নারী মাদক ব্যবসায়ীর মরদেহ উদ্ধার

বাংলারজমিন

বগুড়া প্রতিনিধি | ১৩ সেপ্টেম্বর ২০১৮, বৃহস্পতিবার
পুলিশের তালিকাভুক্ত নারী মাদক ব্যবসায়ী রিনা বেগমের (৩৫) মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ।
বুধবার দুপুর ১টার দিকে বগুড়া শহরতলির মাটিডালী এলাকায় করতোয়া নদীর ব্রিজের নিচ থেকে মরদেহটি উদ্ধার করা হয়। বগুড়া সদর থানার পুলিশ পরিদর্শক (তদন্ত) মোহাম্মদ কামরুজ্জামান জানান, বনানী-মাটিডালী দ্বিতীয় বাইপাস মহাসড়কে করতোয়া ব্রিজের নিচে কচুরিপানার মধ্যে মরদেহ দেখে স্থানীয়রা থানায় খবর দেয়। পরে পুলিশ গিয়ে রিনা বেগমের মরদেহ উদ্ধার করে। তাকে গত মঙ্গলবার রাতে শ্বাসরোধ করে হত্যা করা হয়। পরে নদীতে কচুরিপানার মধ্যে ফেলে রেখে যায় দুর্বৃত্তরা। নিহতের শরীরে কোনো আঘাতের চিহ্ন পাওয়া যায়নি। তিনি আরো জানান, মরদেহ উদ্ধারের পর তা ময়নাতদন্তের জন্য বগুড়া শহীদ জিয়াউর রহমান মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের মর্গে পাঠানো হয়েছে।
রিনার স্বামী মুক্তার হোসেন জানান, মঙ্গলবার রাত ১২টার দিকে পুলিশ পরিচয়ে সাদা পোশাকে একদল ব্যক্তি বাড়ি থেকে রিনাকে ধরে নিয়ে যায়।
এরপর সকালে থানা এবং ডিবি অফিসে খোঁজ নিতে গেলে পুলিশ গ্রেপ্তারের বিষয়টি অস্বীকার করে।
এদিকে রিনার স্বামী মুক্তার হোসেনের অভিযোগ অস্বীকার করে বগুড়া সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) এসএম বদিউজ্জামান জানান, পুলিশের ভুয়া পরিচয়ে অন্য কেউ রিনাকে তুলে নিয়ে যেতে পারে। ময়নাতদন্তের রিপোর্ট পাওয়া গেলে মৃত্যুর কারণ নিশ্চিত হওয়া যাবে।
উল্লেখ্য, গত ২৪শে জুলাই সদর উপজেলার নামুজায় এবং ২৬শে জুলাই শহরতলির কৈচড় এলাকার মাঠ থেকে দুই নারীর মরদেহ উদ্ধার করেছিল পুলিশ। তাদেরকে ধর্ষণের পর শ্বাসরোধ করে হত্যা করা হয় বলে ময়নাতদন্ত রিপোর্টে উল্লেখ করা হয়। আজ পর্যন্ত তাদের পরিচয় উদঘাটন এবং হত্যার সঙ্গে জড়িতদের গ্রেপ্তার করতে পারেনি পুলিশ।



এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

আপনার মতামত দিন

রংপুরেই এরশাদের সমাধি

লক্ষাধিক বিও অ্যাকাউন্ট বন্ধ

যে কারণে পুঁজিবাজারে পতন থামছে না

মিন্নি গ্রেপ্তার

হাসপাতালে হাসপাতালে ডেঙ্গু রোগীদের ভিড়

ছুরি নিয়ে কীভাবে গেল তদন্ত করে ব্যবস্থা নেয়া হবে

সব আদালতে নিরাপত্তা বাড়ানো হবে

ঘাতকের স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি, মামলা ডিবিতে

উদ্যোক্তা সৃষ্টিতে উপজেলা পর্যায়ে কারিগরি প্রতিষ্ঠান গড়ে তোলা হচ্ছে

বাসর হলো না নবদম্পতির

১১ কোম্পানির দুধে সিসা ও ক্যাডমিয়াম

চীনা ডেমু ট্রেন আর কেনা হবে না

বিচারকদের নিরাপত্তা চেয়ে রিট

আসাদকে পাল্টা জবাব আরিফের

৩ মাস পর কর্মকর্তাদের বিরুদ্ধে অ্যাকশন শুরু

বাঁচানো গেল না সার্জেন্ট কিবরিয়াকে