিবর্তন আনতে পারে, যেটা তরুণরা পারে না। তবে এই নেতাদের কেউই তাদের নাম প্রকাশে রাজি হননি। রয়টার্স সাক্ষাৎকার নিতে চাইলেও গান্ধী পরিবারের কেউ এতে রাজি হননি।

ভারত স্বাধীনতা অর্জনের পর থেকে বেশিরভাগ সময়েই দেশটির ক্ষমতায় ছিল কংগ্রেস। এখনো দলটিতে ব্যাপক শক্তিশালী রাহুল গান্ধী। তাকে সরিয়ে দেয়ার মত নেতৃত্বও কংগ্রেসে নেই। তবে কংগ্রেসে গান্ধী পরিবারের ভূমিকা ইতিমধ্যে প্রশ্নের মুখে পরেছে। সমালোচকরা বলছেন, এখনি কংগ্রেসের উচিৎ এই পরিবারতন্ত্র বাদ দেয়া।
২০১৪ সালে কংগ্রেস ইতিহাসের সবথেকে বাজে ফলাফল করে। সে বছর লোকসভা নির্বাচনে মাত্র ৪৪ আসনে জয় পায় দলটি। সেবছর সাংবাদিকদের রাহুল গান্ধী বলেছিলেন, আমাদের অনেক কিছু ভাবার বাকি আছে। দলের ভাইস প্রেসিডেন্ট হিসেবে এই হারের দায় আমি নিচ্ছি। কিন্তু ৫ বছর পর দেখা গেল কার্যত কংগ্রেসের কোনো সফলতাই আসেনি। মোদির কৌশল ধরতে স¤পূর্ন ব্যর্থ হয়েছে দলটি। গত বছর বিধানসভা নির্বাচনে কংগ্রেসের সফলতা দলটিকে আশান্বিত করেছিল যে তারা হয়ত মোদির বিরুদ্ধে শক্ত প্রতিরোধ গড়ে তুলতে পারবে। কিন্তু লোকসভা নির্বাচনের ফলাফলে দেখা গেছে মানুষ কংগ্রেসকে পুরোপুরি প্রত্যাখ্যান করেছে।

এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

আপনার মতামত দিন

৮৮ পাউন্ডের লুলুলেমন, নির্মাতারা নির্যাতিত

সম্রাটের মুখে কুশীলবদের নাম

বাংলাদেশের ফুটবলের উন্নয়নে সহযোগিতা অব্যাহত থাকবে ফিফা প্রেসিডেন্ট

ফরিদপুরে মানবজমিন উধাও

সীমান্তে গোলাগুলি বিএসএফ সদস্যের নিহতের খবর ভারতীয় মিডিয়ায়

৩৬০০ মেগাওয়াটের বিদ্যুৎকেন্দ্র নির্মাণ করবে সৌদি কোম্পানি

গ্রামীণফোন-রবিতে প্রশাসক নিয়োগে মন্ত্রণালয়ের অনুমোদন

বালিশকাণ্ডের তদন্তে দুদক

ব্রেক্সিট নিয়ে বৃটেন ইইউ সমঝোতা

মুসা বিন শমসেরের বিরুদ্ধে দুদকের মামলা

দক্ষিণ আফ্রিকায় গিয়েও নিরাপত্তাহীনতায়

ভুলে আসামি, ১৮ বছর পর খালাস পেলেন নাটোরের বাবলু শেখ

গ্রামীণফোনের কাছ থেকে ১২৫৮০ কোটি টাকা আদায়ের ওপর হাইকোর্টের নিষেধাজ্ঞা

‘ফিরোজের কাছে ফিরে আসবো’

শেখ হাসিনা প্রধানমন্ত্রী বলেই আবরার হত্যার পর দ্রুত পদক্ষেপ নেয়া হয়েছে

পদযাত্রায় বাধা, আমরণ অনশনে নন-এমপিও শিক্ষকরা