স্মৃতি বিক্রি হয় যে বাজারে

রকমারি

অনলাইন ডেস্ক | ১৪ ফেব্রুয়ারি ২০১৯, বৃহস্পতিবার | সর্বশেষ আপডেট: ৬:৪৭
ভিয়েতনামের একটি বাজার, নাম ওল্ড ফ্লেমস। আট দশটা বাজারের মতো এখানেও থরে থরে সাজানো জামা, জুতা, ঘড়ি, সুগন্ধী, আয়না, চিড়–নী, বই, কার্ড, চাবির রিংসহ অনেক পণ্য। তবে পার্থক্যটা হচ্ছে এসব পণ্য সবই পুরানো, আর অনেক আবেগের। এসব পণ্য বিক্রি করেন যুবক-যুবতীরা।

এই বাজারে যেসব পণ্য বিক্রি করা হয় সেগুলো প্রেমিক প্রেমিকাদের দেয়া উপহার। কোন কারণে ভালোবাসা শুভ পরিণয় না পেলে, উপহারগুলো হয়ে পড়ে মূল্যহীন। সাবেক প্রেমিক বা প্রেমিকার দেয়া এই উপহারগুলো সাধারণত তারা আর ব্যবহার করে থাকেন না। এই উপহারগুলো ফেলে দেয়ায় অপচয় ও পরিবশে দূষণ রোধেই এই ভিন্নধর্মী বাজার।

এই বাজারের উদ্যোক্তা ডিং থ্যাং। তিনি একজন সমাজকর্মী। তিনি এই বাজারের ব্যপারে সকলকে আগ্রহী করে তোলেন। আর তারা পণ্যগুলো বিক্রির পর সেই অর্থ রেখে যান একটি বাক্সে। আর এই অর্জিত অর্থ ব্যবহৃত হয় দরিদ্র পরিবারের নব বিবাহিত দম্পতীদের সাবলম্বী করবার উদ্দেশ্যে।



এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

আপনার মতামত দিন

ভোট গণনায় কারচুপি ঠেকাতে ইসি’র দ্বারস্থ মোদি বিরোধী জোট

প্রেমিকার বাসা থেকে বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রের লাশ উদ্ধার

বুথ ফেরত জরিপে মোদির জয়, বিরোধীদের তোড়জোড়

কুষ্টিয়ায় ধর্ষণ মামলায় প্রধান শিক্ষকের যাবজ্জীবন

সরাসরি কৃষকদের কাছ থেকে ধান কেনার দাবিতে নাটোরে বিএনপির স্মারকলিপি

সারাদেশের পাস্তুরিত দুধ পরীক্ষার নির্দেশ হাইকোর্টের

গাজীপুর সিটির ১৪ জনকে কারণ দর্শানোর নোটিশ

রুমিন ফারহানার মনোনয়নপত্র বৈধ

হুয়াওয়ের ওপরকার বিধিনিষেধ শিথিল করছে যুক্তরাষ্ট্র

১০ গ্রামের মানুষের ভরসা একটি বাঁশের সাঁকো

দেশে ফিরেছেন ভূমধ্যসাগরে প্রাণে বেঁচে যাওয়া ১৫ বাংলাদেশি

শাহজালালে সোয়া তিন কোটি টাকার স্বর্ণ জব্দ, যাত্রী আটক

ইউরেনিয়াম উৎপাদন ৪ গুণ বাড়িয়েছে ইরান, বাড়ছে উত্তেজনা

বহিস্কৃত ছাত্রলীগ নেত্রী জারিনের আত্মহত্যার চেষ্টা!

বিশ্ববিদ্যালয় পালানো শিক্ষকরা

ধনবাড়ীতে স্বামীর নির্যাতনে অন্তসত্ত্বা গৃহবধূর মৃত্যু