উত্তেজনা আছে কিন্তু যুদ্ধ হবে না: খামেনি

বিশ্বজমিন

মানবজমিন ডেস্ক | ১৫ মে ২০১৯, বুধবার
ইরান ও যুক্তরাষ্ট্রের মধ্যে উত্তেজনা তুঙ্গে। দু দেশের মধ্যেই স্বলমাত্রায় যুদ্ধ প্রস্তুতিও দেখা যাচ্ছে। এরইমধ্যে ইরানের সর্বোচ্চ নেতা আয়াতুল্লাহ খামেনি যুদ্ধের সম্ভাবনা উড়িয়ে দিলেন। মঙ্গলবার এক সমাবেশে ভাষণ দেয়ার সময় তিনি বলেন, যুক্তরাষ্ট্রের সঙ্গে উত্তেজনা কখনো সামরিক পর্যায়ে যাবে না এবং কার্যত কোনো যুদ্ধের আশংকাও নেই।

মঙ্গলবার সন্ধ্যার ওই সমাবেশে যোগ দেন দেশটির প্রেসিডেন্ট হাসান রূহানী, পার্লামেন্ট স্পিকার, বিচার বিভাগের প্রধান, তিন বাহিনীর প্রধানগণ, বিপ্লবী গার্ড বাহিনীর প্রধান, সংসদ সদস্যগণসহ রাজনৈতিক, সামাজিক ও সাংস্কৃতিক ব্যাক্তিবর্গ। এসময় খামেনি বলেন, ওয়াশিংটন জানে ইরানের সঙ্গে সংঘর্ষ নিজ স্বার্থের জন্য ক্ষতিকর। যুক্তরাষ্ট্রকে মোকাবিলায় ইরানি জনগণ প্রতিরোধ গড়ে তোলার সিদ্ধান্ত নিয়েছে। এ সংঘাতে শেষ পর্যন্ত মার্কিনিরা পিছু হটতে বাধ্য হবে। তাই আমরা কিংবা তারা, যারাই মনে করে যুদ্ধ তাদের অনুকূলে যাবে না তাদের কেউই যুদ্ধ চায় না। দু’দেশের চলমান উত্তেজনা হচ্ছে ‘আকাক্সক্ষার সংঘাত’। এই সংঘাতে শেষ পর্যন্ত ইরান বিজয়ীর বেশে উন্নত শির নিয়ে বেরিয়ে আসবে।

চলমান উত্তেজনা বৃদ্ধি পাওয়ার পর মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডনাল্ড ট্রা¤প ইরানকে বেশ কয়েকবার আলোচনায় বসার আহ্বান জানিয়েছেন। এ বিষিয়ে খামেনি বলেন, যুক্তরাষ্ট্রের সঙ্গে আবারও আলোচনা হচ্ছে বিষপান করার সমান। দেশটি আলোচনা করতে চায় দর কষাকষির স্বার্থে। তাদের উদ্দেশ্য আমাদের শক্তিমত্তায় আঘাত দেয়া। তারা আমাদের দূরপাল্লার ক্ষেপনাস্ত্রের বিষয়ে আপত্তি তুলেছে। তাদের দাবি মেনে নিয়ে কেউ আলোচনায় বসলে সে বোকার স্বর্গে বাস করছে।



এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

আপনার মতামত দিন

দেশে ফিরেছেন ভূমধ্যসাগরে প্রাণে বেঁচে যাওয়া ১৫ বাংলাদেশি

শাহজালালে সোয়া তিন কোটি টাকার স্বর্ণ জব্দ, যাত্রী আটক

ইউরেনিয়াম উৎপাদন ৪ গুণ বাড়িয়েছে ইরান, বাড়ছে উত্তেজনা

বহিস্কৃত ছাত্রলীগ নেত্রী জারিনের আত্মহত্যার চেষ্টা!

বিশ্ববিদ্যালয় পালানো শিক্ষকরা

ধনবাড়ীতে স্বামীর নির্যাতনে অন্তসত্ত্বা গৃহবধূর মৃত্যু

‘গানে সেই আবেদনটা খুঁজে পাওয়া যায় না’

মধুর ক্যান্টিনের সংঘর্ষের ঘটনায় ছাত্রলীগের ৫ জনকে বহিষ্কার

বালিশে ওলটপালট চাকরির বাজার!

ঢাকায় বালিশ প্রতিবাদ

প্রধানমন্ত্রীর সফরে নিরাপত্তা সতর্কতা প্রত্যাহার চাইবে ঢাকা

শিশুটিকে দত্তক পেতে চতুর্মুখী লড়াই

রিকশাচালকের বিরুদ্ধে ২৭ লাখ টাকার চেক মামলা

ব্যাংকে নগদ টাকার সংকট সরকারি আমানত পেতে তোড়জোড়

স্কুলছাত্রীকে ধর্ষণের পর ভেন্টিলেটর দিয়ে ফেলে দিলো পুলিশ সদস্য

সংসদ যেন একদলীয় করে তোলা না হয়