রাবি শিক্ষার্থীকে পিটিয়ে মাথা ফাটালো ছাত্রলীগ

বাংলারজমিন

রাবি প্রতিনিধি | ৭ ডিসেম্বর ২০১৮, শুক্রবার
রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের (রাবি) এক শিক্ষার্থীকে পিটিয়ে মাথা ফাটিয়ে দিয়েছে জোহা হল শাখা ছাত্রলীগের নেতাকর্মীরা। বুধবার রাত সাড়ে ১০টার দিকে বিশ্ববিদ্যালয়ের শহীদ শামসুজ্জোহা হলের অতিথি কক্ষে এ ঘটনা ঘটে। মারধরের শিকার তারিক হাসান হিসাববিজ্ঞান ও তথ্য ব্যবস্থাপনা বিভাগের দ্বিতীয় বর্ষের শিক্ষার্থী এবং ওই হলের আবাসিক শিক্ষার্থী। বর্তমােেন তিনি রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের (রামেক) ৮ নম্বর ওয়ার্ডে ভর্তি রয়েছেন। প্রত্যক্ষদর্শী সূত্রে জানা যায়, হিসাববিজ্ঞান ও তথ্য ব্যবস্থা বিভাগের প্রথম বর্ষের শিক্ষার্থী ইমামুল ও একই বিভাগের দ্বিতীয় বর্ষের শিক্ষার্থী তারিক হাসানের মধ্যে টাকা ধার দেয়া নিয়ে কথা কাটাকাটি থেকে হাতাহাতির সৃষ্টি হয়। পরে ইমামুল বিষয়টি জোহা হল শাখা ছাত্রলীগকে জানালে জোহা হলের দায়িত্বপ্রাপ্ত নেতা ও রাবি শাখা ছাত্রলীগের সহ-সভাপতি গুফরান গাজীসহ কয়েকজন নেতাকর্মী মিলে তারিককে বেধড়ক মারধর করে। মারধরের এক পর্যায়ে মোবাইল দিয়ে তারিকের মাথায় আঘাত করে গুফরান গাজী। এতে তারিকের মাথা ফেটে যায়।
এ বিষয়ে অভিযুক্ত ছাত্রলীগ নেতা গুফরান গাজী বলেন, ‘আমি নিজে মারধর করিনি। তারা নিজেরা নিজেদের মধ্যে মারামারি করেছে। এতে তাদের একজনের মাথা ফেটে গেছে।’ হল প্রাধ্যক্ষ ড. জুলকার নায়েন বলেন, ‘হলে মারধরের ঘটনার কথা শুনেছি। বিষয়টি তদন্ত করে দোষীদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।




এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

আপনার মতামত দিন

সরকারের অবহেলা খতিয়ে দেখবে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রণালয়ের তদন্ত কমিটি

মাকে খুঁজছে অবুঝ সানিন

যুক্তরাষ্ট্র চাইলে আরেকটি ‘কিউবার মিসাইল সংকটের’ জন্য প্রস্তুত রাশিয়া

বাড়াবাড়ি করলে ভারতের বিরুদ্ধে যুদ্ধের নির্দেশ

টার্গেটে বিশ্বের সব থেকে বড় বাংলা ব্লগ

সিলিন্ডার গ্যাসের বিকল্প খুঁজছি: কাদের

ডিএনএ টেস্টের জন্য রক্ত সংগ্রহ করছে সিআইডি

গ্যাস সংকটে চকবাজারের বাসিন্দারা

ইসলামিক স্টেটের ১৩ সন্ত্রাসীকে আটক করেছে ইরানী গোয়েন্দারা

৩০শে ডিসেম্বর বাংলাদেশে কোনো নির্বাচন হয়নি

বাদ জুমা অগ্নিকাণ্ডে নিহতদের জন্য মোনাজাত

‘আইএস-বধূ’ শামিমার নাগরিকত্ব বাতিলের সমালোচনায় করবিন

‘চুড়িহাট্টার পোড়া ভবনে কেমিক্যাল ছিল’

টেকনাফে শীর্ষ ডাকাত মাষ্টার জুবাইর কথিত বন্দুক যুদ্ধে নিহত

‘এর জন্য অপেক্ষাতো করতেই হবে’

কোথাও বাবাকে খুঁজে পাননি নাসরিন