কথা ফুটেছে তিতের মুখে

রাশিয়া থেকে

স্পোর্টস রিপোর্টার, মস্কো (রাশিয়া) থেকে | ২৯ জুন ২০১৮, শুক্রবার
সার্বিয়া ম্যাচের দশ মিনিটেই পিঠের চোট নিয়ে মাঠ ছাড়েন ব্রাজিলের লেফটব্যাক মার্সেলো। চোখে পানি দেখে সবাই ভেবেছিল, বিশ্বকাপটাই বুঝি শেষ হয়ে গেছে তার! তবে ম্যাচ শেষে ব্রাজিলের কোচ তিতে আশ্বস্ত করেছের, মার্সেলোর চোট গুরুতর নয়। সবকিছু ঠিক থাকলে মেক্সিকোর ম্যাচেই দেখা যাবে মার্সেলোকে।
আনুষ্ঠানিক সংবাদ সম্মেলনকে বরাবরই নাকি আড্ডা স্থলে পরিণত করে ফেলেন ব্রাজিলের কোচ তিতে। রাশিয়ায় পা রেখেও আড্ডাপ্রিয় তিতের আচরণ ছিল প্রায় একই রকম। এমনটি জানা গিয়েছিল ব্রাজিলিয়ান সাংবাদিকদের কাছ থেকে। কিন্তু বিশ্বকাপের গ্রুপ পর্বের দুই ম্যাচের পর সেই তিতেই সাংবাদিকদের এড়িয়ে চলছিলেন। এমনকি সংবাদ সম্মেলনেও কথাই বলতে চাচ্ছিলেন না। বিশেষ করে সুইজারল্যান্ডের বিপক্ষে প্রথম ম্যাচের পর সংবাদ সম্মেলনে ব্রাজিল কোচ তিতের মুখ ফুটে কথা বেরোয়নি।
বিভিন্ন প্রশ্নের উত্তর এড়িয়ে যেতে চেষ্টা করেন তিনি। এমনকি নিজ দলকে ফেভারিট ভাবতে চাননি তিতে। নকআউপ পর্ব নিশ্চিত হওয়ার পর তার মুখেই খই ফুটেছে। সার্বিয়াকে ২-০ গোলে হারিয়ে গ্রুপ সেরা হওয়ার পর পাঁচবারের বিশ্ব চ্যাম্পিয়নদের ঘিরে এমনিতেই প্রত্যাশার পারদ ঊর্ধ্বমুখী। তিতে তা জানেন। আর জানেন বলেই প্রথম দুই ম্যাচে তাঁর শিষ্যরা সমর্থকদের প্রত্যাশার প্রতিদান সেভাবে মেটাতে না পারায় ফেভারিট নিয়ে কিছু বলেননি। কিন্তু সার্বিয়ার বিপক্ষে নেইমার-কুটিনহোরা সৌরভ ছড়ানোর পর ব্রাজিল সংবাদ সম্মেলনে মুখ খুললেন, ‘আমরা প্রত্যাশাকে স্বাভাবিকভাবেই নিই। তবে এই দলটা সবার প্রত্যাশাকে অনেক উঁচুতে স্থাপন করেছে। কারণ, বাছাইপর্ব ও প্রীতি ম্যাচে তারা খুব ভালো করেছে।’ তিতের সেই ‘উঁচু’ জায়গাটা যে বিশ্বকাপ ট্রফি তুলে ধরার মঞ্চ, তা না বললেও চলে। তবে শেষ ষোলোয় ওঠার পর মাটিতেই পা রাখছেন ব্রাজিলের এই কোচ, ‘আমরা প্রত্যাশা নয়, বাস্তবতাকে প্রাধান্য দিই। এই টুর্নামেন্টে দলটা মানসিকভাবে ধীরে ধীরে পরিণত হয়ে উঠছে। চাপ নিয়ে কীভাবে ভালো খেলতে হয়, সেটি তারা জানে। তবে বিকল্প পথও থাকতে হবে। যেমন ধরুন, মার্সেলো চোট পেয়ে মাঠ ছাড়লো। এজন্য আপনার শক্তিশালী স্কোয়াড থাকতে হবে।’ শেষ ষোলোয় মেক্সিকোর মুখোমুখি হবে ব্রাজিল। গ্রুপ পর্বে এই মেক্সিকোর কাছেই হেরেছিল গতবারের চ্যাম্পিয়ন জার্মানি। জার্মানরা গ্রুপ পর্ব থেকেই বিদায় না নিলে শেষ ষোলোয় হয়তো তাদেরই মুখোমুখি হতে হতো তিতের শিষ্যদের। জার্মানরা সেই সুযোগ না দেয়ায় তুলনামূলক সহজ প্রতিপক্ষ পেয়েছে ব্রাজিল। যদিও এই বিশ্বকাপে এখন আর সহজ প্রতিপক্ষ বলে কিছু নেই বলে জানান এই ব্রাজিলিয়ান কোচ। আপনারা দেখুন মেক্সিকো কিন্তু বিশ্ব চ্যাম্পিয়নদের হারিয়ে এখানে এসেছে। সুতারং বুঝতে হবে ওরা মোটেও সহজ প্রতিপক্ষ নয়। এ কারণে সব সময় আপনাকে তৈরি থাকতে হবে। মার্সেলোর ব্যাপারে তিতে জানান ওর চোট যতটা গুরুতর ভাবা হয়েছিল ততটা গুরুতর নয়। পিঠে হালকা একটু টান লেগেছিল এতটুকুই। দ্বিতীয় রাউন্ডে মেক্সিকোর বিপক্ষে ম্যাচের মার্সেলোকে পাবেন বলে আশা করছেন তিতে। এদিকে মার্সেলোর বিকল্প হিসেবে ব্রাজিল স্কোয়াডে যিনি আছেন, সেই ফিলিপ লুইস অবশ্য কাল বুঝিয়ে দিয়েছেন, মার্সেলো না থাকলেও ব্রাজিলের চিন্তার কোনো কারণ নেই। বিশ্বকাপের মঞ্চে ব্রাজিলের মূল লেফটব্যাক হতে তিনিও প্রস্তুত। তাইতো মার্সেলোর বিষয়ে অনেকটাই নির্ভার তিতে।



এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

আপনার মতামত দিন

বিমানবন্দরে আত্মহত্যার চেষ্টা করা রুনা বললেন আমি মরতে চাই

দুর্নীতিবাজদের নিয়ে জোট করে সরকার উৎখাতের চেষ্টা হচ্ছে

সহস্রাধিক সাইট পেজে নজরদারি

সাধারণের ভোট ভাবনা

মেজর (অব.) মান্নানকে দুদকে তলব

ডিজিটাল আইন স্বাধীন সাংবাদিকতার অন্তরায়

২৯শে সেপ্টেম্বর আওয়ামী লীগের নাগরিক সমাবেশ

ঢাকায় বৃহস্পতিবার বিএনপি’র সমাবেশ

জগাখিচুড়ির ঐক্য টিকবে না

৫৭ ধারার মামলায় চবি শিক্ষক কারাগারে

পদ্মার ডান তীরে ভাঙন ফের আতঙ্ক

মালদ্বীপে বিরোধীদের অভাবনীয় জয়

চট্টগ্রামে গণধর্ষণের শিকার দুই কিশোরী

বিচারকের প্রতি দুই আসামির অনাস্থা

ভালো মানুষকে ভোট দিয়ে নির্বাচিত করবেন: প্রেসিডেন্ট

শেখ হাসিনার অধীনে নির্বাচনে যাওয়ার কথা বলেননি ড. কামাল