নিহত ৫ বাংলাদেশি শনাক্ত

নিউজিল্যান্ডেই সমাহিত হবেন সামাদ-হোসনে আরা

শেষের পাতা

কূটনৈতিক রিপোর্টার | ১৮ মার্চ ২০১৯, সোমবার | সর্বশেষ আপডেট: ৪:০৭
নিউজিল্যান্ডের ক্রাইস্টচার্চে মসজিদে ভয়াবহ সন্ত্রাসী হামলায় নিহত ৫ বাংলাদেশির লাশ শনাক্ত হয়েছে। দেশটিতে নিযুক্ত বাংলাদেশের অনারারি কনসাল ইঞ্জিনিয়ার শফিকুর রহমান ভূঁইয়া স্থানীয় সূত্রের  বরাতে মানবজমিনকে গতকাল এ তথ্য নিশ্চিত করেন। টেলিফোনে বলেন, ঘটনার পর থেকে নরসিংদীর বাসিন্দা জাকারিয়া ভুঁইয়া নিখোঁজ ছিলেন। তার পূর্ব পরিচিত স্থানীয়  একটি মসজিদের ইমাম তার লাশ শনাক্ত করেছেন। ফলে বেসরকারীভাবে বাংলাদেশী মৃতের সংখ্যা এখন ৫-এ দাঁড়ালো। নরসিংদীর জাকারিয়া প্রায় ১৮ মাস আগে সিঙ্গাপুর থেকে নিউজিল্যান্ডে যান।

কনসাল শফিক জানান, হামলার পরপরই শনাক্ত হওয়া নিহত বাংলাদেশ কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক অধ্যাপক ড. আব্দুস সামাদ ও সিলেটের ফরিদ আহমেদের স্ত্রী হোসনে আরা আহমেদের লাশ নিউজিল্যান্ডেই দাফন-কাফনের আবেদন করেছেন দেশটিতে থাকা তাদের ঘনিষ্ঠ স্বজনরা। এ সংক্রান্ত নির্ধারিত ফর্মও তারা পূরণ করে কর্তৃপক্ষ বরাবর জমা দিয়েছেন। ফলে তারা নিউজিল্যান্ডেই সমাহিত হবেন।
এদিকে বেসরকারীভাবে রোববার শনাক্ত হওয়া নারায়ণগঞ্জের মো. ওমর ফারুক ও চাঁদপুরের মোজাম্মেল হক এবং নরসিংদীর জাকারিয়া ভুঁইয়ার লাশ দেশে আনা হবে কি-না? সেই সিদ্ধান্ত এখনও হয়নি।

কনসাল জেনারেল জানান, দেশটিতে তাদের কোন স্বজন নেই যারা এ বিষয়ে সিদ্ধান্ত দিতে পারেন। ফলে তাদের সিদ্ধান্ত পাওয়ার অপেক্ষায় থাকতে হচ্ছে। নিহত ব্যক্তিদের স্ত্রী, সন্তান, পিতা বা মাতা অথবা ঘনিষ্ঠ কাউকে নিউজিল্যান্ডে নেয়া হতে পারে। অথবা তারা মিশনের মাধ্যমে তাদের এ সংক্রান্ত মতামত দিতে পারেন। পুরো বিষয়টি নিয়ে দুই সরকারের মধ্যে আলাপ-আলোচনা চলছে। তবে এটা নিশ্চিত যে স্বজনহারা পরিবারগুলোর মতামত প্রাপ্তির পরই তাদের লাশ দেশে পাঠানো বা নিউজিল্যান্ডে দাফনের সিদ্ধান্ত হবে। রোববার সর্বশেষ চার বাংলাদেশি নাগরিক নিহতের খবর জানিয়েছিলেন পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী শাহরিয়ার আলম এমপি। নিহতের সংখ্যা ছয়জন পর্যন্ত বাড়তে পারে বলেও আশঙ্কা প্রকাশ করেছিলেন তিনি।

পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়, ক্যানবেরা মিশন এবং নিউজিল্যান্ডের (অনারারী) কনস্যুলেটের তথ্য অনুযায়ী, ওই ঘটনায় আহতদের মধ্যে লিপির অবস্থা সংকটাপন্ন। তার আরেকটি অস্ত্রোপচার করা লাগতে পারে। কিশোরগঞ্জের বাসিন্দা লিপিকে দেখতে গতকাল হাসপাতালে গেছেন নিউজিল্যন্ডের প্রধানমন্ত্রী। তিনি তার চিকিৎসার সার্বিক খোঁজ-খবর নিয়েছেন বলেও জানা গেছে। ওদিকে পয়ে গুলিবিদ্ধ গাজিপুরের মুতাসসিম ও শেখ হাসান রুবেলের অবস্থা বিপদমুক্ত। গত শুক্রবার জুমার নামাজের সময় নিউজিল্যান্ডের দ্বিতীয় বৃহত্তম শহর ক্রাইস্টচার্চের দুটি মসজিদে নৃশংস হামলায় ওই বাংলাদেশীসহ ৫০ জন নিহত ও ৪৮ জন আহত হন। হামলার পর আহতদের চিকিৎসার জন্য হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। শনিবার পর্যন্ত নিহতদের মরদেহ মসজিদে রাখা হয়। নিউজিল্যান্ড কর্তৃপক্ষ নিহতদের মোট সংখ্যা নিশ্চিত করেছে। তবে তারা এখনও নিহতদের জাতীয়তা ও আহতদের সম্পর্কে বিস্তারিত তথ্য জানায়নি। কর্মকর্তাদের মতে, শিগগিরই তাদের বিচার বিভাগ এসব ঘোষণা করবে।

লাশ দাফন বা আনতে পরিবারের একজনকে নিউজিল্যান্ড নিয়ে যাবে দেশটির সরকার: এদিকে ক্রাইস্টচার্চে মসজিদে হামলায় নিহত বাংলাদেশিদের লাশ দাফন বা তাদের মরদেহ ফিরিয়ে আনতে পরিবার প্রতি ঘনিষ্ঠ একজনকে নিউজিল্যান্ড নিয়ে যাবে দেশটির সরকার। পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী শাহরিয়ার আলম গণমাধ্যমকে এ তথ্য নিশ্চিত করেন। প্রতিমন্ত্রী জানান, নিউজিল্যান্ড সরকার বাংলাদেশকে জানিয়েছে, বাংলাদেশিদের মরদেহ ফিরিয়ে আনতে প্রত্যেকের পরিবারের ঘনিষ্ঠ একজনকে নিউজিল্যান্ড নিয়ে যাবে তারা। তাদের কাছে নিহতদের মরদেহ হস্তান্তর করবে। শাহরিয়ার আলম এ-ও জানান, নিহত ড. আব্দুস সামাদের পরিবার তাকে নিউজিল্যান্ডে কবর দেয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে।ফলে নিহতের বড় ছেলে বাংলাদেশ থেকে যাওয়ার পরপরই সেটি সম্পন্ন হবে।

ক্যানবেরা মিশনের হটলাইন চালু, সার্বক্ষণিক যোগাযোগ অব্যাহত:  এদিকে নিউজিল্যান্ডে হামলায় হতাহত পরিবার এবং অন্য যে কোন ধরণের যোগাযোগে হটলাইন চালু করেছে অস্ট্রেলিয়ার ক্যানবেরাস্থ বাংলাদেশ মিশন। নিউজিল্যান্ডে আবাসিক মিশন না থাকায় কনকারেন্ট অস্ট্রেলিয়া মিশন বিষয়গুলো দেখভাল করছে। মিশনের উপ-প্রধান তারেক আহমদেকে জরুরি ভিত্তিতে ঘটনার পরপরই দেশটিতে পাঠানো হয়েছে। তিনি পুরো বিষয়টি সমন্বয় করছেন। তাছাড়া নিউজিল্যান্ডে নিযুক্ত অনারারি কনসাল শফিকুর রহমান ভূইয়াও কাজ করছেন।

