ডিম বালককে বিয়ের প্রস্তাব শ’ শ’ অস্ট্রেলীয় তরুণীর

এক্সক্লুসিভ

মানবজমিন ডেস্ক | ২১ মার্চ ২০১৯, বৃহস্পতিবার | সর্বশেষ আপডেট: ১০:৩৬
বিশ্বজুড়ে এখন আলোচনায় উইল কনোলি। নিজের নামের থেকে সে এখন এগবয় বা ডিমবালক হিসেবেই বেশি পরিচিত। বর্ণবাদী মন্তব্যের পর অস্ট্রেলিয়ান সিনেটর ফ্রেসার অ্যানিং-এর মাথায় ডিম ফাটিয়ে এর প্রতিবাদ জানিয়েছিল উইল। আর এতেই রীতিমতো বীর উপাধি পেয়ে গেছে সে।

ডিমবালকের বীরত্বে মুগ্ধ সেদেশের তরুণীরাও। শুধু বীরত্বেই নয়, অস্ট্রেলিয়ান তরুণীরা বলছেন তার মনটাও অনেক ভালো বলেই এমন সাহসী প্রতিবাদ করতে পেরেছে ডিমবালক। তবে সবাই শুধু ডিমবালকের প্রশংসাই করছেন না, দিচ্ছেন বিয়ের প্রস্তাবও। সিনেটর ফ্রেসারের পদত্যাগ দাবিতে ক্যানবেরার রাস্তায় হাজার হাজার মানুষ   বিক্ষোভে নামেন।
সেখানে থাকা কিছু তরুণীকে দেখা যায়, মেরি মি এগবয় সংবলিত প্ল্যাকার্ড। তারা ওই ডিমবালককে বিয়ের প্রস্তাব দেন এভাবেই। কেউ কেউ চিৎকার করে বলছিল, আমি তোমাকে বিয়ে করতে চাই ডিমবালক। আরেকটি প্ল্যাকার্ডে লেখা হয়, বর্ণবাদী মন্তব্যের বিরুদ্ধে প্রতিবাদ জানানোর মাধ্যমেই ডিমবালক সত্যিকারের পুরুষে পরিণত হয়েছে।

এর আগে ফ্রেসার অ্যানিং নিউজিল্যান্ডের ক্রাইস্টচার্চে মসজিদে হামলার জন্য মুসলিম অভিবাসীদেরকেই দায়ী করেন। তার এ মন্তব্যকে তীব্র বর্ণবাদমূলক আখ্যা দিয়ে দেশজুড়ে তার পদত্যাগের দাবিতে আন্দোলন শুরু হয়। একই সঙ্গে তার পদত্যাগ দাবি করে তৈরি এক পিটিশনে ইতিমধ্যে স্বাক্ষর করেছে প্রায় ১ কোটি ৩০ লাখ মানুষ। বিক্ষোভে মুসলিমদেরকে সাহায্য ও সমর্থনের আশ্বাসও দেয় সাধারণ অস্ট্রেলীয় নাগরিকরা। মুসলিমদের উদ্দেশে তারা সেøাগান দেয়, কোনো ভয় বা বর্ণবাদের স্থান এখানে নেই, অভিবাসীদেরকে এদেশে স্বাগতম। পাশাপাশি আন্দোলনকারীরা ফ্রেসারের পদত্যাগ দাবি করে সেøাগান দিতে থাকে।



এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

পাঠকের মতামত

**মন্তব্য সমূহ পাঠকের একান্ত ব্যক্তিগত। এর জন্য সম্পাদক দায়ী নন।

এ্যাড.বিশ্বনাথ ভট্টা

২০১৯-০৩-২১ ০৯:০৭:৪৪

”তার এ মন্তব্যকে তীব্র বর্ণবাদমূলক আখ্যা দিয়ে দেশজুড়ে তার পদত্যাগের দাবিতে আন্দোলন শুরু হয়। একই সঙ্গে তার পদত্যাগ দাবি করে তৈরি এক পিটিশনে ইতিমধ্যে স্বাক্ষর করেছে প্রায় ১ কোটি ৩০ লাখ মানুষ। বিক্ষোভে মুসলিমদেরকে সাহায্য ও সমর্থনের আশ্বাসও দেয় সাধারণ অস্ট্রেলীয় নাগরিকরা। মুসলিমদের উদ্দেশে তারা স্স্লোগান দেয়, কোনো ভয় বা বর্ণবাদের স্থান এখানে নেই, অভিবাসীদেরকে এদেশে স্বাগতম। পাশাপাশি আন্দোলনকারীরা ফ্রেসারের পদত্যাগ দাবি করে স্স্লোগান দিতে থাকে। ” very good indeed ! this sort of solidarity may solve many problems which is expected everywhere to protest the miscreants.

আপনার মতামত দিন

চিরঘুমে জায়ান

সিপিডির বক্তব্য অগ্রহণযোগ্য

শ্রীলঙ্কায় নিহতের সংখ্যা বেড়ে ৩৫৯

কার্যকর গণতন্ত্রে মানবাধিকার ও মিডিয়ার স্বাধীনতা গুরুত্বপূর্ণ

সাংবাদিকদের চোর বলিনি

প্রেসক্রিপশন ছাড়া অ্যান্টিবায়োটিক বিক্রি বন্ধে রিট

আইসিডিডিআর’বিতে ঘণ্টায় ৩৬ নতুন রোগী

বাংলাদেশে ঝুঁকি এড়াতে সতর্কতার পরামর্শ বিশেষজ্ঞদের

ইউক্রেনে ডিটেনশন সেন্টারে ২০৮ বাংলাদেশি

দেশবাসীকে সজাগ ও সতর্ক থাকার আহ্বান প্রধানমন্ত্রীর

যুক্তরাষ্ট্রে সিপ্রোহেপটাডিন রপ্তানির অনুমোদন পেলো বেক্সিমকো ফার্মা

শেখ হাসিনা মিষ্টি পাঠান মমতা পাঠান কুর্তা

৩০শে এপ্রিল শাহবাগে ঐক্যফ্রন্টের গণজমায়েত

পুলিশের ৪ সদস্যের গাফিলতি খুঁজে পেয়েছে তদন্ত কমিটি

হুমকির অভিযোগ মিজানুরের

প্রতিবাদ আর কান্নায় পালিত হলো রানা প্লাজার ৬ষ্ঠ বার্ষিকী