উৎসবে ভাসছে ফ্রান্স

টুকরো খবর

নিয়াজ মাহমুদ, ফ্রান্স থেকে | ১৫ জুলাই ২০১৮, রোববার | সর্বশেষ আপডেট: ৫:৫২
উৎসবে ভাসছে ফরাসিরা। প্রস্তুতি আগে ভাগেই নিয়ে রেখেছিল তারা। লুঝনিকিতে ফ্রান্স-ক্রোয়েশিয়া ফাইনাল ম্যাচে দলকে উৎসাহ দিতে মাঠে উপস্থিত ছিলেন প্রেসিডেন্ট ইমানুয়েল ম্যাক্রোঁ। দেশটির আইফেল টাওয়ার, প্যারিস গেটে, শাম্প দ্য মারচ, লিয়নের বেলক্যুসহ ফ্রান্সের প্রায় আড়াই‘শ স্পটে বড় পর্দায় খেলা দেখা ও জয় সেলিব্রেট করার জন্য এ ভিড় করেন হাজার হাজার ফুটবল ভক্ত। লিয়ন শহরের বেলকু স্পটে বৃষ্টি উপেক্ষা করেও ফুটবল ভক্তরা খেলা উপভোগ করে। শাম্প দ্য মারচ-এর বড় পর্দায় চারদিক থেকে খেলা দেখার ব্যবস্থা করা হয়। বিশ্বকাপ জয় সেলিব্রেটের জন্য সেখানে জড়ো হয় প্রায় লাখো দর্শক।

৯০ হাজার দর্শকের জন্য খেলা দেখার ব্যবস্থা করা হয়ে সেখানে। এবারের সেমি ফাইনাল খেলা দেখার জন্য ২০ হাজার লোক জড়ো হয়েছিল শাম্প দ্য মারচ স্পটে।

ওদিকে, ১৪ই জুলাই ফ্রান্সের জাতীয় দিবস ও ১৫ জুলাই বিশ্বকাপ ফুটবলের ফাইনালকে ঘিরে কঠিন নিরাপত্তা বলয় গড়ে তুলেছিল ফরাসি পুলিশ।
শনিবার ও রবিবার দুদিন সাপ্তাহিক ছুটি থাকায় দর্শকদের মধ্যে ছিলো বাড়তি আমেজ। ১ লাখ ১০ হাজার পুলিশ ও আইন শৃঙ্খলা বাহিনীর সদস্য মোতায়েন ছিলো। এছাড়া আরো প্রায় ৪৪ হাজার ফায়ার সার্ভিস কর্মী মাঠে ছিলো বলে জানিয়েছেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী জেরার্ড কোলম্ব। তিন গোল ব্যবধানের সঙ্গে সঙ্গে শুরু হয় আতশবাজি ফাটিয়ে উৎসব।




এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

আপনার মতামত দিন

আওয়ামী লীগ ও বিএনপির মনোনয়ন ফরম নিলেন যারা

বিএনপিতে ফিরলেন সাবেক এমপি আব্দুর রশিদ

জোটবদ্ধ নির্বাচন হলেও সম্মানজনক আসন পাবো

নেতা-কর্মীরাই সামলাচ্ছেন সড়কের জট

চীন বা রাশিয়ার সঙ্গে যুদ্ধে হেরে যেতে পারে যুক্তরাষ্ট্র!

গ্যাটকো মামলায় খালেদার বিরুদ্ধে অভিযোগ গঠনের শুনানি ১০ জানুয়ারি

‘ছাত্রলীগ ও যুবলীগ কর্মীরা পুলিশের গাড়িতে আগুন দেয়’

পল্টনে হামলা বিএনপির পূর্ব পরিকল্পিত

ফেনীতে অপহরণ ও ধর্ষণ মামলার রায় যুবকের যাবজ্জীবন

বিকেল ২টায় রোহিঙ্গা প্রত্যাবর্তন শুরু

সুষ্ঠু নির্বাচনের পথে সকল অন্তরায় সরাতে হবে

খালেদাকে হাসপাতাল থেকে কারাগারে পাঠানোর বৈধতা চ্যালেঞ্জ করা রিটের আদেশ রোববার

ঐক্যফ্রন্টের নির্বাচন পেছানোর দাবি অযৌক্তিক

শহিদুল আলমকে অরুন্ধতী রায়ের খোলাচিঠি

প্রতীক বরাদ্দের সময় বাড়ানোর আবেদন

নির্বাচন প্রশ্নবিদ্ধ হলে আন্তর্জাতিক অঙ্গনে মুখ দেখানো যাবে না