হটলাইনে তার মোবাইল এবং হোয়ার্টসআপ নম্বর (+৬৪ ২১০২৪ ৬৫৮১৯) যুক্ত করা হয়েছে। তিনি ছাড়াও অস্ট্রেলিয়া মিশনের কাউন্সেলর ফরিদা ইয়াসমিনের (+৬১ ৪২৪ ৪৭২৫৪৪) মোবাইল ও হোয়ার্টসআপ নম্বরটি হটলাইনে যুক্ত রয়েছে। ইতিহাসের ভয়াবহতম ওই সন্ত্রাসী হামলার পর অস্ট্রেলিয়া মিশন বাংলাদেশির নিরাপত্তা জন্য নিউজিল্যান্ড কর্তৃপক্ষের সাথে ঘনিষ্ঠভাবে যোগাযোগ রাখছে। হাই কমিশনারসহ পুরো মিশনই এতে কাজ করছে। হাইকমিশনের তরফে সরাসরি ও অকল্যান্ডে বাংলাদেশের অনারারি কনসুলারের মাধ্যমে নিউজিল্যান্ডে বসবাসরত বাংলাদেশিদের শান্ত থাকতে, বাড়ির ভেতরে থাকতে, জনসমাবেশ এড়াতে এবং দেশটির আইনি নির্দেশ মেনে চলার আহ্বান জানিয়ে বার্তা পাঠানো হয়েছে। ক্ষতিগ্রস্ত বাংলাদেশির সব রকমের সহায়তার জন্য কনসাল শনিবার সকাল থেকে ক্রাইস্টচার্চ এলাকায় রয়েছেন বলেও জানানো হয়েছে।



এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

পাঠকের মতামত

**মন্তব্য সমূহ পাঠকের একান্ত ব্যক্তিগত। এর জন্য সম্পাদক দায়ী নন।

golamgopal

২০১৯-০৩-১৮ ০৪:৩৫:৩৯

মধ্যপ্রাচ্য সহ সারা বিশ্বে মুসলিম,অমুসলিম কিছু বিভ্রান্ত মানুষকে জঙ্গি ও সন্ত্রাসে লেলিয়ে দিচ্ছে ইহুদিবাদী ইজরাইল ও ভারত। আর তাকে লালন করছে শক্তিশালী রাষ্ট্র ও অন্যরা।কোনো কোনো ক্ষেত্রে মুসলমানদের ন্যায্য দাবিকে অগ্রাহ্য করছে শক্তিধর রাষ্ট্র এবং জাতিসংঘ সহ অন্যান্য সংস্থা। যেমন দক্ষিণ এশিয়ার দেশ গুলুতে ইহুদিদের ন্যায় সন্ত্রাস ছড়িয়ে দিয়ে নিজে মাদবরের ভূমিকা পালন করছে ভারত। বহু কাল থেকে, শক্তিধর রাষ্ট্র,জাতিসংঘ সহ কেউই প্যালেস্তিন এবং কাশ্মীরের মানুষের ন্যায্য দাবিকে গুরুত্ব না দেওয়াতেই, ভারত ও ইজরাঈল সে সুযোগ কাজে লাগাচ্ছে।নিউজিল্যান্ডের মসজিদের সন্ত্রাসী হামলা তারই ফলশ্রুতি।

আপনার মতামত দিন

চিরঘুমে জায়ান

সিপিডির বক্তব্য অগ্রহণযোগ্য

শ্রীলঙ্কায় নিহতের সংখ্যা বেড়ে ৩৫৯

কার্যকর গণতন্ত্রে মানবাধিকার ও মিডিয়ার স্বাধীনতা গুরুত্বপূর্ণ

সাংবাদিকদের চোর বলিনি

প্রেসক্রিপশন ছাড়া অ্যান্টিবায়োটিক বিক্রি বন্ধে রিট

আইসিডিডিআর’বিতে ঘণ্টায় ৩৬ নতুন রোগী

বাংলাদেশে ঝুঁকি এড়াতে সতর্কতার পরামর্শ বিশেষজ্ঞদের

ইউক্রেনে ডিটেনশন সেন্টারে ২০৮ বাংলাদেশি

দেশবাসীকে সজাগ ও সতর্ক থাকার আহ্বান প্রধানমন্ত্রীর

যুক্তরাষ্ট্রে সিপ্রোহেপটাডিন রপ্তানির অনুমোদন পেলো বেক্সিমকো ফার্মা

শেখ হাসিনা মিষ্টি পাঠান মমতা পাঠান কুর্তা

৩০শে এপ্রিল শাহবাগে ঐক্যফ্রন্টের গণজমায়েত

পুলিশের ৪ সদস্যের গাফিলতি খুঁজে পেয়েছে তদন্ত কমিটি

হুমকির অভিযোগ মিজানুরের

প্রতিবাদ আর কান্নায় পালিত হলো রানা প্লাজার ৬ষ্ঠ বার্ষিকী