বাম গণতান্ত্রিক জোটের নির্বাচন কমিশন ঘেরাও পণ্ড

পুলিশের লাঠিচার্জে জোনায়েদ সাকি সহ আহত অর্ধশত (ভিডিওসহ)

অনলাইন

স্টাফ রিপোর্টার | ২০ সেপ্টেম্বর ২০১৮, বৃহস্পতিবার, ২:২৮ | সর্বশেষ আপডেট: ৫:০৭
ছবিঃ নাসির উদ্দিন
বাম গণতান্ত্রিক জোটের নির্বাচন কমিশন ঘেরাও কর্মসূচি পুলিশের বাধায় পণ্ড হয়ে গেছে। পূর্ব ঘোষিত কর্মসূচি অনুযায়ী সকাল ১১টায় জাতীয় প্রেসক্লাবের সামনে জমায়েত হয় নেতা-কর্মীরা। সেখানে সংক্ষিপ্ত সমাবেশ শেষে নির্বাচন কমিশন ঘেরাওয়ের উদ্দেশে যাত্রা করে। মৎস্য ভবন অতিক্রম করার পরই পুশিল তাদের বাধা দেয়। এ বাধা অতিক্রম কের তারা এগিয়ে যায়। কাওরান বাজার সিগন্যালে এলে পুলিশ তাদের বাধা দেয়। এসময় তারা এগিয়ে যেতে চাইলে পুলিশ লাঠিচার্জ করে। এতে গণসংহতি আন্দোলনের প্রধান সমন্বয়ক জোনায়েদ সাকিসহ অর্ধশতাধিক লোক আহত হন। সেখানে তারা কিছুক্ষণ অবস্থান করে। পরে সেখানেই সংবাদ সম্মেলন করেন। সংবাদ সম্মেলনে বলা হয়, আগামী ১১ই অক্টোবর সচিবালয় ঘেরাও করা হবে। যে কোন মূল্যে শেখ হাসিনাকে পদত্যাগে বাধ্য করা হবে।

নির্বাচন কমিশন ঘেরাওয়ে নেতৃত্ব দেন- সিপিবি’র সভাপতি মুজাহিদুল ইসলাম সেলিম, বাম গণতান্ত্রিক জোটের সমন্বয়ক ও বিপ্লবী ওয়ার্কার্স পার্টির সাধারণ সম্পাদক সাইফুল হক, বাসদ-এর সাধারণ সম্পাদক খালেকুজ্জামান, সিপিবি’র সাধারণ সম্পাদক মো. শাহ আলম, বাসদ (মার্কসবাদী)’র কেন্দ্রীয় নেতা শুভ্রাংশু চক্রবর্তী, গণসংহতি আন্দোলনের প্রধান সমন্বয়ক জোনায়েদ সাকি, ইউনাইটেড কমিউনিস্ট লীগের সাধারণ সম্পাদক মোশাররফ হোসেন নান্নু, গণতান্ত্রিক বিপ্লবী পার্টির সাধারণ সম্পাদক মোশরেফা মিশু ও সমাজতান্ত্রিক আন্দোলনের আহ্বায়ক হামিদুল হক।  লাঠিচার্জের ব্যাপারে পুলিশের তেজগাঁও জোনের এডিসি বলেন, আমরা শান্তিপূর্নভাবে তাদের গতিরোধ করার চেষ্টা করেছি। কিন্তু মিছিল থেকে আমাদের উপর হামলা চালালে আমরা লাঠিচার্জ করতে বাধ্য হই।




এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

পাঠকের মতামত

**মন্তব্য সমূহ পাঠকের একান্ত ব্যক্তিগত। এর জন্য সম্পাদক দায়ী নন।

sheikhabdulalim

২০১৮-০৯-২০ ০৮:৫০:০৬

সাদারন মানুষ কেনো বিপদে পরবে!

Saurav

২০১৮-০৯-২০ ০৮:৩৮:১২

তীব্র নিন্দা জানাই

S.MOSHIUR Rahman.

২০১৮-০৯-২০ ০৬:৫২:০৬

তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানাই

syed sarwar reza

২০১৮-০৯-২০ ০২:৪০:২৪

মতামত দিয়ে কি হবে। যে দেশে মানুষ নিরাপদ বসবাস করতে পারে না। যে দেশে মানুষ প্রতিনিয়তই গুম, খুনের শিকার হচ্ছে। যে দেশে গায়বী মামলা দিয়ে বিরুদী মতাদর্শীদের হয়রানি ও কারাবরণ করতে সেই দেশে কি মতামত দিবেন। একটা স্বাধীন রাষ্টে যদি মানুষ কথা বলতে পারে না, তার ভোটের অধিকার পায় না সেই দেশের ভবিষ্যত কি হবে আমরা তা কিছুটা হলে ও উপলব্ধি করতে পারছি। আপনারা গন্যমাধ্যমের প্রতি একটা চাওয়া দেশের প্রতিটি জনগনের ভোটের অধিকার রক্ষায় অগ্রনী ভূমিকা নেন। নইলে এই দেশটা ও দেশের জনগন নিশ্চিত অন্ধকারের দিকে ধাবিত হবে। ধন্যবাদ

জাকিরুল মোমিন

২০১৮-০৯-২০ ০২:১৮:২৬

বামজোটকেও বাধা দিয়ে সরকার বি এন পিকে সাবধান করলো যে আমরা বাম দলকেও ছাড়িনা সুতারং বি এন পি রাস্তায় নামলে খবর আছে। এটা হলো ঝিকে মেরে বৌকে শিক্ষা দেয়া।

আপনার মতামত দিন

এবার মালিবাগে পুলিশকে লক্ষ্য করে হামলা

বগুড়ায় নুরের ওপর হামলা

ধানের দাম নেই, চালে ছাড় নেই

বৃষ্টিতেও দৃঢ় মনোবল টাইগারদের

খালেদার মামলায় আদালত স্থানান্তরের বৈধতা নিয়ে রিট

তরুণ সাংবাদিক ফাগুনের লাশ উদ্ধারের ঘটনায় হত্যা মামলা

ট্রাভেল পারমিটে কড়াকড়ি জটিলতার আশঙ্কা

গতবছর ফেসবুকের কাছে ১৯৫ ব্যবহারকারীর তথ্য চেয়েছিল বাংলাদেশ

রঙ লাগিয়ে ঈদে সড়কে নামছে লক্করঝক্কড় বাস

তারেকের স্মৃতি হাতড়ে ফেরেন নুরুন নাহার

রাজাকারদের তালিকা সংরক্ষণের সুপারিশ

মামলার আগেই গ্রেপ্তার, শাহপরাণে তোলপাড়

ইতালিতে প্রদর্শিত হলো ড. ইউনূসের জীবনীভিত্তিক অপেরা

৩০শে মে সন্ধ্যায় শপথ নেবেন মোদি

পদত্যাগ করলেন মহারাষ্ট্র কংগ্রেস প্রধান

চিকিৎসকদের আরো দায়িত্বশীল হওয়ার আহ্বান ডা. এ আর খানের