অসম প্রেম: পর্নো ছবিতে অভিনয়ের সময় গড়ে ওঠে প্রেম

বিশ্বজমিন

মানবজমিন ডেস্ক | ৬ ফেব্রুয়ারি ২০১৯, বুধবার | সর্বশেষ আপডেট: ১১:৩৫
তাদের বয়সের ব্যবধান ৩৬ বছরের। একবার এক রগরগে পর্নোছবির শুটে তাদের দেখা। তারপর তারা প্রেমে পড়ে গেলেন। এমন সম্পর্কে পশ্চিমা দেশে যা হবার তাই হলো। তারা অবাধে একসঙ্গে দিনরাত কাটাচ্ছেন। মেতে উঠছেন যৌন সম্পর্কে। তাদেরকে অনেকে ইংরেজিতে ‘পারভার্ট’ বা কামুক বলে অভিহিত করা সত্ত্বেও তারা একজনকে ছেড়ে আরেকজন থাকেন নি। এমন এক দম্পতি হলেন ইরোটিক বা রগরগে মডেল লুউ নেসবিট (২০) ও পর্নো অভিনেতা ইগোন কোয়ালস্কি (৫৬)।
তিন বছর আগে তারা একে অন্যের প্রেমে পড়ে যান। ঘটনাটি জার্মানির।


এমন সম্পর্ক নিয়ে তাদের মধ্যে খুব একটা অস্বস্তি ছিল না। লুউ ছিলেন সব সময়ই স্বাভাবিক। কিন্তু প্রথম দিকে ইগোন কিছুটা সংশয়ে ছিলেন তাদের বয়সের ফারাকের জন্য। কিন্তু সব কিছু পিছনে ফেলে ২০১৭ সালের আগস্টে তারা চুটিয়ে ডেটিং শুরু করলেন। এর আগে থেকেই তাদের মধ্যে গড়ে উঠেছে যৌন সম্পর্ক। তাদেরকে দেখে অনেকে চোখ টাটাতে থাকেন। পরে তাদেরকে মেনে নিয়েছেন তাদের পরিবার। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে তাদেরকে যারা ‘পার্ভার্ট’ হিসেবে আখ্যায়িত করেছে। বলেছে, তাদের প্রেম সত্যিকারের নয়। অনেকে সমালোচনার তীর ছুড়েছে লুউয়ের দিকে। বলেছে, লুউ তার থেকে ৩৬ বছরের বড় ইগোনের সঙ্গে এই সম্পর্ক গড়ে তুলেছেন শুধু যৌন সম্পর্ক ও অর্থের লোভে।


লুউ বলেছেন, একটি পর্নো ছবির শুটিং করার সময় আমরা একজন আরেকজনের সঙ্গে পরিচিত হই। ওই শুটিংয়ে আমরা একজন আরেকজনের সঙ্গে সক্রিয়ভাবে শারীরিক সম্পর্কে লিপ্ত ছিলাম। আমাদের চারপাশে ছিলেন অন্যরা। ছিলেন ক্যামেরাম্যান। ফলে ওই ঘটনাটি এমন কোনো নতুন ঘটনা ছিল না। ওই বছরেই তার সঙ্গে আমি প্রেমে পড়ে যাই। কারণ, আমি যেমনটা চাই তিনি তেমনই। আমরা সব নিয়েই আলোচনা করি। তার কারিশমা আমার খুব পছন্দ। যখনই তার প্রয়োজন হয় আমি তাকে কাছে পেয়ে যাই।



এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

আপনার মতামত দিন

খালেদার মুক্তির বিষয়ে আন্তর্জাতিকভাবে পদক্ষেপ নেয়ার সিদ্ধান্ত হয়েছে: ফখরুল

ডেঙ্গুতে মৃত্যু থামছে না

উফ! কী মর্মান্তিক

‘হাত-পা বেঁধে নাইমকে শ্বাসরোধ করে খুন করি’

চামড়া বিক্রি করছেন না আড়তদাররা

ঢাকায় সড়কে বাড়ছে মৃত্যু

কাশ্মীর সংকট গুরুতর, উদ্বেগজনক

জিএম কাদেরকে সংসদে বিরোধী দলীয় নেতা হওয়ার প্রস্তাব

আয়কর বিতর্কে কলকাতার দুর্গাপূজো

ডেঙ্গু আক্রান্ত মেয়ে হাসপাতালে এদিকে ঘর পুড়ে ছাই

ওদের সব পুড়ে শেষ

‘কাজ চাই রিলিফ চাই না’

লণ্ডভণ্ড শিডিউল ঠিক হয়নি এখনো

৭ বছর পর পরিবারকে ফিরে পেয়ে আবেগাপ্লুত খাদিজা

ডেঙ্গু কেড়ে নিয়েছে কিশোরগঞ্জের ছয় প্রাণ

প্রশ্নকারী মডারেটর পরীক্ষক খুঁজছে পিএসসি