যানজটে নাকাল নগরবাসী

অনলাইন

স্টাফ রিপোর্টার | ২০ জানুয়ারি ২০১৯, রোববার, ১২:৪৮ | সর্বশেষ আপডেট: ১২:৫৮
যানজটে অতিষ্ঠ রাজধানীবাসী। বিশেষ করে সকালে যানজটের কবলে পড়ে ভোগান্তিতে পড়ছেন অফিসগামীরা। ঘণ্টার পর ঘণ্টা সময় কাটছে গাড়িতে। অনেকে পায়ে হেঁটে মাইলে পর মাইল পাড়ি দিচ্ছেন গন্তব্যে। রাজধানীর এ চিত্র নগরবাসীর অনেকটা চেনা। তবে সড়কে শৃঙ্খলা ফেরাতে ‘ট্রাফিক শৃঙ্খলা পক্ষ’ শুরু হওয়ার পর এ দুর্ভোগ চরমে ওঠেছে। আজও রোববার রাজধানীর বিভিন্ন রুটে একই চিত্র দেখা গেছে।

মহানগীর ব্যস্ততম সড়ক আবদুল্লাহপুর থেকে ফার্মগেট রুটে দৃশ্যত যান চলাচল যেন বন্ধ হয়ে যায়।
প্রচন্ড যানজটের কারণে পরিস্থিতি সামাল দিতে ট্রাফিক ব্যবস্থা নিস্ক্রিয় হয়ে পড়ে। বিমানবন্দর, খিলক্ষেত, শেওড়া এলাকায় দেখা গেছে, গাড়ির প্রচন্ড জটলা। আর্মি স্টেডিয়ামে এসে প্রায় এক ঘণ্টার মতো সময় আটকে থাকতে  দেখা যায় সব ধরণের যানবাহন। এতে যানজটের দীর্ঘ লাইন গিয়ে পৌঁছে প্রায় বিমানবন্দর পর্যন্ত। একই অবস্থা দেখা গেছে বনানীর সৈনিক ক্লাব, চেয়ারবাড়ী, জাহাঙ্গীরগেট, প্রধানমন্ত্রী কার্যালয়ের সামনে ও বিজয় স্বরণীর সিগন্যালে। দীর্ঘ সময় যানজটে বসে এসব সিগন্যালে ছাড়িয়ে আসতে না আসতেই আবার ভয়াবহ যানজটের কবলে পড়তে হয়েছে ফার্মগেট-খামারবাড়ির লিংক রোডে এসে। এই অবস্থাতে গাড়ির অপেক্ষায় বসে না থেকে অফিসগামী যাত্রীদেরকে দীর্ঘপথ পায়ে হেঁটে অফিসে যেতে দেখা গেছে। ইদানিং হঠাৎ করে যানজটের মাত্রা বেড়ে যাওয়ায় অসহনীয় দুর্ভোগে পড়েছেন নগরবাসী। ক্রমেই নাকাল হয়ে ওঠছে নগরে বসবাসরত মানুষের জীবন।
এ রুটের যাত্রী মুসা বিন মোহাম্মদ জানান, এয়ারপোর্ট থেকে কাওরান বাজার আসতে তার আধাঘন্টা সময় লাগে। যেদিন যানজটের কবলে পড়েন সেদিন ৪৫-৫০ মিনিট। তবে গত চার পাঁচ দিন ধরে তার সময় লাগছে আড়াই ঘন্টা।
 
এদিকে রাজধানীর অন্যান্য রুটেও একই অবস্থা। মোহাম্মদপুর থেকে মতিঝিলগামী  গণপরিবহনও দীর্ঘ যানজটে পড়ছে। মোহাম্মদপুর থেকে আসা বাসগুলোকে আজ সকাল থেকেই সংসদ ভবেনের সামনে মানিক মিয়া এভিনিউ দিয়ে যেতে দেয়া হচ্ছে না। গাবতলী বা মিরপুর-১ হয়ে আসা গণপরিবহণেরও একই অবস্থা। আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর সদস্যরা এসব রুটের গণপরিবহন মানিক মিয়া এভিনিউতে ঢুকতে বাধা দিয়ে নিউমার্কেট অভিমুখে যেতে নির্দেশ দিচ্ছেন। ফলে ফার্মগেট বা কাওরান বাজারের যাত্রীরা পায়ে হেঁটেই রওনা দিচ্ছেন। আবার কেউ কেউ বাসে করে পান্থপথ হয়ে কাওরানবাজার পৌঁছাচ্ছেন। এ রুটের স্বাধীন পরিবহণের একজন যাত্রী জানান, কাওরানবাজার আসতে তার সময় লেগেছে দুই ঘন্টা। যেখানে সর্বোচ্চ ২৫-৪০ মিনিট লাগার কথা।

নাজমুস সাকিব নামে এক যাত্রী তার ফেসবুক ওয়ালে লেখেন, টেকনিক্যাল থেকেই জ্যাম ঠেলা শুরু। আসাদ গেট থেকে কোনো গাড়ি ফার্মগেট যেতে দেয়া হচ্ছে না। ঘুরে যেতে বলা হলো। কেন? পুলিশ বললো: মেট্রোরেল হলে যায়েন। পুরো পথ হেঁটে ১ ঘন্টা দেরিতে অফিসে ঢুকলাম।
ফার্মগেটের সিগন্যাল পার হয়ে দীর্ঘ কাজী নজরুল ইসলাম এভিনিউয়ে দীর্ঘ সময় জ্যামে থাকা বিআরটিসি ডাবল ডেকার বাসের এক হেলপার বলেন, প্রতিদিন এই অসহনীয় যন্ত্রণা আর ভালো লাগে না। তিনি বলেন, মিরপুর-১ থেকে মতিঝিল দুই ট্রিপ মারতেই দিন শেষ। জ্যামের কারণে যাত্রীও পাওয়া যায় না। তাই দিন শেষে স্যারদের বকাবাজি শুনতে হয়।



এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

আপনার মতামত দিন

আইএস গার্ল শামিমাকে নিয়ে ঢাকায় চিঠি চালাচালি

অমর একুশে ও আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস আজ

ভারতের নাগরিকত্ব বিল কেন?

থাইল্যান্ডে বাংলাদেশি পরিবার নিখোঁজ

পর্নোগ্রাফির বিরুদ্ধে যুদ্ধ, বাংলাদেশে ২০,০০০ সাইট বন্ধ

পদকজয়ীদের অনুসরণে আগামী প্রজন্ম নিজেদের গড়ে তুলবে: প্রধানমন্ত্রী

বিএনপির আলোচনা সভায় হট্টগোল

নাইকো মামলার শুনানি পেছালো

বইমেলায় কেনাকাটার ধুম

ইমরানের পর মোদিও

সৌদিকে পরমাণু প্রযুক্তি দিচ্ছেন ট্রাম্প!

ফকির আলমগীরের ৬৯তম জন্মদিন আজ

সাংবাদিকদের আদালত কক্ষে প্রবেশ নিশ্চিত করতে হবে- প্রধান বিচারপতি

চতুর্থ ধাপে ১২২ উপজেলায় ভোট ৩১শে মার্চ

প্রেমিকার ছেলের ছুরিকাঘাতে প্রেমিক নিহত

কার্যকর ওয়ান স্টপ সার্ভিস দেখতে চায় ডিসিসিআই