রাজশাহীতে ছাত্রলীগ নেতা হত্যায় তিনজনের যাবজ্জীবন

বাংলারজমিন

স্টাফ রিপোর্টার, রাজশাহী থেকে | ১৪ মার্চ ২০১৯, বৃহস্পতিবার
রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয় স্কুল অ্যান্ড কলেজ ছাত্রলীগের সহ-সভাপতি রবিউল ইসলাম রবি হত্যা মামলায় তিনজনের যাবজ্জীবন কারাদণ্ড দিয়েছে দ্রুত বিচার ট্রাইব্যুনাল। একই সঙ্গে এই মামলার অপর সাত আসামিকে খালাস দেয়া হয়। গতকাল দুপুরে রাজশাহীর দ্রুত বিচার ট্রাইব্যুনালের বিচারক অনুপ কুমার এই রায় ঘোষণা করেন। সাজাপ্রাপ্তরা হলেন- নগরীর মেহেরচণ্ডী এলাকার হাসান হকের ছেলে সেতু ইসলাম, বাবু কসাইয়ের ছেলে বাবলা ও বাবলু ড্রাইভারের ছেলে সোহাগ। রাষ্ট্রপক্ষের আইনজীবী এন্তাজুল হক বাবু  বলেন, ‘যাবজ্জীবন কারাদণ্ড ছাড়াও প্রত্যেককে ১০ হাজার টাকা জরিমানা অনাদায়ে আরো ছয় মাসের কারাদণ্ড দেয়া য়। সাজাপ্রাপ্তদের মধ্যে সেতু ইসলাম পলাতক রয়েছেন। রায় ঘোষণার সময় সেতু ছাড়া সবাই আদালতে হাজির ছিলেন। তিনি বলেন, মেহেরচণ্ডী এলাকার এক নারীর ল্যাপটপ চুরির জের ধরে সাজাপ্রাপ্ত আসামিদের সঙ্গে রবিউল ইসলামের দ্বন্দ্ব হয়।
সে দ্বন্দ্বের জের ধরে তাকে কুপিয়ে জখম করে আসামিরা। প্রসঙ্গত, ২০১৩ সালের ১৪ই এপ্রিল বিকাল সাড়ে ৫ টার দিকে রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের চারুকলা মাঠে মেহেরচণ্ডী এলাকার নসু মিয়ার ছেলে রবিউল ইসলাম রবিকে কুপিয়ে গুরুত্বর জখম করা হয়। পরে তাকে উদ্ধার করে রাজশাহী মেডিকেল হাসপাতালে নেয়ার পথে মারা যায়। এ ঘটনার পরদিন রবির বড় ভাই শফিকুল ইসলাম বোয়ালিয়া থানায় একটি মামলা করেন। মামলায় মেহেরচণ্ডী এলাকার সেতু, বাবলা, সোহাগসহ ১২ জনের নাম উল্লেখ করে ১৮ জনকে আসামি করা হয়। বোয়ালিয়া থানার এসআই হাফিজ উদ্দিন মামলার তদন্ত শেষে ২০১৪ সালের ৫ই মে ১০ জনকে অভিযুক্ত করে আদালতে অভিযোগপত্র দেন। গত বছর মামলটি দ্রুত বিচার ট্রাইব্যুনালে স্থানান্তর করা হয়।



এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

আপনার মতামত দিন

সৌম্যই পারলেন

নিজের বাড়ি ফিরতে প্রধানমন্ত্রীর হস্তক্ষেপ চান ব্যারিস্টার তুরিনের মা

বিশ্বকাপের ২শ ছক্কা

২০ কিলোমিটার পথ পেরুতেই লাগছে ৬ ঘন্টা

টুঙ্গিপাড়ায় ৫টি মামলায় পুরুষশূন্য এলাকা

পরিবাগে বহুতল ভবনে আগুন

সাকিব কেন ২০১৯ বিশ্বকাপের সেরা তার ব্যাখ্যা দিয়েছে ট্রেলিগ্রাফ

এশিয়া-প্যাসিফিকে দ্রুত বর্ধনশীল অর্থনীতির দেশ বাংলাদেশ- এডিবি

ঝিনাইদহে ৬৩ শতক জমি নিয়ে বিরোধ তুঙ্গে

ধর্ষণ মামলা করে বিপাকে প্রতিবন্ধী যুবতীর পরিবার

যশোরে বাসচাপায় মেধাবী দুই স্কুলছাত্র নিহত

‘নাগরিকত্ব ও সম্মান নিয়ে মিয়ানমারে ফিরতে চায় রোহিঙ্গারা’

চৌদ্দগ্রামে দুই লাশ উদ্ধার

মারা গেলেন স্বামীর দেয়া আগুনে দগ্ধ সাজেনূর

লতিফ সিদ্দিকী কারাগারে

অর্থনৈতিক স্বপ্নে পৌঁছতে হলে স্বাস্থ্যসেবা নিয়ে ভাবতে হবে