সিলেটে আশফাকের পক্ষে মাঠে মুহিত

বাংলারজমিন

স্টাফ রিপোর্টার, সিলেট থেকে | ১৫ মার্চ ২০১৯, শুক্রবার
আসন্ন সিলেট সদর উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে আওয়ামী লীগ মনোনীত চেয়ারম্যান প্রার্থী আশফাক আহমদের পক্ষে মাঠে নামলেন সাবেক অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিত। গতকাল দুপুরে খাদিমনগর ইউনিয়নের বড়শালা বাজারে এক পথসভা অনুষ্ঠিত হয়। ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি মো. তারা মিয়ার সভাপতিত্বে ও সাধারণ সম্পাদক মো. আবদুল মালিকের পরিচালনায় প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখেন। প্রধান অতিথির বক্তব্যে সাবেক অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিত তিনি বলেন, সিলেট সদরে এখনো আশফাক আহমদের প্রয়োজন রয়েছে। বিগত ১০ বছরে এ উপজেলায় অস্বাভাবিক উন্নয়ন হয়েছে। আশফাক আমার কাছে যে আবদার করেছে সে আবদার পূরণ করেছি। সেটা রাস্তাঘাট বলেন আর শিক্ষা, চিকিৎসা কিংবা বিদ্যুৎ এর ক্ষেত্রে বলেন। যেহেতু এমপি হওয়ার পর আমার ওপর মন্ত্রণালয়ের দায়িত্ব আসে ব্যস্ততার কারণে অনেক উন্নয়ন কর্মকাণ্ড আশফাককেই তদারকি করাতে হয়েছে। তার দক্ষতা ও কর্মতৎপরতা ভালই ছিল। সে অনেক উন্নয়ন করেছে। আওয়ামী লীগের পক্ষ থেকে তাকেই মনোনয়ন দেয়া হয়েছে। উন্নয়নের স্বার্থে নৌকায় ভোট দিয়ে পুনরায় নির্বাচিত করুন। বিশেষ অতিথির বক্তব্যে রাখেন সিলেট জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও সাবেক এমপি আলহাজ শফিকুর রহমান চৌধুরী, মহানগর আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি অ্যাডভোকেট রাজ উদ্দীন, যুগ্ম সম্পাদক বিজিত চৌধুরী, সাংগঠনিক সম্পাদক শফিউল আলম চৌধুরী নাদেল, বাফুফের কেন্দ্রীয় সদস্য মাহি উদ্দীন আহমদ সেলিম, সদর উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি বীর মুক্তিযোদ্ধা মফিজুর রহমান বাদশা, সাধারণ সম্পাদক ও কান্দিগাঁও ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান আলহাজ নিজাম উদ্দিন, খাদিমপাড়া ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান অ্যাডভোকেট আফছর আহমদ, জেলা মুক্তিযোদ্ধা সাবেক কমান্ডার মির্জা জামাল পাশা, সিটি কাউন্সিলর সালেহ আহমদ সেলিম, মোগলাগাঁও ইউনিয়নের সাবেক চেয়ারম্যান সামছুল ইসলাম টুনু, খাদিমনগর ইউনিয়নের সাবেক চেয়ারম্যান সিরাজুল ইসলাম, মহানগর যুব লীগের আহ্বায়ক আলম খান মুক্তি, উপজেলা আওয়ামী লীগের তথ্য বিষয়ক সম্পাদক এইচ এম মালিক ইমন, জেলা ট্রাক মালিক সমিতির সভাপতি মো. মকসুদ আহমদ, মহানগর আওয়ামী লীগ নেতা জাবেদ সিরাজ, জেলা ছাত্রলীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক রায়হান আহমদ, মহানগর স্বেচ্ছাসেবক লীগের সহ-সভাপতি ফারুক আহমদ, জেলা স্বেচ্ছাসেবক লীগের সদস্য মস্তফা উল্লা, আওয়ামী লীগ নেতা জালাল উদ্দীন, আবদুস সালাম, মুক্তার হোসেন, জুনেদ সরকার, সদর উপজেলা যুবলীগ নেতা মো. আরিফ আহমদ সুমন, ইকলাল আহমদ, জয়নাল আবেদীন, হাজী হেলাল আহমদ, স্বেচ্ছাসেবক লীগ নেতা মো. আনছার আলী মেম্বার, আবুল কালাম আজাদ, ওয়ার্ড আওয়ামী লীগ নেতা মানিক মিয়া, আবদুল গনি, আবদুল কাদির ভাসানী, জেলা ছাত্রলীগ সাবেক উপ- সম্পাদক শাহাদাত হোসেন, ছাত্রলীগ নেতা ইরন শাহ প্রমুখ।



এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

আপনার মতামত দিন

ভোট গণনায় কারচুপি ঠেকাতে ইসি’র দ্বারস্থ মোদি বিরোধী জোট

প্রেমিকার বাসা থেকে বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রের লাশ উদ্ধার

বুথ ফেরত জরিপে মোদির জয়, বিরোধীদের তোড়জোড়

কুষ্টিয়ায় ধর্ষণ মামলায় প্রধান শিক্ষকের যাবজ্জীবন

সরাসরি কৃষকদের কাছ থেকে ধান কেনার দাবিতে নাটোরে বিএনপির স্মারকলিপি

সারাদেশের পাস্তুরিত দুধ পরীক্ষার নির্দেশ হাইকোর্টের

গাজীপুর সিটির ১৪ জনকে কারণ দর্শানোর নোটিশ

রুমিন ফারহানার মনোনয়নপত্র বৈধ

হুয়াওয়ের ওপরকার বিধিনিষেধ শিথিল করছে যুক্তরাষ্ট্র

১০ গ্রামের মানুষের ভরসা একটি বাঁশের সাঁকো

দেশে ফিরেছেন ভূমধ্যসাগরে প্রাণে বেঁচে যাওয়া ১৫ বাংলাদেশি

শাহজালালে সোয়া তিন কোটি টাকার স্বর্ণ জব্দ, যাত্রী আটক

ইউরেনিয়াম উৎপাদন ৪ গুণ বাড়িয়েছে ইরান, বাড়ছে উত্তেজনা

বহিস্কৃত ছাত্রলীগ নেত্রী জারিনের আত্মহত্যার চেষ্টা!

বিশ্ববিদ্যালয় পালানো শিক্ষকরা

ধনবাড়ীতে স্বামীর নির্যাতনে অন্তসত্ত্বা গৃহবধূর মৃত্যু