স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী বলেছিলেন,'সেফলি বের হয়ে যাওয়ার ব্যবস্থা করছি'

অনলাইন

স্টাফ রিপোর্টার | ২৩ জুলাই ২০১৮, সোমবার, ২:১৩ | সর্বশেষ আপডেট: ৬:১২
দৈনিক আমার দেশের ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক মাহমুদুর রহমানের উপর হামলার সময় কুষ্টিয়ায় পুলিশের দায়িত্বে যিনি ছিলেন তিনি আওয়ামী লীগের চেয়েও একজন ভয়ংকর সন্ত্রাসী বলে মন্তব্য করেছেন বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর। আজ সোমবার দুপুরে জাতীয় প্রেসক্লাবের সামনে বাংলাদেশ ফেডারেল সাংবাদিক ইউনিয়ন (বিএফইউজে) এবং ঢাকা সাংবাদিক ইউনিয়ন (ডিইউজে) আয়োজিত কুষ্টিয়ায় আদালত চত্বরে দৈনিক আমার দেশ পত্রিকার সম্পাদক মাহমুদুর রহমানের উপর ছাত্রলীগ-যুবলীগের হামলার প্রতিবাদে বিক্ষোভ সমাবেশে তিনি এসব কথা বলেন। মির্জা আলমগীর বলেন, মাহমুদুর রহমানের ওপর হত্যার উদ্দেশ্যে যে আক্রমণ হয়েছে আমি গতকাল তার তীব্র নিন্দা জানিয়েছি। গতকালই আমি বলেছি এই হামলা পূর্ব পরিকল্পিত। ঘটনার সময় আমি একটা সভায় ছিলাম। তখনই জানতে পেরেছি হামলার ঘটনা। হামলার আগে আমি স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীকে ফোন করেছিলাম মাহমুদুর রহমানের নিরাপত্তার ব্যাপারে।  তিনি আমাকে আশ্বস্ত করে বলেন - আমি দেখছি, সেফলি বের হয়ে যাওয়ার ব্যবস্থা করছি। তারপরও আমাদের দুর্ভাগ্য, পুলিশের উপস্থিতিতে যেভাবে মাহমুদুর রহমানকে হত্যার উদ্দেশ্যে আক্রমণ করা হয়েছে, আহত করা হয়েছে এটা ইদানিং কালের নজিরবিহীন ঘটনা।

তিনি বলেন, গত কয়েক বছর ধরে আওয়ামী লীগ মুক্তচিন্তার ওপর আঘাত করে চলেছে।  গণমাধ্যম কর্মী যারা স্বাধীন চিন্তা করেন তাদের ওপর পরিকল্পিতভাবে আক্রমণ করছে, ধ্বংস করে দিতে চাচ্ছে।
কোনও রকম স্বাধীন মতপ্রকাশের তারা ঘোর বিরোধী। এরা ছদ্মবেশে ভিন্ন পরিচয়ে একদলীয় শাসনব্যবস্থা প্রতিষ্ঠিত করতে চায়। এই জন্য  তারা মুক্ত গণমাধ্যম ধ্বংস করতে চায়। ১৯৭১ সালে যেই যুদ্ধ করা হয়েছে গণতন্ত্র প্রতিষ্ঠার জন্য, আজকে তারা এই গণতন্ত্রকে ধ্বংস করছে। তারা পরিকল্পিতভাবে বিরোধী দলের নেতাকর্মীদের ধ্বংস করছে।

এসময় মির্জা ফখরুল আরও বলেন, আমি আবারও মাহমুদুর রহমানের ওপর আক্রমণের তীব্র নিন্দা জানাচ্ছি, ধিক্কার জানাচ্ছি। যারা এর জন্য দায়ী তাদের অবিলম্বে গ্রেপ্তার করে বিচারের আওতায় আনার দাবি জানাচ্ছি।

বিএফইউজের সভাপতি রুহুল আমিন গাজীর সভাপতিত্বে বিক্ষোভ সমাবেশে বিএনপির ভাইস-চেয়ারম্যান শওকত মাহমুদ, ডা. এ জেড এম জাহিদ হোসেন, শিক্ষা বিষয়ক সম্পাদক ওবায়দুল ইসলাম, গণশিক্ষা বিষয়ক সম্পাদক অধ্যক্ষ সেলিম ভূইয়া, ঢাকা সাংবাদিক ইউনিয়ন(ডিইউজ)সভাপতি কাদের গনি চৌধুরী, সাধারণ সম্পাদক শহিদুল ইসলাম প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।



এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

পাঠকের মতামত

**মন্তব্য সমূহ পাঠকের একান্ত ব্যক্তিগত। এর জন্য সম্পাদক দায়ী নন।

yeasin

২০১৮-০৭-২৩ ০৯:৩০:৩৬

পুলিশের সহযোগিতা মাহমুদুর রহমানকে আহত করা হয়েছে। আজ বাংলাদেশে আইনের শাসন নাই বিদায় এ আবস্থা।আার সরকার টিবিতে মিডিয়াতে বড বড কথা িবচার বিভাগ নাকি সাদীন

আবুল কাশেম

২০১৮-০৭-২৩ ০৭:১৫:০০

আমার ধারনা স্বরাষ্ট্র মন্ত্রী নির্দেশ যথা সময়ে দেন নি

Tevaski

২০১৮-০৭-২৩ ০২:৪৮:০০

এরকম বয়সি একটা মানুষকে দীর্ঘকাল ধরে অন্যায় ভাবে জেলে রেখে অত্যাচার নির্যাতন করে স্লো পয়জন দিয়ে ছেড়ে দেয়া হয়েছে।না হয় মরতে একটু সময়ই লাগছে।তর যেন সইছে না.. আবার ক্রস ফায়ারেও নিস্পত্তি করা মানানসই না! অগত্যা ছাত্রলীগ নামের হাতিয়ার দিয়েই ব্যবস্থা।আপনারা লক্ষ্য করেছেন নিশ্চই সোস্যাল মিডিয়ার কল্যানে দেশের আবাল বৃদ্ধ বনিতা কারো বাদ নেই জানতে আদালত চত্বরে এরকম একজন সিনিয়র সিটিজেন একটি পরিচিত উগ্র জঙ্গি সংঘঠন দ্বারা ভীতিকর ভাবে অবরুদ্ধ রয়েছে।অথচ রাষ্ট্রের দায়িত্ব সাব্যাস্তে যারা তারা কিছু জানে না হয়ত! একটু পরে বা একদিন পরে একটা জারজীয় ব্রিফীং আসবে দেশবাসির কাছে ওরা ছাত্রলীগের কেউ না.....

ইনাম

২০১৮-০৭-২৩ ০২:৪৩:৪৫

স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী প্রতিশ্রুতি দিয়েছেন আশস্ত করেছেন সবেই ঠিক আছে কিন্তু ছাত্রলীগের হাত যে অনেক লম্বা।

আপনার মতামত দিন

নিজ আসন থেকেই প্রচার শুরু করছেন শেখ হাসিনা

নির্বাচন পর্যবেক্ষণে আগ্রহী ৩৪,৬৭১ স্থানীয় পর্যবেক্ষক

উচ্চ আদালতে হাজারো জামিনপ্রার্থী, দুর্ভোগ

পরিস্থিতির উন্নতি না হলে নির্বাচন নিয়ে প্রশ্ন উঠবে

হাইকোর্টেও বিভক্ত আদেশ

সব দলকে অবাধ প্রচারের সুযোগ দিতে হবে

পাঁচ রাজ্যে বিজেপির ভরাডুবি

নোয়াখালী ও ফরিদপুরে নিহত ২

ভুলের খেসারত দিলো বাংলাদেশ

চার দলের প্রধান লড়ছেন যে আসনে

কোনো সংঘাতের ঘটনা ঘটেনি

সিলেটে মাজার জিয়ারতের মাধ্যমে ঐক্যফ্রন্টের নির্বাচনী প্রচারণা শুরু আজ

দেশজুড়ে ধরপাকড়

টেকনোক্র্যাট মন্ত্রীদের চার মন্ত্রণালয়ের দায়িত্ব তিন জনের হাতে

আবারো বন্ধ হলো ৫৪টি নিউজ পোর্টাল

নারী প্রার্থীদের অঙ্গীকার