মধ্য এপ্রিলে বৃষ্টি হলেই হাওরে বন্যা

দেশ বিদেশ

স্টাফ রিপোর্টার | ১০ এপ্রিল ২০১৯, বুধবার
সারাদেশে থেমে থেমে চলা বৃষ্টিপাত দুই তিন দিনের মধ্যেই থেমে যেতে পারে। তবে মধ্য এপ্রিল থেকে ফের বৃষ্টিপাতের আশঙ্কা রয়েছে। মধ্য এপ্রিলে বৃষ্টি হলেই সবগুলো নদী থেকেই হাওরে পানি প্রবেশ করে আকস্মিক বন্যা দেখা দিতে পারে। পানি ও বন্যা বিশেষজ্ঞসহ পানি উন্নয়ন বোর্ডের বন্যা পূর্বাভাস কেন্দ্রের সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তাদের সঙ্গে কথা বলে এমন তথ্য জানা গেছে। ভারতীয় আবহাওয়া অধিদপ্তর-আইএমডির তথ্যমতে ঢালাই নদীর কমলগঞ্জ স্টেশনে মঙ্গলবার পানির স্তর ছিল ১৫ দশমিক ৬৯ মিটার। ১১ই এপ্রিল এটি ১৭ দশমিক ৬৭ মিটারে যাবে। এই স্টেশনে ফসলের মওসুমে আকস্মিক বন্যার বিপদসীমা ১৯ মিটার ধরা হয়। সিলেটের জাদুকাঠা নদীর লওরেরগঞ্জ স্টেশনে মঙ্গলবার পানির স্তর ছিল ১ দশমিক ৯১ মিটার। আজ এটি ৩ দশমিক ১ মিটারে পৌছানোর পূর্বাভাস রয়েছে। এই স্টেশনে পানির বিপদসীমা ৫ দশমিক ৯৪ মিটার।
অন্যদিকে ভারতীয় আবহাওয়া অধিদপ্তরের তথ্যমতে বাংলাদেশের উত্তর-পূর্বাঞ্চলের আরো নিচের দিকে মনুু, খোয়াই, সুতাং, কংস, কালনী, বাউলাই, সুরমা, কুশিয়ারা, শেওলা নদীসহ ওই অঞ্চলের নদীগুলোর পানির স্তরও প্রায় বিপদসীমার কাছাকাছি। মনু নদীতে মঙ্গলবার পর্যন্ত পানির স্তর ছিল ১৫ দশমিক ৬৯ মিটার। কিন্তু ১১ তারিখ এখানে হবে ১৭ দশমিক ৬৯ মিটার। দুই মিটার বেড়ে যাবে। এখানে ফসল তলানো বন্যার ক্ষেত্রে বিপদসীমা হল ১৯ মিটারের মতো। বুয়েটের পানি ও বন্যা ব্যবস্থাপনা ইনস্টিটিউটের প্রফেসর ড. একেএম সাইফুল ইসলাম মানবজমিনকে বলেন, আকস্মিক বন্যার বিপদসীমা অনুযায়ী এই মুহুর্তে উত্তর-পূর্বাঞ্চলের প্রায় সবগুলো স্টেশনে পানি বিপদসীমা থেকে মাত্র দেড় থেকে দুই মিটার নিচে রয়েছে। এখন যে বৃষ্টি হচ্ছে এটি পাহাড়ী অঞ্চলেও হচ্ছে। হয়তো ১১ তারিখের দিকে এই বৃষ্টি  থেমে যাবে। কিন্তু মধ্য এপ্রিল থেকে ফের বৃষ্টিপাতের আশঙ্কা রয়েছে। সেই বৃষ্টি হলে একদিনের মধ্যেই প্রায় সব নদী থেকে হাওরে পানি প্রবেশ করতে পারে। ইতিমধ্যেই অনেক নিচু এলাকার হাওরে পানি এসে গেছে। তিনি বলেন, ভারতীয় আবহাওয়া অধিদপ্তর-আইএমডি সাত দিনের বন্যা পূর্বাভাস দিয়ে থাকে। কিন্তু বাংলাদেশ আবহাওয়া অধিদপ্তর পূর্বাভাস দেয় মাত্র তিন দিনের। বাংলাদেশ পানি উন্নয়ন বোর্ডের বন্যা পূর্বাভাস কেন্দ্রের সাব ডিভিশনাল ইঞ্জিনিয়ার সরদার উদয় রায়হান মানবজমিনকে বলেন, এখন ফ্লাস ফ্লাড পিরিয়ড বা হাওর অঞ্চলের আকস্মিক বন্যার সময়। এই বন্যার জন্য আমরা তিন দিনের পূর্বাভাস দিয়ে থাকি। একই সঙ্গে সাত দিনের একটি সম্ভাব্য পূর্বাভাসও দেই। তবে আগামী ৭ দিনের মধ্যে কোন আকস্মিক বন্যার আশঙ্কা দেখছি না। আবহাওয়ার পূর্বাভাস অনুযায়ী মধ্য এপ্রিলে অবশ্য বৃষ্টি হওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে। কিন্তু সেই মধ্য এপ্রিল আসতেও এক সপ্তাহ বাকি। এই জন্যই আমরা সেই সময়ের কোন পূর্বাভাস দিচ্ছি না।

উল্লেখ্য, মধ্য এপ্রিলের বৃষ্টি ও বন্যার বিষয়ে নোটিশ না দিলেও বর্ষার আগেই আগাম বন্যার দেখা দিতে পারে বলে কৃষি ও দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা মন্ত্রণালয়কে সতর্ক করেছে বাংলাদেশ আবহাওয়া অধিদপ্তর। এর ভিত্তিতে বোরো ধান ৭৫ ভাগ পাকলেই কেটে ফেলার পরামর্শ দিয়েছে কৃষি মন্ত্রণালয়।

এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

আপনার মতামত দিন

ছাত্রদলের ভোট শুরু

অভিযানে যুবলীগ নেতা খালেদের বাসায় যা পাওয়া গেল

পার্লামেন্ট স্থগিত নিয়ে রায় দেয়ার ক্ষমতা নেই আদালতের: সরকার পক্ষ

রেজিস্ট্রেশন ও ফরম ফিলাপের সুযোগ দানের নির্দেশ

মাহমুদুল্লাহ ৪১ বলে ৬২, বাংলাদেশ ১৭৫

নিহত চালকের চিকিৎসায় দুই পরিচালকের ব্যাখ্যা জানতে চান হাইকোর্ট

সেই যুবলীগ নেতা আটক

ফকিরাপুলে নিষিদ্ধ ক্যাসিনোতে অভিযান, ১৪২ আটক

চবিতে ছাত্রলীগ নেতার অনশন

ভিকারুননিসার নতুন অধ্যক্ষ ফওজিয়ার নিয়োগ স্থগিত চেয়ে চেম্বার আদালতে আবেদন

থানায় বিয়ে দেয়া সেই ওসি বরখাস্ত

টসে হেরে ব্যাটিংয়ে বাংলাদেশ, আমিনুল-শান্তর অভিষেক

জাবির সরকার ও রাজনীতি বিভাগের নতুন সভাপতি অধ্যাপক নাসরীন সুলতানা

৩১ বছর আগের ট্র্যাজেডি ছাপানোয় ক্ষুব্ধ স্টোকস

তারা টকশোর এ্যাংকর নাকি অনভিজ্ঞ বক্তা?

মাদারীপুরে মোটরসাইকেলের মুখোমুখি সংঘর্ষে নিহত ২