মজুরি কমিশন বাস্তবায়নসহ ৬ দফা দাবি ৯ পাটকল শ্রমিকদের লাগাতার কর্মসূচি

বাংলারজমিন

স্টাফ রিপোর্টার, খুলনা থেকে | ১৫ সেপ্টেম্বর ২০১৮, শনিবার
মজুরি কমিশন বাস্তবায়ন, পাট ক্রয়ের অর্থ বরাদ্দসহ ৬ দফা বাস্তবায়নের দাবিতে খুলনা অঞ্চলের রাষ্ট্রায়ত্ত ৯ পাটকলের শ্রমিকরা লাগাতার আন্দোলন কর্মসূচি শুরু করেছে। দাবি আদায় না হওয়া পর্যন্ত রাজপথে থাকার কথা জানা গেছে। আগামী ৫ই অক্টোবর পর্যন্ত টানা আন্দোলন করবে খুলনা অঞ্চলের ৯ পাটকলের শ্রমিকরা। আন্দোলনের মধ্যে রাজপথ, রেলপথ অবরোধ, লাঠি মিছিল, মিলের প্রশাসনিক ভবন ঘেরাও রয়েছে।
রাষ্ট্রায়ত্ত পাটকল শ্রমিকদের মজুরি কমিশন বাস্তবায়ন, জাতীয়করণ বিল-২০১৮ বাতিল, পাট ক্রয়ের অর্থ বরাদ্দ, শ্রমিক কর্মচারীদের বকেয়া মজুরি, বেতন বদলি শ্রমিক স্থায়ীকরণ, অবসরকৃত/চাকরিচ্যুত শ্রমিক কর্মচারীদের পাওনা পি,এফ, গ্রাচ্যুইটি পরিশোধসহ ১১ দফা দাবিকে এখন ৬ দফা দাবিতে নামিয়ে এনেছে। শ্রমিকদের প্রাণের দাবি মজুরি কমিশন ঘোষণা ও তার বাস্তবায়ন। এ আন্দোলনের ডাক দিয়েছে বাংলাদেশ রাষ্ট্রায়ত্ত পাটকল সিবিএ, নন-সিবিএ পরিষদ নামে শ্রমিক সংগঠন। গতকাল খুলনার খালিশপুর, ক্রিসেন্ট, প্লাটিনাম, দৌলতপুর, স্টার, আটরা শিল্প এলাকার ইস্টার্ন, আলিম ও নওয়াপাড়া শিল্প এলাকার কার্পেটিং ও জেজেআই মিলের শ্রমিকরা সমাবেশ ও বিক্ষোভ মিছিলে অংশগ্রহণ করে।
শ্রমিকদের ডাকা কর্মসূচির মধ্যে ১৪ই সেপ্টেম্বর পিপলস গোল চত্বরে শ্রমিক জনসভা, ১৬ই সেপ্টেম্বর পাট পি অধ্যুষিত জেলাগুলোর জেলা প্রশাসকের নিকট স্মারকলিপি প্রদান, ১৮ই সেপ্টেম্বর লাল পতাকা মিছিল, ২০শে সেপ্টেম্বর রাজপথে লাঠি মিছিল, ২১শে সেপ্টেম্বর এক সঙ্গে নরসিংদী ও খালিশপুরে শ্রমিক সমাবেশ, ২২শে সেপ্টেম্বর বাংলাদেশ জুট মিলের সামনে গেটসভা ও শ্রমিক বিক্ষোভ, ২৩শে সেপ্টেম্বর হাফিজুট মিলে সারা দেশের পাটকল শ্রমিক নেতাদের বৈঠক, ২৪শে সেপ্টেম্বর আমিন জুট মিলে একই কর্মসূচি, ২৭শে সেপ্টেম্বর রাজপথে কফিন মিছিল, ৩০শে সেপ্টেম্বর সকাল ৮ থেকে বেলা ২টা পর্যন্ত রাজপথ-রেলপথ অবরোধ, ২রা অক্টোবর আবারো রাজপথ-রেলপথ অবরোধ, ৫ই অক্টোবর পিপলস গোল চত্বরে শ্রমিক জনসভা ও পরবর্তী কর্মসূচি ঘোষণা করবে বলে শ্রমিক নেতা মো. সোহরাব হোসেন জানান।

শ্রমিকরা জানায়, মিলে উৎপাদনের জন্য পাট নেই, মজুরি নেই। পাটকল নিয়ে আর কতবার রাজপথে নামবে তারা। এ কথাগুলো জানান মিলের সিনিয়র শ্রমিক আবদুল মালেক। গত ৩০ বছর ক্রিসেন্ট জুট মিলের শ্রমিক হিসেবে কাজ করছেন। নিয়মিত মজুরি কবে পেয়েছেন তা ভুলে গেছেন তিনি। তাই অবিলন্বে পাট ক্রয়ের মাধ্যমে মিলের উৎপাদনের চাকা আবারো ঠিক রাখার দাবি জানিয়েছেন তিনি।
প্লাটিনাম জুট মিলের শ্রমিক খলিলুর রহমান জানান, সরকার মজুরি কমিশন ঘোষণা দিয়ে কেন বাস্তবায়ন করছেন না। অবিলন্বে তাদের মজুরি কমিশন বাস্তবায়ন করার জোর দাবি জানিয়েছেন।



এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

আপনার মতামত দিন

‘হামলা চালিয়েছে পুলিশ নির্বাচনের পরিবেশ নষ্ট করছে’

স্পিকারের ঘোষণা: পার্লামেন্টে সংখ্যাগরিষ্ঠতা হারিয়েছেন রাজাপাকসে

বিনা উস্কানিতে পুলিশের ওপর হামলা:ডিসি মতিঝিল

একপক্ষ নির্বাচন করবে, আর আমরা আদালতে আসবো তা হতে পারে না

ছররা গুলির স্প্লিন্টারে আহত মানবজমিন প্রতিবেদক রুদ্র মিজান

‘নয়া পল্টনে সরকারের পরিকল্পিত হামলা’

ফের হেলমেট বাহিনী!

গণভবন ঘিরে নেতাকর্মী ও সমর্থকদের ঢল

রোহিঙ্গাদের ওপর নৃশংসতা ক্ষমার অযোগ্য

তৃতীয় দিনেও বিএনপির মনোনয়নপত্র কিনতে উপচে পড়া ভিড়

পশ্চিমবঙ্গের নাম বাংলা করা নিয়ে ভারতের পররাষ্ট্র মন্ত্রকের আপত্তি

সরকারী টাকায় আওয়ামী লীগের নির্বাচনী প্রচার বন্ধের দাবি বিএনপির

২৮ বছর বয়সেই ফোর্বস ম্যাগাজিনে নাম!

ট্রেন চলাচল বন্ধ

কক্সবাজারে উজ্জ্বীবিত বিএনপি

ডিসেম্বরে শুনানি শেষে চূড়ান্ত রায় শ্রীলঙ্কা সুপ্রিম কোর্টের